সে

অরণ্য পুলক ১৪ নভেম্বর ২০১৩, বৃহস্পতিবার, ০৫:৫৯:৩৬পূর্বাহ্ন বিবিধ ৭ মন্তব্য

পূর্ণালো এবং মায়া ভরা শীতের রাত ,কালপুরুষ পূর্বাকাশে চিৎ হয়ে পড়ে আছে শিকারের আশায়;সপ্তর্ষিকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।আজও সে আমাকে দেখা দেবে।ঠিক দেখা দেবে বলাটা ঠিক হচ্ছে না।কেননা আমি তাকে দেখতে পাই না।দেখতে পাই, তার সুন্দর ভেজা দুপায়ের ছাপ।আর থাকে কামরাঙ্গা ফুলের ঘ্রাণ।যখন সে আসে তখন কামরাঙ্গা ফুলের ঘ্রাণে আমার আশপাশ মৌ মৌ করতে থাকে।সেই ঘ্রাণে আমি ঘোরে প্রবেশ করি।
ভেজা দুপায়ের ছাপ,কেননা পানিতে তার বসবাস।তার ভেজা পা এবং ফুলের ঘ্রাণ তার উপস্থিতির প্রমাণ হিসেবে থাকে।
তার সাথে আমার দেখা হয় শুধু রাতে।যখন সবাই ‘প্রথম মৃত্যুর’ মাঝে বিলিন থাকে।আমি ঘুমাতে পারি না।আমি তার আশায় জেগে থাকি।সে কে,তা আমাকে কখনোই বলে নি।শুধু বলেছে সে এক সত্তা যে আমাকে ভালবাসে।আমিও কি তাকে ভালবাসি!? বোধ করি বাসি।কেননা প্রতি ক্ষণে আমি তার জন্য অপেক্ষা করে থাকি।কিন্তু যার পরিচয় এক জোড়া ভেজা পায়ের ছাপ ও কামরাঙ্গা ফুলের ঘ্রাণের মাঝে সীমাবদ্ধ,তাকে কিভাবে ভালবাসা যায়!!??আমি কি তাহলে অসুস্থ???

ঐতো!!ঘ্রাণ পাচ্ছি।তার ঘ্রাণ পাচ্ছি।সে এসেছে! সে এসেছে!

সে
তার পরিচয় তার পায়ের ছাপেই সীমাবদ্ধ।
২৭৯জন ২৭৮জন
0 Shares

৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে