“সম্পর্ক”

রেজওয়ানা কবির ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, শুক্রবার, ০১:৪৯:৫৩অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৩১ মন্তব্য

“সম্পর্ক” 

এই শব্দটি আমাদের কাছে খুবই পরিচিত।একেকটা সম্পর্ক একেকরকম।প্রত্যেক সম্পর্ককে পরিচর্যা,যত্ন,বিশ্বাস,ভালোবাসা,দায়িত্ব দিয়ে ধরে রাখতে হয়।সম্পর্কে রাগ,অভিমান,ভালোবাসা,প্রত্যাশা,আশা,এসব থাকা স্বাভাবিক। যদি কোন সম্পর্কে এসব না থাকে,তবে আমার কাছে সেটা সম্পর্কই না।
বাবা-মা ও সন্তানের সম্পর্ক কোনদিন ও শেষ হয় না।তবে এছাড়া বাকিসব সম্পর্কে স্বার্থ থাকে। সম্পর্ক সেটা যেমনই হোক আর যাই হোক,সেটা ধরে রাখার দায়িত্ব দুপক্ষের।একতরফা কোন সম্পর্ক হয় না।হলেও সেটা নিজের কাছে নিজের শান্তনা ছাড়া আর কিছু নয়।
সম্পর্কে প্রত্যাশাতো থাকবেই।অনেকেই সম্পর্কের মূল্যায়ন করতে জানে না,তাই হয়তো সম্পর্ক টিকে থাকে না।তবে যেকোন সম্পর্কই ভেঙ্গে গেলে সেই সম্পর্কের  ভালো কিছু স্মৃতি যেমন থাকে,আর সেই ভালো স্মৃতিগুলোকে আকড়ে মানুষ বাকিটা পথ পাড়ি দেয়।ঠিক তেমনি কিছু খারাপ স্মৃতি ও থাকে যেগুলো মানুষের পরবর্তী জীবনে বেশী খারাপভাবে প্রভাব ফেলে।
সম্পর্ক শেষ হওয়ার সাথে সাথে যে মানুষটা সম্পর্কটাকে টিকে রাখার জন্য বেশী চেষ্টা করত,সেই মানুষটা তার অনেক ভালো ভালো গুন,ভালোলাগা নিজের জীবনের কিছু অংশ হারিয়ে ফেলে।সেই মানুষটা আর আগের মানুষটা হতে পারে না,শত চেষ্টার পরও পারে না।অর্থাৎ,সম্পর্ক ভেঙ্গে যাওয়ার সাথে সাথে অনেক অস্তিত্ব বিলীন হয়ে যায়।কেননা, সম্পর্কের  সময়গুলোতো আর ফিরে পাওয়া যায় না,এবং ধরে রাখাও যায় না।
সম্পর্ক শুরু হলে মানুষের অনেক আবেগ থাকে,ভালোবাসা,ভালোলাগা থাকে,মানুষ আবার নতুন করে বাঁচতে শেখে,যাই দেখে আশেপাশে তাই ভালো লাগে।তাই আকড়ে ধরার চেষ্টা করে।আর অপরদিকের মানুষটা যখনি বুঝে ফেলে,যে সে না চাইতেও অনেক কিছু পেয়ে যাচ্ছে,বা তার এত ভালোবাসার দরকার নেই,বা শুধু ভালোলাগা আছে,বা ভালোবাসা থাকলেও প্রকাশ করবে না এরকম অনেক এক্সকিউজ থাকে তখনি শুরু হয় তার পাশের মানুষটাকে অবহেলা করা,ছোট করা,অসম্মান করা,এভাবেই শেষ হয়ে যায় সেই সম্পর্ক।
হয়তো সম্পর্কটা শেষ হয়ে যায় কিন্তু তার রেশ দুইপক্ষকেই পোহাতে হয়,হয়তো যে বেশি ভালোবাসে সে ভেঙ্গে পড়ে আর যে প্রকাশ করতে পারে না সে হয়তো সেই একইভাবে দুমরে মুচড়ে নিজের মাঝেই থাকে মানে,ভাঙ্গবে,তবু মচকাবে না।অথচ কষ্ট কিন্তু দুজনেই পায়।
 সম্পর্ককে ধরে রাখার দায়িত্ব দুজনের সেটা হোক না বন্ধুত্ব,হোক না স্বামী-স্ত্রী, হোক না বন্ধুর চেয়ে বেশি।আর সম্পর্ক ছেলে মেয়েই শুধু না,একটা ছেলে আরেক ছেলের খুব ভালো বন্ধু হতে পারে,আবার একটা মেয়েও একটা মেয়ের ভালো বন্ধু হতে পারে।সম্পর্ক যার সাথেই হোক না কেন সেটা রক্ষনাবেক্ষনের দায়িত্ব দুজনের। আর তাকেই ভালোবাসুন যে আপনার ভালোবাসা বুঝবে,শ্রদ্ধা করবে। আর অতিরিক্ত ভালোবাসা প্রকাশ করলেই মানুষ অবলীলায় তা অবহেলা করতে শুরু করে।ভালোবাসুন কিন্তু কম প্রকাশ করুন, এতে যেকোনো সম্পর্কই ভালো থাকবে।
 আসুন,প্রত্যেক সম্পর্ককে সম্মান করি, ভালোবাসি,দোষ বা ত্রুটি থাকলে সেগুলো বের করে সমাধান করি,একজন আরেকজনকে বিশ্বাস করি, সম্পর্কটাকে ধরে রাখি আজীবন।কেননা সম্পর্ক ভেঙ্গে গেলে অনেককিছু শেষ হয়ে যায়, যা চাইলেও আর ফিরে পাওয়া যায় না,কিন্তু অনুভূতিগুলো একই থাকে। তাই সময় থাকতে তা ধরে রাখুন,কারন একসময় আফসোস হতে পারে। তাই ভালোবাসার মানুষের হাতটা ফিচারের ছবির মত শক্ত হাতে ধরে রাখুন।
সম্পর্কে জটিলতা থাকবেই,সেটাকে জয় করতে প্রিয়জনের হাতটা ধরুন,তাকে বুঝুন ।
ছবিঃ নিজের
২৩২জন ৭১জন
0 Shares

৩১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য