11714554_682322065206208_1716957880_n
আমেরিকার ২৩৯ তম জন্মদিন গেল। সন্ধ্যা আর রাত্রির মিলন ক্ষণে অদ্ভুত সুন্দর এক আকাশের নিচে হাজার হাজার উৎসুক মানুষ আকাশের দিকে চেয়ে। কেউ নদীর ধারে, কেউ বা ব্রিজের উপরে। কেউ হাত ধরাধরি করে দাঁড়িয়ে। কেউ বা ক’দিন আগে জন্ম নেয়া শিশুকে বুকে জড়িয়ে। পুরো পরিবেশটা কেমন সহজ, সরল, শান্ত আর স্বতঃস্ফূর্ত।

রিহান আজ জীবনের প্রথম আতশবাজি দেখতে যাচ্ছে। তাঁদের বাবা কাজ থেকে ফিরেই শরীর জুড়ে জেঁকে থাকা ক্লান্তির তোয়াক্কা না করে ছুটছে তাঁদের নিয়ে। হাতে সময় কম। গাড়ি হাইওয়ে ধরে ছুটে চলছে। একদিকে রাস্তা বন্ধ তো অন্যদিকে, অন্য রাস্তা ধরে। অবশেষে আমরা রিভার ভিউ পয়েন্টে ব্রিজের উপর দাঁড়িয়ে……

বাবার কোলে পিঠে চড়ে আগ্রহ ভরে আতশবাজি দেখার সময়টাতে তীব্র উচ্ছ্বাসে বারংবার বলে উঠছে__ আব্বুজি, লুক… লু-ক ! তাঁর ধারনা, আব্বুজিও হয়তো আজই প্রথম ঝলমলে আকাশ দেখছে। তাঁদের বাবাও “ওয়াও” “ওহ্‌ মাই গড” জাতীয় উৎসাহ ব্যঞ্জক শব্দগুলো বলে যাচ্ছিলো আতশবাজির ঠুস্‌ঠাস শব্দের মাঝে, আলোকোজ্জ্বল আকাশের পানে চেয়ে। বাবা’রা বোধ হয় এমনই !

আমি অদূরে দাঁড়িয়ে দেখি। ছবি তুলি। সোডিয়াম বাতির আলোয় ব্রিজের উপর দাঁড়িয়ে কেবলই মনে পরছিলো আমার ছোট শহরের কথা। ল্যাম্পপোস্টের আলোয় খোলা রাস্তায় বাবার কোলে পিঠে চড়ে আকাশের দিকে চেয়ে উড়োজাহাজ দেখা আমি অশুদ্ধ উচ্চারণে বলে উঠতাম __”আকাশ থেকে নেমে এলো ছোট্ট একটি প্লেন
তার মধ্যে বসে ছিল লাল টুকটুক মেম
তাঁকে আমি জিগ্যেস করলাম, হোয়াট ইজ ইয়োর নেম
সে আমাকে উত্তর দিলো, মাই নেম ইস সুচিত্রা সেন……”আহা ! আর একবার। মাত্র একটি বার যদি তেমন করে বাবাকে জড়িয়ে ধরার সুযোগ পেতাম ! জন্মজন্মান্তরের প্রতীক্ষা আমার …

৪৪১জন ৪৪১জন
0 Shares

২২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ