* ব্লগ (Blog) যেখানে একই সাথে লেখা, পড়া, শেখা, শেখানো, অপরের ভিন্ন মতবাদ সম্পর্কে জানা, এবং বিভিন্ন বিষয় নিয়ে অগুণতি মানুষের সাথে নিজের মনোভাব সহ মতবাদ স্বাধীন ভাবে আদান-প্রদান খুব সহজেই করা যায়। এছাড়া নিজেদের ভালোলাগা, আনন্দময় মুহুর্ত গুলো একইস্থানে জমা করা, দৈনন্দিন জীবনের খেরো খাতা ( ডায়েরি ) , চোখের সামনে ঘটা পারিপার্শ্বিক পরিস্থিতি [বিস্তারিত]

হিমুর হাতে কদম্বফুল

নৃ মাসুদ রানা ১৫ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৯:৩৭:৩৮পূর্বাহ্ন গল্প মন্তব্য নাই
ঘুম থেকে তখনো উঠিনি। কিন্তু হঠাৎ আচমকা ডাকে ঘুম ভেঙে যায়। দুচোখ মিলে ধরতেই দেখি হিমু হলুদ পাঞ্জাবি পরে দাঁড়িয়ে আছে। বুকটা ধরফর করে উঠলো। অবশ্য হিমু বুঝতে পেরে কাছে এসে গায়ে হাত বুলিয়ে বললো – আমি হিমু। বোতলের পানি চোখেমুখে ছিটিয়ে দিলো। কিছুটা সময় পর স্বাভাবিক হয়েছিলাম। হিমু বললো – ১০০ টাকা হবে? আমি [বিস্তারিত]

শেষ বিকেলের প্রণয়(শেষের কিছু অংশ)

সুরাইয়া পারভিন ১৫ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৮:০৮:২৬পূর্বাহ্ন উপন্যাস ২ মন্তব্য
গল্প লিখে চলেছি গল্প। একজন মৃত্যুপথযাত্রী মানুষের জীবন সায়াহ্নের অন্ধকারে এসে ক্ষণিক আলো পাওয়া ও সেই আলোকে আঁকড়ে ধরে বাঁচতে চাওয়া তীব্র আকাঙ্ক্ষা থেকেই শিরোনাম ‘শেষ বিকেলের প্রণয়’ নাম দিয়েছি। ইচ্ছে ছিলো  শেষ বিকেলের রোদ্দুর হবে আমার উপন্যাসের শিরোনাম । কিন্তু আমার আগেই কেউ এ শিরোনামে গল্প গুচ্ছ লিখেছেন। তাই নামটি পরিবর্তন করতে হলো সব [বিস্তারিত]

তালগাছ ভাবনা

কামাল উদ্দিন ১৫ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ০৬:৫৮:৩৬পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২ মন্তব্য
গত বছর যখন রাস্তাটা প্রসস্ত করেছিল তখন অনেক গাছ কাটা পড়লেও তাল গাছটা রয়ে গেছে বহাল তবিয়তে। এবার রাস্তাটা আরো বড় করার পরিকল্পনা নিয়েছে পৌর কর্তৃপক্ষ। তাই আমার বাড়ির উল্টো পাশের তাল গাছটা এবার কাটা পড়বে নিশ্চিৎ। দুই বছর আগে যখন এক জোড়া মুনিয়া দম্পতি তাল গাছটায় বাসা বাধে তখন থেকেই আমি অবসরে তালগাছটা নিয়ে [বিস্তারিত]

জন্মভূমি প্রিয় মাতৃভূমি

শিরিন হক ১৫ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার, ১২:২৮:৩০পূর্বাহ্ন কবিতা ২ মন্তব্য
  মাগো! তোমার উঠোনে আজ শূন্যতা হাহাকার করে মানবতার অভাবে। কিছু আগাছা আর শেয়াল কুকুরের উৎপাত বড্ড বেমানান। পশ্চিমারা চলে গেছে সেই কবে! তবুও তারা কিছু বিষাক্ত বীজ বপন করে দিয়ে গেছে গোপনে। আজ তা মাথাচাড়া দিয়ে বৃক্ষের ন্যায় দাঁড়িয়ে আছে তোমার বুকে। প্রতিনিয়ত তোমার হৃদয় খুঁড়ছে। তোমার সোনালী ফসল, সবুজ বনানী উজার করে তোমাকে [বিস্তারিত]

মি টু মুভমেন্ট, যৌন নিগ্রহ ও কিছু উপলব্ধি!!!

শিপু ভাই ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৮:৩০:০৫অপরাহ্ন সমসাময়িক ৮ মন্তব্য
মি টু তথা যৌন নিগ্রহের অনেকগুলো কেস পড়লাম। অবাক হইনি। কমন কেস। অহরহ ঘটছে এগুলো। ব্যক্তিগতভাবে আমি মনে করি দুজন প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষ পারস্পরিক সম্মতিতে যা খুশি করতে পারে তাতে আমার কিছু বলার অধিকার নাই। তাদের পাপ হলে তাদেরই হবে, প্রচলিত আইনে এটা অপরাধ হলে তারা সাজা পাবে। বাট আমি কিছু বলার রাইট রাখি না। [বিস্তারিত]
অনেক স্ত্রী বিরক্তিকর হয়। বিরক্তিকর স্ত্রীর সাথে দশ মিনিট ও কথা বলা যায় না। কিন্তু আশেপাশে মাছির মতো ভন ভন করা মেয়েগুলোর সাথে ঘন্টার পর ঘন্টা কথা বলা যায়। গুলতেকিন এর ক্ষেত্রে হয়তো তেমন ই হয়েছিল। আবার নাও হতে পারে। আমরা আমাদের জীবন থেকে দেখি। আমাদের অনিচ্ছা সত্ত্বেও অনেক প্রিয় মানুষের থেকে দূরে চলে যেতে [বিস্তারিত]

নর্তকী

এস.জেড বাবু ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৭:২৯:৫১অপরাহ্ন কবিতা ৬ মন্তব্য
শেষ হলো তোমার সদ্য মেকআপ ? নতুন করে হলো নাকি, নতুন রংয়ের ফেসপ্যাক ? সব কিছু কি হয়েছে অস্পস্ট্য – হয়েছে আড়াল !! আচ্ছা ; রংটা কি আগেরই আছে- তেমনি নিরেট নির্ভেজাল ? আইব্রু লাগিয়েছো ? টিকলিটার নিচে পড়েছো কি লাল ফোটা ? রং লাগিয়েছো ঠোটে ? ঝড়ে পড়ার আগে রক্তজবার যেমন রং লালের চেয়ে [বিস্তারিত]

সিগারেট

রুমন আশরাফ ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৪:১৭:৪৪অপরাহ্ন রম্য ১১ মন্তব্য
অনেকক্ষণ ধরেই কাদের কিসের যেন একটি হিসেব করছে। ঠিক ধরতে পারছি না কিসের হিসেব। ওর পড়ার টেবিলটি আমার টেবিলের ঠিক উল্টো পাশে। আমি ঘাড় ঘুড়িয়ে তাকালাম ওর দিকে। চেয়ারে বসে টেবিলের দিকে ঝুঁকে আছে সে। কিছুক্ষণ পর মাথাটি উঁচু করে সিলিং এর দিকে তাকিয়ে রইল। এবার কি কি যেন বলল বিড়বিড় করে। পিছন থেকে আমি [বিস্তারিত]

সব কেন’র উত্তর পাইনা কেন?

তৌহিদ ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১২:৪০:৫৮অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১১ মন্তব্য
এক- কাঠবিড়ালির লেজ লম্বা কেন? আমি- বাবু, ঐ যে দেখো কাঠবিড়ালি! বাবু- ভাইয়া, ঐটা কাঠবিড়ালি? হ্যা ভাইয়া, দেখেছ কত্ত সুন্দর! পিঠে লম্বা ডোরাকাটা আর কি লম্বা লেজ! ভাইয়া, কাঠবিড়ালির লেজ লম্বা কেন? – তাতো জানিনা ভাইয়া। বাবু- কেনো? লম্বা লেজ দিয়ে ওরা কি করে? – আমি এটাও জানিনা বাবু। নিশ্চই কোন কাজ আছে লেজটার। বাবু- [বিস্তারিত]

সময়ের কার্ণিশে ধুলোমাখা দিন

শফিকুল ইসলাম ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১১:৫৪:৪১পূর্বাহ্ন কবিতা ১৬ মন্তব্য
  মহাকাল বিদীর্ণ করে আধভাঙা ঘুমে ছুটছে দলছুট এক অশ্ব, তার পায়ে ডঙ্কা বেজে ওঠে দারুণ রোষে গলিত স্বপ্ন লাভা হতে চায়নি তো কোনোদিন! আজ সময়ের কার্ণিশে অহেতুক ধুলোমাখা দিন অজস্র ফানুসের মরে যাওয়া আবদার পথের বাঁকে দেখেছে কি ডানা মেলা গাঙচিল? এখানে পৃথিবীর জন্মদিন লেখা হয়নি! সপ্তর্ষিমণ্ডল কক্ষচ্যুত যোগী হয়ে পেতেছে দুহাত। আলেয়ার জ্বলে [বিস্তারিত]

নির্বাণ প্রত্যাশা

ছাইরাছ হেলাল ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১১:২৪:৩৭পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৬ মন্তব্য
  অ-ঘুমের স্থূল শরীরী নিশীথ-স্বচ্ছ-স্বপ্ন হৃদয়ান্তরালে কানাকানি করে, ছুটে আসে ছায়া-কায়াহীন ভাবে দলে দলে; সঞ্চারিত হয় না অতীন্দ্রিয় চক্ষু চেতন অবচেতনে, নির্বাণ প্রত্যাশায়, স্মৃতি-বিস্মৃতির পাতালে। হেমন্ত হাওয়ার আমন্ত্রণে দাঁড়িয়ে আছি নির্লিপ্ত প্রাঙ্গণে অনাত্মীয়তার দায় নিয়ে, অনুর্বর পরাভবে; হে সত্য, আলোকিত কর আমার তীব্র অনুজ্জ্বলতা জোনাক-জ্বলা রাত্রিতে জোনাকির ভালোবাসায়।

অভিনন্দন গুলতেকিন!

মারজানা ফেরদৌস রুবা ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১০:১৮:৪০পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৮ মন্তব্য
হুমায়ুন আহমেদ এবং গুলতেকিন দুজনে একটা সময় আলাদা হয়ে গেলেও তাদের কাউকেই একের বিরুদ্ধে অন্যজনকে তেমন অভিযোগ করতে শোনা যায়নি। এটাই সুন্দর ব্যক্তিত্বের মান। মর্যাদাবোধ সম্পর্কে সচেতনতা এটাই অথচ আমরা তাদেরকে কেন্দ্র করে একজনকে ভালোবাসি বলে আরেকজনকে ছোট করছি, কেনো? কেউ কেউ তো দেখছি রাগের বশে কথার লাগামও হারিয়ে ফেলছেন! আহা! বি কুল। সমালোচনা করুন, [বিস্তারিত]

হিমুর হাতে হলুদ ফুল

নৃ মাসুদ রানা ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৯:৩৫:৫৮পূর্বাহ্ন গল্প ১২ মন্তব্য
পুরো রুমে আতরের আত্মারা কেবলই ভেসে ভেসে খেলা করছে। নিশ্বাসে বুকের ভেতরের নাড়িভুড়ির গন্ধগুলোও নিমেষেই নিঃশেষ হয়ে গেছে। পেট ফুলে ফেঁপে কথার তালে তালে শ্বাসপ্রশ্বাস সংগ্রহশালার যে ক্ষয়ক্ষতি হচ্ছে তাতেও সুগন্ধি আতরের সুগন্ধ বিদ্যমান। আয়নার সামনে দাঁড়িয়ে গুনগুনিয়ে গান গেয়ে গেয়ে মাথায় চিরুনি করছে। আর আড়ালে আবডালে নিজের চোখে চোখ রেখে মুচকি হাসি হাসছে। আর [বিস্তারিত]

বিশ্বাস একদিন নাস্তিক ছিলো

নাজমুল হুদা ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ০৯:৩৩:৩৪পূর্বাহ্ন কবিতা ১৪ মন্তব্য
একবার পৃথিবীর গর্ভে বিশ্বাস জন্মে ছিলো তাঁর ভুখন্ড ছিলো,পক্ষ ছিলো,বিপক্ষ ছিলো পোড়া মাটির মতো প্রসিদ্ধ ইতিহাসও ছিলো। বিশ্বাস নাস্তিক ছিলো পরীক্ষা করেছিলাম কখনও তুমি কখনও আমি কখনও আমি কখনও তুমি- তাঁর ছিলাম। একবার তৃতীয় পক্ষ বিশ্বাস দাবি করে ছিলো আমরা তৃতীয় পক্ষকেও বিশ্বাসের অজুহাতে স্বৈরাচারী শাসকের মতো ইচ্ছামত শোষণ করি কাক ও কোকিলের মতো আষ্টেপৃষ্ঠে [বিস্তারিত]

উপহার ও শুভেচ্ছা বার্তা

সুরাইয়া পারভিন ১৪ নভেম্বর ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ১২:০৪:০১পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২৯ মন্তব্য
তোমায় নিয়ে লিখতে গিয়ে কতকিছুই যাই ভুলে কোনটা রেখে কোনটা লিখি- ভাবছি কেবল হাই তুলে, কাজল কালো দুই নয়নের আলোয় ঘোচে অন্ধকার রাঙিয়ে দিলে জীবন আমার, হোক না শ্যামল রং তোমার।। হাসিমাখা মুখে যখন বললে আমায় বন্ধু হে – ভাবছি হাজার যোগ্য কি তার দেবো জবাব এই ভবে, কিছু স্মৃতি থাকনা জমা মনের গহীন বন্দরে [বিস্তারিত]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ