বিভাগ: একান্ত অনুভূতি

পলাশীর যুদ্ধ অনুষ্ঠিত হয়েছে প্রায় আড়াইশ বছর পূর্বে। যে ঘৃণা মানুষের মনে সৃষ্টি হয়েছে মীরজাফরের প্রতি সেই ঘৃণা এখনো বয়ে যাচ্ছে মানুষের মনে। লজ্জা আর অপমানের হাত থেকে বাঁচার জন্য মীরজাফরের অষ্টম বংশধর পর্যন্ত স্বীকার করেনা যে তারা মীরজাফরের বংশধর। মানুষের ঘৃণা আর অপমান এখনো বহমান মীরজাফরদের বংশধরদের প্রতিও। ভিডিওটি দেখুন।   কতটা ধিক্কার, ঘৃণা, [ বিস্তারিত ]

বিনিময়

সাবিনা ইয়াসমিন ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, শনিবার, ০৩:৩৯:০২অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২৩ মন্তব্য
নিরন্তর প্রেমে ভালোবাসাটুকু কেনার পর, অবশিষ্ট ভালোবাসাটা গচ্ছিত রাখলাম তোমার কাছেই, দেনা-পাওনার হিসেব চুকে গেলে উচ্ছিষ্ট অংশগুলো আমি তোমাকেই দিয়ে দিবো, হয়তো এমনই এক শীত-বিকেলে স্মৃতির খসড়ায় জ্বলজ্বলে হয়ে উঠবে অগোছালো প্রণয় মুহূর্ত গুলো, তখন কি গুনে দেখবে কতটা পথ চলেছি হাতে-হাত রেখে? প্রতিটি হাসির বিন্দুতে রঙ্গীন করেছিলাম কত পৌষের বিকেল? তখনো কি অপ্রকাশিত রাখবে [ বিস্তারিত ]

ভালোবাসার বাসা বদল

এস.জেড বাবু ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, শনিবার, ০৯:৫৫:২০পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১০ মন্তব্য
পরিবর্তনেই পরিবর্ধন হয় পরিকল্পনা হয় পরবর্তীর, নিত্য নিয়মে নীতি নব্যতায় চির সত্য বিধান সৃষ্টির। সময় পরিবর্তনে জোয়ার ভাটা কালের পরিবর্তনে ঋতূ, পরিবর্তনের চক্রে কিশোরী কন্যা পরিবর্তিত নব- বধূ। বদলেছে নাক বদলেছে মুখ পরিবর্তিত বাঁকা হাসি, যেমন আখের পরিবর্তনে মিস্টি চিনি বাঁশের পরিবর্তনে বাঁশি। কিছু পরিবর্তন নিত্য প্রয়োজনে কিছু পরিবর্তন নিয়মের, কিছু পরিবর্তন গড়ে সভ্যতা কিছু [ বিস্তারিত ]

জলের কাঁচ//

বন্যা লিপি ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ১১:৪১:১৫অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৩ মন্তব্য
কাঁচটা কি নিরেট কাঁচ? এপার ওপার ভেদ করে আলো আসে -যায় যখন তখন! এক গ্লাস জল পড়ে আছে নিথর নি-রঙা! চাইলেই মুখচ্ছবি দেখা যায়! ও ছবিতে বাহারি রঙের প্রলেপ লেপ্টে থাকা- কতগুলো ভাণ ভাঙছে গড়ছে নাটিকা! যবনিকার পদপ্রান্ত বিশাল লম্বা! ধরাছোঁয়ার নেই ঠিকানা। যাপিত কড়চায় কে আর খোঁজে বাহারি রঙের বাক্য? শ্বাশ্বত নিয়মের ধারাপাতে এ্যালুমিনিয়ামের [ বিস্তারিত ]

গোলাপনামা

আরজু মুক্তা ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৭:৪১:০৫অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২৪ মন্তব্য
গোলাপ:১ তপতী দাঁড়িয়ে আছে পার্কে জিসানের জন্য গোলাপ হাতে। অথচ জিসান আজ চাইনিজে বসেছে নীরার সাথে। গোলাপ:২ প্রিয় কবির প্রস্থানে তৌহিদ এসেছে গোলাপ হাতে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে। গোলাপ:৩ এখানে ফুল ছিঁড়া নিষেধ। তাইতো সাবিনা উড়ে আসা একটা গোলাপের পাপড়ির আশায় বসে আছে, বইয়ের ফাঁকে রাখবে বলে। গোলাপ :৪ ইন্জা, আজ তার বৌয়ের জন্য লাল গোলাপ [ বিস্তারিত ]

বেওয়ারিশ ভালোবাসা

সৈকত দে ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৬:৪৩:৩১অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৯ মন্তব্য
স্রোতের টানে নদীর পানিতে থাকা ঐ শেওলার মত ভাসতে ভাসতে একদিন ঠিকই কোনো এক ডাঙ্গায় গিয়ে আছড়ে পরব।হালকা পলির আলতো ছোয়ায় শিকড় গজিয়ে বসতি গড়বো।একদিন সেই বসতি হাজারো ফোটা শেওলা ফুলে পূর্ণতা পাবে।অপরূপ সৌন্দর্যের মহিমায় নজর কাড়বে অনেকের।সেদিন হয়তো কোনো বনমালি পেটের দায়ে ফুল সংগ্রহ করে তা বিক্রির জন্য নিয়ে যাবে। হয়তো সেদিন তুমি ক্রেতার [ বিস্তারিত ]

কাঙ্খিত স্বাধীনতা

সুপর্ণা ফাল্গুনী ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৩:১৫:১৪অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২৭ মন্তব্য
আজো হামিদুর,মতিউর,মুন্সি রউফের আত্নারা ডুকরে কেঁদে মরে। ত্রিশ লক্ষ শহীদের রক্ত আহাজারি করে বারেবারে। আজো বাতাসে লক্ষ লক্ষ মা-বোনদের আত্নচিৎকারে কেঁপে উঠে, এদেশের আনাচে কানাচে ছড়িয়ে থাকা নরপিশাচদের অট্টহাসির ফোয়ারা। আজো এখানে সেখানে লাশের অর্ধগলিত দূর্গন্ধ নাকে এসে ছুঁয়ে যায়। অলিতে-গলিতে হায়নার দল ওৎ পেতে থাকে, শিশু-কিশোরী-নারীর নরম মাংস ছিঁড়ে ছিঁড়ে খাবে বলে। আজো মন্দিরে [ বিস্তারিত ]
বছরের শুরুতেই অনেক নতুন নতুন ক্যালেন্ডার বাজারে বিক্রি হয়। নানান রঙের, নানান কোম্পানির। নানান ব্যাংকের, নানান ইন্স্যুরেন্সের ক্যালেন্ডার। ইংরেজি ক্যালেন্ডারে জানুয়ারি, ফেব্রুয়ারি, মার্চ মাসের পরও কাকগুলো মাস গত হয়ে যখন নভেম্বরের শেষে ডিসেম্বরের আগমন ঘটে, তখনই বাংলাদেশের বাঙালিদের মনে বাজতে থাকে মহান বিজয় দিবসের গান। আর ক’দিন পরেই ১৬ই ডিসেম্বর আমাদের মহান বিজয় দিবস। ১৯৭১ [ বিস্তারিত ]

হে পিতা ফিরে এসো

ছাইরাছ হেলাল ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১০:১৩:০৯অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৯ মন্তব্য
  অতিকায় রক্তনদী পেরিয়ে এসে স্বাধীনতা তুমি কেমন আছ? সুখের নীরব নিঃশ্বাসে, সূর্যের চোখে চোখ ফেলে জানতে চাই, এক বিশ্বস্ত সারস-বেলার শূন্য কোলাহলের অ-রূঢ় চিৎকারে, এক বুক শান্তি আর অফুরান আনন্দে। অনুভূতিহীন নিষ্প্রাণ প্রাণানন্দের সিডর ছুঁয়ে ছুঁয়ে বিড়াল ধ্বনি শুনি, কৃতজ্ঞতার চকচকে আস্তরণে নিখুঁত নিংড়ানো মধু চাখি; রমণীয় আনন্দ-স্রোত-প্রতীক্ষা দীর্ঘায়ত হয় না আর লাগামহীন ঔদ্ধত্যের [ বিস্তারিত ]

বিবর্ণ বিরহে

প্রদীপ চক্রবর্তী ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৭:২৭:২১অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৬ মন্তব্য
বিরহ মলিনে আমি কেঁদেছি যবে, নিঃসঙ্গতার তাপদাহনলে পুড়েছি তবে। অন্তরে রেখেছি তোমায় তব বিকশিত বিকাশে, রজনী কাটাব বলে চাহিয়া আকাশে আকাশে। ফল্গুর তীরে প্রভাত শিশিরে, কত শয়নেস্বপনে করেছি বপন মম অন্তর অন্তরে। দিয়েছ তুমি আমায় কত বেদনার বিধুর, তুমি অন্যতে করেছ নিজেকে বপন অন্যতে দিয়েছ সুর। আঁচলের খুঁটে রেখেছ বাঁধিয়া তারে, আমারে ঠেলিয়া তবে দিয়াছ [ বিস্তারিত ]

ভাবুকের খেরোখাতা-২

নুরহোসেন ১২ ডিসেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৮:২১:১৯পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২৫ মন্তব্য
আমি যা ভাবি সেগুলো টুকে রাখি, আমার অধিকাংশ কথা আপনার সাথে দ্বিমত। ১. বন্দুক আর বন্ধু দুটোই অনিয়ন্ত্রিত অগ্নোয়াস্ত্র, বন্দুক বুলেট ছুড়ে বুক ঝাঝরা করে আর বন্ধু দুর্বলতায় আঘাত করে। বন্ধুদের সাথে গোপন কথা শেয়ার করা থেকে বিরত থাকুন; পিস্তল যেমন নিরলস সার্ভিস দিয়ে প্রাণ রক্ষা করে তেমনি সেটা নিজের উপর চালালে আপনার মৃত্যুটাও সহজ [ বিস্তারিত ]

লাগামহীন

এস.জেড বাবু ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, বুধবার, ১০:৩৭:১২অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২০ মন্তব্য
কোথায় তাকিয়ে আছো ? কি খুঁজছ সীমান্তে ? পিটপিট লজ্জাভরা নৃত্যবতী পাপড়ি, কেন আজ অস্থির ? বলেছিতো- দুরত্বে কিছু নেই । শুধু মরুভূমি। চাঁদনী বরণ চোখের চারপাশে এ কেমন মেঘের কাঁজল ? যে ব্যাবধানে তোমার দৃষ্টি খোঁজে উত্তর, সে পথের শুরু শেষে, আমি যুগান্তরের তৃষ্ণার্ত মুসাফির। তাকাও এ চোখে , কি দেখতে পাচ্ছো ? > [ বিস্তারিত ]
প্রতি বছর ডিসেম্বর মাস আসলেই আমার নিজের দেখা ১৯৭১ খ্রিস্টাব্দে মুক্তিযুদ্ধের সময়কার কিছু স্মৃতিকথা মনে পড়ে যায়। মনে পড়ে ১৯৭১ খ্রিস্টাব্দের মার্চ মাসে যখন মুক্তিযুদ্ধ শুরু হয়। আমি তখন ৮ বছরের এক নাবালক শিশু। বাবা আর আমার বড়দা চাকরি করতেন নারায়ণগঞ্জ, বাবা চাকরি করতেন নারায়ণগঞ্জ বর্তমান সিদ্ধিরগঞ্জ থানাধীন গোদনাইল চিত্তরঞ্জন কটন মিলে। আর বড়দা চাকরি [ বিস্তারিত ]

সূচ-বেঁধা হৃদয়

ছাইরাছ হেলাল ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার, ০৮:৩১:৫৫অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১২ মন্তব্য
  শীত কুয়াশার পেলব-পর্দা আলতো হাতে সরিয়ে ফেলে, উঁকিঝুঁকি-সূর্য মৃদু মৃদু হাসছে, নীরব অপেক্ষায় দাড়িয়ে আছি দেখব, দেখাব বলে; সে-বারের বিহানে ছুটে এসেছিল এক অ-চঞ্চল বোলতা/ভ্রমর, কাঁকর-পথে ঊর্ধ্বশ্বাসে প্রাণ ভয়ে পালাতে পালাতে আড়-চোখে তাকিয়ে দেখি সে এক রঙ্গিন প্রজাপতি! দেখবে, দেখাবে বলে পিছু নিয়েছে; অনামী-অশান্ত-হৃদয়ের ওঙ্কার-ঝঙ্কারে নেই লাল-শাড়ির অলস ইঙ্গিত, বিনিদ্র রাত্রির পাহাড়ি নিঃসঙ্গ-স্তব্ধতায় শুধুই [ বিস্তারিত ]

বিষক্রিয়া

রেহানা বীথি ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার, ০৭:৪০:১২অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২২ মন্তব্য
চল খুনেবাতাস মেখে নিই চিরদিন ফুলেল হাওয়ায় মাতাল হয়েছিস সে দিন শেষ, এখন বাতাসজুড়ে বিষ। আয় বিষবাতাস মেখে নিই নিকোনো উঠোন পাবি কোথায় আর? সে দিন ফুরিয়েছে, ঘরই এখন ময়লার ভাঁগাড়। আয় বিষে বিষে করি বিষক্ষয় স্বপ্ন দেখি, একদিন করবো জয় ওটাতে নেই কারও হাত, ইচ্ছেমতন যখন তখনই দেখা যায়।

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ