বিভাগ: পরিবেশ

জিবনবোধ (পোশাক পরিচ্ছেদ।)

মোঃ মজিবর রহমান ১ ডিসেম্বর ২০১৯, রবিবার, ০৬:২২:৪২অপরাহ্ন পরিবেশ ১৭ মন্তব্য
মানুষ জন্মগতভাবেই বর্তমানে পরিবার, সামাজ ও রাষ্ট্রীয় আইন কানুনের মাঝে জীবন অতিবাহিত করে।  ধর্ম ও তন্ত্রভেদে শাসন কানুন আলাদা আলাদা। আছে সুন্দর পরিবেশ, চকচকে , ঝকঝকে পরিপাটী। আমরা কেউ দেশের আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন কেউ কেউ ধর্মকেও অবজ্ঞা করে চলি।  একই রাষ্ট্রে দুই নিতি বা তন্ত্রে শাসন কারয পরিচালনা খুব কঠিনি না,  অতিশই কঠিন। আমরা যদি [ বিস্তারিত ]

কসাই’র মতন আচরনঃ

শামীম চৌধুরী ২৭ নভেম্বর ২০১৯, বুধবার, ০১:১৮:৫৫পূর্বাহ্ন পরিবেশ ২১ মন্তব্য
ফটোগ্রাফীর শুরুতে এই পাখিটির দেখা মিলে ও ছবি তুলি। তখন জানতাম না পাখিটির নাম কি? পরে জানতে পারি পাখিটির নাম। প্রতিটি প্রানীর কাজের সাথে তার নামকরনের একটি স্বার্থকতা থাকে। প্রানীর আচরন,খাদ্যাভ্যাস ও গতিবিধই তার নাম বহন করে। তেমনই এই পাখিটি। যার নাম ”ল্যাঞ্জা লাটোরা” বা ”কালোমাথা কসাই” বা ”কাজল আঁখি”। খাবার শিকার করার পর কসাইয়ের [ বিস্তারিত ]

অগ্নিকাণ্ড এবং অগ্নিনির্বাপক

রুমন আশরাফ ২৬ নভেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার, ০৯:৪৬:১৯অপরাহ্ন পরিবেশ ১০ মন্তব্য
প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধ উত্তম। অগ্নিকাণ্ডের পর অগ্নি নিভানোর জন্য প্রাণপণ চেষ্টা করি ঠিকই, কিন্তু অগ্নিকাণ্ডের কারণ এবং অগ্নিকাণ্ড যেন না ঘটে সেসব নিয়ে খুব একটা ভাবিনা আমরা। না মানি কোনও নিয়মনীতি, না মানি যথোপযুক্ত সেইফটি কালচার। অগ্নিকাণ্ডের অনেকগুলো কারণের মধ্যে বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিট অন্যতম। অথচ এসব শর্ট সার্কিট যেন না ঘটে তার জন্য কার্যকর কোনও [ বিস্তারিত ]
খুব সকালে না গেলে সাতছড়ি টাওয়ার থেকে ছবি পাওয়া যায় না। পূব আকাশে সূর্যের আলো ভেসে ওঠার সঙ্গে সঙ্গে পাখিদের কল-কাকলিতে ভরে ওঠে চারপাশ। এসময় নানা প্রজাতির পাখি খাবারের সন্ধানে বের হয়। সে কারণে সকাল ৭টায় টাওয়ারে উঠে গেলাম। একটানা ছবি তুলে টাওয়ার থেকে যখন নামলাম তখন মধ্যদুপুর। সাতছড়িতে যেমন থাকার ভালো জায়গা নেই, একইভাবে [ বিস্তারিত ]
‘বড় বসন্তবৌরি আমাদের দেশীয় আবাসিক পাখি। অঞ্চল ভেদে এর নাম ‘নীল-গলা বসন্তবৌরি’ ‘বড় বসন্তবৌরি’ বা ‘ধনিয়া পাখি’। এরা মেগালাইমিডি গোত্রের অন্তর্ভূক্ত দক্ষিণ ও দক্ষিণ এশিয়ার একই প্রজাতির পাখি। বাংলাদেশ, নেপাল, ভুটান, থাইল্যান্ড, মিয়ানমার ও চীনের দক্ষিণ অঞ্চলে এদের বাস। নীল-গলা বসন্তবৌরির মুখ, গলা ও বুকের উপরের দিকে গাঢ় আসমানী নিল (এ কারণে এই প্রজাতির ইংরেজি [ বিস্তারিত ]
কোন সংকেতে কী অর্থ, কী সতর্কতা? ৥ ঝড়-সাইক্লোন-জলোচ্ছ্বাসের মত নানা প্রাকৃতিক দুর্যোগের দেশ বাংলাদেশ। প্রাকৃতিক দুর্যোগের হাত থেকে জানমাল রক্ষায় অনেক এগিয়ে এখন বাংলাদেশ। আবহাওয়া অধিদপ্তরের সতর্কতা এবং সরকারের নানা পদক্ষেপে দূর্যোগের থেকে রক্ষা পায় উপকূলের প্রাণিকূল। আসুন জানি, সমুদ্রবন্দরের জন্য ১১টি সংকেত: ১নং দূরবর্তী সতর্ক সংকেত: এর অর্থ হলো জাহাজ ছেড়ে যাওয়ার পর দুযোগপূর্ণ [ বিস্তারিত ]

বড়ছড়ায় পরিচয় সিংহরাজের সঙ্গে

শামীম চৌধুরী ৫ নভেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার, ০১:২৬:২৪পূর্বাহ্ন পরিবেশ ৯ মন্তব্য
সিংহরাজ পাখিটির সঙ্গে ২০১৫ সালে প্রথম পরিচয় হয় কাপ্তাই ফরেস্টের বড়ছড়ায়। আমরা বেশ কয়েকজন ফটোগ্রাফার পাখির ছবি তোলার জন্য ঢাকা থেকে কাপ্তাইয়ের উদ্দেশ্যে রওনা হই। বড়ছড়ায় প্রবেশ মুখে আনসার ক্যাম্প। ক্যাম্পের প্রবেশ মুখে আনসারদের সতর্কবাণী ছিলো বন্যহাতীর উপদ্রব সম্পর্কে। আমরা যাওয়ার কয়েকদিন আগে বন্যহাতীর তাড়ায় স্থানীয় একজন মারা যান। খবরটা শুনেই গা শিরশির করে ওঠে। [ বিস্তারিত ]
গাছের উপরের গাছকে বলে ‘পরগাছা’। বছরের পর বছর বনের প্রকৃতিতে পরগাছারা বেশ ভালোভাবেই টিকে আছে। তবে কিছু কিছু পরগাছার জন্ম ও বেঁচে থাকার ক্ষেত্রে ‘ফুলঝুরি’ (Flowerpeacker) পাখিদের ভূমিকা অনেক। নিজেদের স্বার্থেই পরগাছা জন্মাতে সাহায্য করে ‘কমলা-নীল ফুলঝুরি’। সংরক্ষিত বনের বিশালাকৃতির কোনো কোনো গাছের উপর শূন্যে রয়েছে অসংখ্য পরগাছা। এই পরগাছার ফুল ও ফল থেকে ফুলঝুরিরা [ বিস্তারিত ]

বন্যপ্রাণী প্রকৃতির অলংকার।

শামীম চৌধুরী ২১ অক্টোবর ২০১৯, সোমবার, ১২:১৮:৫০পূর্বাহ্ন পরিবেশ ২৮ মন্তব্য
কোটি কোটি টাকার লোভে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে নিয়মিত ধরা পড়ছে নিরীহ সরীসৃপ প্রাণী তক্ষক। সারাদেশেই তক্ষক পাচারকারীরা ব্যাপক তৎপর। শুধু অর্থের লোভে দেশের পাচারকারীরা বিদেশে পাচারে সহায়তা করছে মূল্যবান এসব বন্যপ্রাণী। কিন্তু কী কারণে একেকটি তক্ষকের মূল্য এত! এর কারণ অনুসন্ধানে বিশেষজ্ঞরা জানান, মূলত মহাবিপন্ন বা বিপন্ন প্রাণীদের অতি উচ্চমূল্যে বিক্রির দূরদর্শী পরিকল্পনার অংশ হিসেবেই [ বিস্তারিত ]

পরিযায়ী পাখির বন্ধু হই।

শামীম চৌধুরী ১৮ অক্টোবর ২০১৯, শুক্রবার, ১২:২৯:১৭পূর্বাহ্ন পরিবেশ ২৩ মন্তব্য
মধ্য অক্টোবর থেকে আমাদের দেশে পরিযায়ী পাখির আগমন শুরু হয় । প্রতি বছর দেশে শীত আসে আর শীতের সঙ্গে আসে অসংখ্য পরিযায়ী পাখি। দূর দেশ থেকে আসে একটু আশ্রয় ও খাদ্যের আশায়। বিশেষ করে যেসব দেশে শীতের তীব্রতা খুব বেশি, খুব ঠাণ্ডায় যেখানে পাখিগুলোর টিকে থাকা কঠিন হয়ে পড়ে; খাবার থাকে না। বাসা বাঁধার জায়গা [ বিস্তারিত ]
জানুয়ারি মাসের শেষ সপ্তাহ। বন্যপ্রাণী গবেষক ও আলোকচিত্রী আদনান আজাদ আসিফ এবং অভিনেত্রী, উপস্থাপিকা ও ফটোগ্রাফার ফারজানা রিক্তাসহ রাত দেড়টায় রওনা হলাম ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার মুহুরী বাঁধে। ভোর ৬টায় মুহুরী পৌঁছলাম। ছোট্ট একটি বিল। বিলের পানি নিয়ন্ত্রণ করে পানি উন্নয়ন বোর্ডের এই বাঁধ। বাঁধের মাধ্যমে শীতকালে বিলে মাছ চাষের জন্য পানি আটকে রাখা হয়। বলা [ বিস্তারিত ]

লেজকাটা টিয়া

শামীম চৌধুরী ৪ অক্টোবর ২০১৯, শুক্রবার, ০১:২৫:৫৬পূর্বাহ্ন পরিবেশ ১৪ মন্তব্য
ছোটবেলা থেকেই নতুনত্বের প্রতি আগ্রহ ছিল বেশি। তাই সবসময় নতুন কিছু পাওয়ার জন্য অনেকটাই মোহগ্রস্ত হয়ে পড়তাম। বন্যপ্রাণী গবেষক ও আলোকচিত্রশিল্পী আদনান আজাদ আসিফের হাত ধরে প্রথম সাতছড়ির সবুজ বনে যাই। ভোর ৬টায়  আমরা সাতছড়ি পৌঁছলাম। নতুন বন ও বনের রাস্তা দেখে ভালো লাগল। সবুজে ঘেরা বনে প্রকৃতির সঙ্গে মিশে গেলাম। প্রায় ৮৯টি সিঁড়ি বেয়ে [ বিস্তারিত ]

খোঁপাডুবুরির মাথায় খোঁপা।

শামীম চৌধুরী ২৩ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, ১২:৪৪:১৪পূর্বাহ্ন পরিবেশ ২৩ মন্তব্য
আগের দিন রাজশাহী কুয়াশায় আচ্ছন্ন  ছিলো। সকালে হোটেলের বারান্দায় বসে চা পান করছি। হঠাৎ সোনা-ঝরা রোদে মনটা ভরে উঠলো। কারণ চিত্রশিল্পী ছবি আঁকে রং-তুলি দিয়ে। আমরা ছবি তুলি আলো দিয়ে। তাই আলো যদি না থাকে তবে ছবির মান ভালো হয় না। ক্যামেরাটা নিয়ে হোটেল থেকে বের হলাম। রওনা দিলাম টি-বাঁধ সংলগ্ন ঘাটে। নৌকায় এদিক-ওদিক ঘুরছি। [ বিস্তারিত ]
দেশের বিপন্ন পাখি প্রজাতির মধ্যে সবচেয়ে বেশি বিপন্নের তালিকায় রয়েছে শকুন। অতীতে শত শত শকুন নেত্রকোনা ও সুনামগঞ্জের হাওরসহ দেশের বিভিন্ন এলাকা এবং বড় বড় গাছের মগডালে দেখা গেলেও এখন তেমন একটা দেখা মিলছে না। এক সময় শকুন ছিল গ্রামবাংলার চিরচেনা পাখি। সে সময় পশু বা জীবজানোয়ার মারা গেলে দলবেঁধে হাজির হতো শত শত শকুন। [ বিস্তারিত ]

লালচে বাদামি চোখের লালশির।

শামীম চৌধুরী ১৬ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার, ১২:৪৮:৪৫পূর্বাহ্ন পরিবেশ ১২ মন্তব্য
লালচে বাদামি চোখের লালশিরঃ * ভোরে হাতিয়া লঞ্চ ঘাটে পৌঁছলাম। সিএনজি অটোরিকশা নিয়ে রওনা দিলাম নিঝুম দ্বীপের কালামচর সুইস বাজার ঘাটে। সকাল ৯ টায় পৌঁছে নাস্তা শেষে নৌকায় উঠলাম। মাঝি তাজুদ্দিন পূর্ব পরিচিত থাকায় আমাদের গন্তব্য তার জানা ছিলো। আমরা যাচ্ছি বিরবিরিয়া চরে। সাগরে তখন জোয়ার চলছে। বিভিন্ন প্রজাতির পাখি সাগর পাড়ে বিশ্রাম নিচ্ছে। নৌকা [ বিস্তারিত ]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ