সরলে গরল

বন্যা লিপি ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০২২, সোমবার, ০৮:১১:৫৪অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২২ মন্তব্য

হাতের পাঞ্জা আর আঙুল গুলোকে কায়দা করে ধরে; খালি গেলাস নিয়ে বসি! কিছু তরল ঢালি! বলছিনা,  কোন সে  অংশ জল, নাকি অন্যকিছু? টেবিলের ওই পাড়ে ছায়া! ছায়ার চোখ জন্ম থেকেই ঘোলা। পূণরায় – পুনশ্চ রকম দুর্দান্ত সব ফাগুন চুরির প্রচ্ছন্ন অযুহাত বিদ্ধ! টইটুম্বুর রসালো বায়োলজি বা কেমিস্ট্রির কি চমৎকার গবেষণা!  ল্যাবরেটরীর মাইক্রোস্কোপ কাঁচ এড়িয়ে চলে স্বদম্ভে!

শতকের খাটো কিংবা দীর্ঘতায় বাৎসল্যের আচরন। কি করে তফাৎ মাপার করবে সাহস!  ডুবন্ত ভাঙা মাস্তলের শীর্ষে দাঁড়িয়ে এঁকে যায় খাড়া পাহাড়ের স্কেচ্। শুন্য হয়ে  ঢুকে পড়ে পৃথিবী  থেকে শুন্য কেড়ে নিতে। কারো সযত্নে গুছিয়ে রাখা নিপাট বসন্ত বাতাসটুকুও কেড়ে নেয়। খোলা শার্টের আস্তিনে মুছে নেয় ঠোঁটের কোনে লেগে থাকা শেষ জলের অংশ।

অবশেষে গেলাসটা স্বশব্দে ভেঙে টুকরো হয়ে যায়।

তরল গুলো গিয়ে ঢুকে পরে অন্ধকারের পেটে। কাঁচগুলো বসে যায় বুকের ভেতরে নিশ্চিন্তে।  বিবরে ঠাঁই নিতে যতটুকু বাকি সে পর্যন্ত……

৩৮৭জন ২২৮জন
0 Shares

২২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ