একটি সূচিমুখি-শয়তান (আমার)লেখা-নিবিষ্ট মনে
আছর করে বসেছে, প্রবিষ্ট হচ্ছে, প্রবিষ্ট করাচ্ছে;
যথেষ্ট খোঁড়া-খুঁড়ি নিয়ে/করে,
যেন বৃষ্টি-জলে চৌবাচ্চা উপচে পড়ছে;

চোরা-হাসি-মুখো-শয়তান মুষল ধরে
মেঘ-সহায়তায় নিয়ম করে, এবেলায়-ওবেলায়
স্বর ও ব্যঞ্জনবর্ণ শেখায় জোর-জবরদস্তি করে;

হস্তাক্ষর দেখে চমকে উঠি, চিনে নিতে পারি না,
অচেনা শব্দের মায়াজালে এ কোন আমি!!

সময় বিচারহীন ফষ্টিনষ্টি-পণ্ডিত-শয়তানের দিক থেকে
মুখ ঘুরিয়ে ভাবি, এ কোন ভেসে যাওয়া বৃষ্টি!

হঠাৎ কোন এক দৈব-সাহায্য পেয়ে
মুখোমুখি-শয়তানকে জিজ্ঞেস করি,
কী চাই/চাও, খোলসা করে এবারে বলে ফেল দেখি?
অধিক রসালো আমি-তুমির ছং-বং-হুল্লোড়?

সে আমি কিছুতেই দু’পাত্তরের বেশী নেব না।

ছবি নেটের।

১৮৭জন ৫১জন
0 Shares

৩২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য