নামকরণের শিশু

ছাইরাছ হেলাল ১১ অক্টোবর ২০২০, রবিবার, ০৬:১৫:১২অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২০ মন্তব্য

 

রূপ-কথার গল্প বলছি-না, রূপক করে –ও-না,
একবার একটি শিশু এসেছিল, বাবা-মায়ের কোলে-পিঠে চড়ে,
তাকে নাকি নামকরণ করে দিতে হবে!!
বলে কী! এ কেমন তর কথা!!

এ যেন ফট করে এসে পিৎজা পাস্তার বায়না,ব্লাক ফরেস্ট কেক,
চিপস, চকোলেট আর শেষে একটু খানি বেজায় ঝাল শুটকির আবদার!!
আমালকির আচার!

মাথা গুঁজে/খুড়ে মুষড়ে পড়ে নেতিয়ে ত্যানা ত্যানা হয়ে যাব!!
অন্ত্যমিলের ব্যাকরণ খুঁজে-খুঁজে!!
আদিখ্যেতার তেজ দেখিয়ে হু হু হুম হুম,হয়ে যাবে,হয়ে যাবে,এ আর এমন কি!!
শ্বেতপত্র তো নয় কোন, হয়ে গেল বলে, কোন ব্যাপার-না।

আমি তো কোন জাদুকর বা স্বপ্ন খেকো কবি/লেখক নই,
তাই স-উল্লাসে বলে দিতেই পারি,
এ সব হবে-টবে না, অন্য চেষ্টা দেখুন,সাজ-সকালের মায়া ছেড়ে,
খুব একটু ভাব-গম্ভীরের আগাম বায়না করে!

সপ্তপদি সুঘ্রাণ ব্যঞ্জন, সুগন্ধার ইলিশের দোপেয়াজা বা সরষে ইলিশ,
ফুসকা বা চালতার টক-মিষ্টি-ঝাল আচার!!উহ! সে সবে-ও-না!!কভি নেহি!!

ফোকলা দাঁতের নচ্ছার শিশুটি মুঠো পাকিয়ে শূন্য ঘুসি বাগিয়ে
খটখট করে হেসে দিয়েছে/ফেলেছে!!

ইশ, ইশশিরে …………………

ছবি নেটের

৭৫জন ৩৫জন
0 Shares

২০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য