আমাদের মিনি

সঞ্জয় কুমার ১৯ জুন ২০১৪, বৃহস্পতিবার, ০৯:০৮:৫৪পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি, গল্প, বিবিধ, সাহিত্য ১৮ মন্তব্য
একদিন সকালে নিচ তলায় সিড়ির নিচে বিড়ালের মিউ মিউ ডাক শুনতে পেলাম । ছোট ভাই নিচ থেকে একটা বিড়ালের বাচ্চাটা নিয়ে আসল । বৃষ্টিতে ভিজে অবস্থা একবারে খারাপ । শীতে কাঁপছে । দেখে মায়া হল । ভালভাবে কাপড় দিয়ে মুছিয়ে দুধ খাওয়ালাম । অল্প দিনের যত্নে বেশ নাদুস নুদুস হয়ে উঠল । মিনি বলে ডাক [বিস্তারিত]

প্রথম দেখা

মিথুন ১৯ জুন ২০১৪, বৃহস্পতিবার, ০৭:৩৩:৪৭পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৪০ মন্তব্য
ট্রেন চলছে, একটু কি বেশিই ধিরে চলছে? একই সাথে পিছিয়ে যাচ্ছে, আবার এগিয়ে আসছে। অনেক দিন ধরে দেখা স্বপ্নটায় বাস্তবতার উদ্বেগ ছিলো অনেক, ভয় ছিলো, দ্বিধাও ছিলো । সেগুলো একটু একটু করে পেছন সরে যাচ্ছে, ফেরার পথে আবার দেখা হবে এমন একটা অভয় দিয়ে আমি ট্রেনের সাথে এগিয়ে যাচ্ছি। এগিয়ে আসছে আনন্দ, উত্তেজনা, আর কি [বিস্তারিত]

মনুসংহিতায় নারীর মর্যাদা

স্বপন দাস ১৯ জুন ২০১৪, বৃহস্পতিবার, ০৪:৫৪:০৮পূর্বাহ্ন বিবিধ ১৬ মন্তব্য
মনুসংহিতায় নারীর অধিকার : ————————- বিশীলঃ কামবৃত্তো বা গুণৈর্বা পরিবর্জিতঃ উপচর্যঃ স্ত্রিয়া সাধ্ব্যা সততং দেববৎ পতিঃ || অর্থ : স্বামী দুশ্চরিত্র, কামুক বা নির্গুণ হলেও তিনি সাধ্বী স্ত্রী কর্তৃক দেবতার ন্যায় সেব্য ।। ( ৫-১৫৪) স্বামীর মৃত্যু হলে তার স্ত্রীর জন্য বিধান : ” কামন্তু ক্ষপয়েদ্দেহং পুস্পমূলফলৈঃ শুভঃ ন তু নামাপি গৃহ্নীয়াৎ পতৌ প্রেতে পরস্য [বিস্তারিত]

অর্ঘ্য

ওয়ালিনা চৌধুরী অভি ১৯ জুন ২০১৪, বৃহস্পতিবার, ১২:০৫:৫৫পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ১৮ মন্তব্য
কাঁটার আঁচড় সয়েই গন্তব্যে পৌঁছুতে হবে, বিকল্প পথ খুব সহজ হয়ে যায় তোমার জন্য । এতো সাধনার প্রেমের জন্য এটুকু অর্ঘ্য দিতেই পারি । বুঝে নিও সবটা… যে কথা বলা হয়নি কখনো, সয়ে নেবো যে ভুল করে চলেছো এখনো । তোমার নির্ভরতার একমাত্র স্থান থেকে বলছি চুপিচুপি দেখতে পারো…. বাহু বন্ধনে আগলে রেখেছি তোমায় প্রিয়তম [বিস্তারিত]
রাত দুটো হঠাৎ ঘুমিয়ে যাওয়া শিশুটি চিৎকার দিয়ে উঠল।মা বাবা ভয়ে আতৎকে উঠেন “কি হলো যক্ষের ধনের?কেনো এমন করছে বাবা আমার?নাহ্ কিছুতেই থামছে না চিৎকার আর শরীরটাকে এ পাশ ওপাশ মুচরানো।এত রাতে ডাক্তার কোথায় পাবো?শিশুটি মাঝে মাঝে খিচুনি দিয়ে নির্বাক হয়ে আবার হঠাৎ চিৎকার।এভাবে চলতে থাকে প্রায় ঘন্টা খানেক এরপর বাবা একটি সি এন জি [বিস্তারিত]
একটা পুঁই ডগা তির তির করে বেড়ে ওঠে! তার বড় সাধ আকাশ ছোঁয়ার।   দেয়াল বেয়ে বাড়তে বাড়তে, কর্নিশেই থেমে যায় অবুঝ পুঁই লতা, নির্নিমেষ চেয়ে থাকে আকাশপানে।   এসব দেখে দেখে হঠাৎ একদিন, ঝুম নেমে আসে আকাশ বৃষ্টি হয়ে। পুঁইডগা তির তির কাঁপে আর হাসে।
প্রোগ্রাম টি ফোর পৃথিবীর নৃশংসতম পরিকল্পনা গুলোর একটা জার্মান রাইখস ফুয়েরার হিটলারের বিশুদ্ধ এবং শ্রেষ্ঠ রক্ত ধারনার প্রতিষ্ঠার নৃশংস পরিকল্পনা। এই প্রোগ্রামের লক্ষ্য ছিলো সমাজকে সুষ্ঠ কর্মক্ষম মানুষের জন্য রাখা , যার ফলশ্রুতিতে আবিষ্কার পরবর্তী কালের আতংক গ্যাস চেম্বার,অসুস্থ দুর্বল আনপ্রোডাকটিভ লোকজন যারা রাষ্ট্রের বোঝা তাদের নিশ্চিনহ করে দেওয়া ।এই প্রোগ্রামের আওতায় প্রথমদিকে মুলত বৃদ্ধ [বিস্তারিত]

বৃষ্টি

ছাইরাছ হেলাল ১৮ জুন ২০১৪, বুধবার, ০৭:৫৭:৩৬অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৮৯ মন্তব্য
রাত যখন রাত্রির মত ঘনীভূত হয় গভীর হয়ে কালো নিচ্ছিদ্রতার গহ্বরে নিস্পন্দ প্রাণস্পন্দনে, ধরণীর সতৃষ্ণ নয়ন চেয়ে রয় ঐ আকাশ পানে, ক্ষণকালের প্রসারিত অপেক্ষা, দীর্ঘস্থায়ী ঝড়ো জলের অঝোর বৃষ্টি। বাতাসেরা নিয়ে আসবে সে বৃষ্টি, ঠোঁটে করে ; চাতক ধরণী , নিঃসীম আকাশ । =================================== কোন লেখা হল ? এত্ত সহজ ! সকল দায় (দোষ) একমাত্র [বিস্তারিত]

আমার তনিমা

আজিম ১৮ জুন ২০১৪, বুধবার, ১১:৫৫:৫৬পূর্বাহ্ন গল্প, সাহিত্য ১৬ মন্তব্য
  কুয়াশার কারনে দৌলতদিয়া ঘাটে সেদিন প্রচন্ড জ্যাম ছিল। ১০/১২ ঘন্টার আগে ফেরী চলাচল শুরু হবেনা। প্রত্যুষের এই সময়টায় করার কিছু থাকেনা, নাইট জার্নির পর কতক্ষনই আর বসে থাকা যায় বাসে! হাঁটাহাঁটি শুরু করি। দেখি দৌলতদিয়া রেলস্টেশনের উঁচু প্ল্যাটফর্ম। ওটা ধরে কিছুদুর এগোতেই দেখা যায় একটা জটলা। কাছে গিয়ে দেখি এক মহিলার নিথর শরীর পড়ে [বিস্তারিত]
সমাধান কোথায় ??? কিছু দিন আগে মিরপুরের বিহারী পল্লীতে দশ জন কে পুড়িয়ে মারা হয়েছে , এর মাঝে শিশু ও আছে । ফেবু সহ বিভিন্ন সামাজিক ওয়েব সাইটে দেখা যাচ্ছে কেউ মানবতার পক্ষে বলছেন ওদের উপর নির্যাতন করা ঠিক হয়নি । যদিও এই বিহারী রা একাত্তরের যুদ্ধে র সময় ব্যাপক ভাবে বাঙ্গালিদের উপর অত্যাচার চালায় [বিস্তারিত]

পুরুষের সম্মান !!

সিহাব ১৮ জুন ২০১৪, বুধবার, ১২:০৬:২৯পূর্বাহ্ন বিবিধ ৬ মন্তব্য
ক্যাম্পাসের এক জায়গায় দাঁড়িয়ে কয়েকজন বন্ধু আড্ডা দিচ্ছে। কোন বিশেষ স্থানে না গিয়ে একাডেমিক ভবনের পাশে দাঁড়িয়েই শুধুমাত্র আড্ডা দেয়ার উদ্দেশ্য হচ্ছে- ক্লাস ছুটির পর-পরই এই ভবনের দরজা দিয়ে বের হবে জুনিয়র ক্লাসের ছাত্র-ছাত্রীরা। মিশন জুনিয়র ছাত্রী দেখা ! কে সুন্দর, কে কী ধরনের সেটা নিয়েই আড্ডা আর চোখের শান্তি !!! বন্ধুদের মাঝেও একছেলে ছিল [বিস্তারিত]
বোকারাই স্বপ্ন দেখে পৃথিবীটা সুন্দর করে সাজানোর। অপদার্থরাই যুক্তিহীন আবেগে পথ চলে সুন্দর ভবিষ্যতের স্বপ্নে। আমাদের ইয়ুথ ফর বাংলাদেশ এরকম কিছু বোকা আর অপদার্থের সংগঠন। সময়টা ছিল ২০১২ সালের প্রথম দিকে। আমি আর আমার এলাকার ক্লোজ ছোট ভাই, শেকড় আহমেদ ফয়সাল এই দুজন মিলে দেশের তরুন প্রজন্মের নানান দিক নিয়ে আলোচনা করতাম। আমাদের আলোচনায় উঠে [বিস্তারিত]

ঈশ্বরের সঙ্গিত

নীল রঙ ১৭ জুন ২০১৪, মঙ্গলবার, ০৯:০২:২১অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৫ মন্তব্য
  গ্রামে বৃষ্টি একটা অদ্ভূত সঙ্গিত সৃষ্টি করে।টিনের চালের বৃষ্টি পড়ার শব্দের চেয়ে মধুর সঙ্গিত জীবনে হয়ত কেউ শুনতে পাবে না।সবচেয়ে অদ্ভূত সঙ্গিতটা বাজায় ঈশ্বর নিজে।বৃষ্টির সময় কেউ পুকুরে নামলে টের পায় সেই সঙ্গিতের মূর্ছনা।আপনাকে স্রেফ বৃষ্টির মধ্যে কষ্ট করে পুকুরে একটা ডুব দিয়ে শুনে নিতে হবে এই যা।এরপর যখন আপনি জল থেকে মুখ তুলে [বিস্তারিত]

হৃদয়ের হাহাকার

মোকসেদুল ইসলাম ১৭ জুন ২০১৪, মঙ্গলবার, ১১:৪৬:৫৩পূর্বাহ্ন কবিতা, সাহিত্য ৩ মন্তব্য
ফুলের মৌসুমে ফুল নেই হৃদয় জুড়ে কষ্টের বসবাস ভালোবাসাকে আজ দিয়েছি বনবাস। বর্ষার মৌসুমে বৃষ্টির দেখা নেই ভালোবাসায় পড়েছে ধূ ধূ বালুচর কষ্টরা আজ দল বেঁধে আসে বুকে তুলতে দুঃখের ঝড়। সুখগুলো চলে গেছে গ্রীষ্মের ছুটিতে দুঃখকে সঙ্গী করে তাই চলছি পথে, পিঠের ওপর বাঁধা যেন কষ্টের বোঝা এ ভার আমি বইবো ক্যামনে বল তুমি [বিস্তারিত]

একটি অদ্ভুত ভৌতিক ঘটনা (শেষ পর্ব)

সঞ্জয় কুমার ১৭ জুন ২০১৪, মঙ্গলবার, ১১:০১:২৭পূর্বাহ্ন বিবিধ ৬ মন্তব্য
কিন্তু ছাদে এসে অবাক হলাম । সারা ছাদ খুঁজেও একটা ইটের আচড় বা দাগ নেই । সারা ছাদে এলোমেলো ভাবে বেশকিছু ইট পড়ে আছে । নতুন বুদ্ধি করলাম ছাদের সব ইট একস্থানে জমা করলাম । আর ইটের স্তুপের চারিদিকে কয়লা দিয়ে বর্ডার টেনে দিলাম । কয়লা দিয়ে বর্ডার দেয়ার কারণ রাতের অন্ধকারে যেন এটা না [বিস্তারিত]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ