বিভাগ: গল্প

ঘুম!

রেজওয়ান ৩০ জুন ২০২০, মঙ্গলবার, ০৯:২২:২০অপরাহ্ন গল্প ১৭ মন্তব্য
কইগো কই গেলা? বলে দরজার কাছ থেকে ডাক দেয় আসমার স্বামী গিয়াস উদ্দিন। -এইতো আমি! বলতে বলতে রান্নাঘর থেকে বের হয়ে আসে আসমা। -কখন আইলা কামের থিকা? -মাত্রই আইলাম। পোলা কান্দে ক্যান? -আমারে জিগাও ক্যান? -একি তোমার মুখ ফোলা ক্যান? তুমি কানতেছিলা নাকি? -কই নাতো? বলতে গিয়ে আসমার ফর্সা মুখ লাল হয়ে যায়। স্বামীর কাছে [ বিস্তারিত ]

রঙধনু আকাশ (৩য় পর্ব)

ইঞ্জা ৩০ জুন ২০২০, মঙ্গলবার, ০৮:৫৯:০৫অপরাহ্ন গল্প ২৭ মন্তব্য
রুদ্র সেলফোনটা তুলে নিয়ে বাসায় কল দিলো, ছোটোবোন ফোন রিসিভ করলে বললো, রুমি মম কই? এইতো পাশেই আছে, দিচ্ছি। ও পাশে রুদ্রর মা ফোন ধরে হ্যালো বললে রুদ্র বললো, মম তুমি আর ভাবী একটু অফিসে আসো তো, জরুরী একটা মিটিং করতে হবে। হটাৎ কি এমন জরুরী বিষয় রুদ্র?  মম এখন তো ড্যাড নেই, তুমিই কোম্পানির [ বিস্তারিত ]

“নিস্তব্ধতা”

আতকিয়া ফাইরুজ রিসা ৩০ জুন ২০২০, মঙ্গলবার, ০৮:০৬:৫০অপরাহ্ন গল্প ১৮ মন্তব্য
রাগ চেপে রাখা আসলে কতটা কঠিন? নিঃশ্বাস বন্ধ করে রাখার মতোই কি? এই মুহূর্তে রাগে আমার দমবন্ধ হয়ে আসছে৷ আমি সজীবের দিকে আরো কয়েকবার রাগী রাগী চোখে তাকালাম। চোখমুখ কুচকে বসে থাকলাম। নাহ্, কিছুতেই কিছু হলোনা। একটা মানুষ রাগে ফোস ফোস করছে, অথচ তার পাশে বসে থাকা মানুষটার কোনো ভাবান্তর হচ্ছেনা। এটা এক প্রকার অপমান। [ বিস্তারিত ]

ভয়

সাবিনা ইয়াসমিন ২৮ জুন ২০২০, রবিবার, ০১:৪৯:২০অপরাহ্ন গল্প ২২ মন্তব্য
বাবুল সাহেব এই এলাকায় এসেছেন প্রায় এক বছর হতে চলেছে। বেশ দাম দিয়ে মোটামুটি অভিজাত দেখতে একটা এপার্টমেন্টের দুটো ফ্লাট কিনে ফ্যামিলি সহ বসবাস করেন। পেশায় ব্যবসায়ী। তিনি শিক্ষিত লোক, তার আচার-ব্যবহার ভালো। দেখতে ভালো, দামী কাপড়চোপড় পড়েন। সুন্দর করে কথা বলেন। তার এক্সট্রা গুণ হলো তিনি গরীব মানুষদের টাকা ধার দেন, এবং বেশিরভাগ সময়েই [ বিস্তারিত ]

অজানা পথে

আরজু মুক্তা ২৭ জুন ২০২০, শনিবার, ০৮:৪৮:৪৩অপরাহ্ন গল্প ৩৪ মন্তব্য
আমার দাদা ছিলেন জমিদার। মানুষের জমিজমা জবরদখল করে নিজের করে নিয়েছেন। আব্বা, একাই ছেলে। যখন যা চান তাই হাজির। আবার পড়াশোনায় ভালো। ১৯৫০ সালে তৎকালীন সরকার ছবি আঁকার এক প্রতিয়োগিতার আয়োজন করেছিলেন। আব্বা,  অংশগ্রহণ করে প্রথম হয়েছিলেন। বিষয়বস্তু ছিলো : আজ হতে ৩০ বছর পর মেয়েরা বাজারে যাবে, ছেলেরা ঘরে রান্না করবে। এইচ.  এস. সি [ বিস্তারিত ]

রঙধনু আকাশ (২য় পর্ব)

ইঞ্জা ২৭ জুন ২০২০, শনিবার, ০৭:১০:২৮অপরাহ্ন গল্প ২৮ মন্তব্য
পরদিন রুদ্রর বাবাকে দাফনের পর বাড়িতে আসা সকল আত্মীয় স্বজনরা একে একে বিদায় নিয়ে চলে গেলো। রুদ্র ভিতরের রুমে মার কাছে গেলো দেখা করতে, ভাবীকেও সেখানে পেয়ে বললো, ভাবী তুমি মমের জন্য খাবার নিয়ে আসো, গতকাল থেকে মম না খেয়ে আছে। বাবা, তোরা খেয়ে নে, আমার খেতে ইচ্ছে করছেনা, রুদ্রর মা ফুঁফিয়ে কান্না করতে লাগলেন।  [ বিস্তারিত ]
গুণি জ্যোতিষী মিস্টার নগেন চ্যাটার্জী একের পর এক গ্রহদোষ কাটাচ্ছেন। লালমোহনের ঘরের চারদিক জুড়ে মোমবাতি তার মধ্যখানে মরা মাথার খুলি। খুলিটা দেখতে বেশ ভয়ংকর। এমন ভয়ংকর মরা মাথার খুলি দেখে হরিবাবু চেঁচিয়ে উঠেছেন। লোকজন রোজ চিৎকার দিয়ে জমিদারবাড়িরকে ভূতবাড়ি বলে। তারমধ্য নরকঙ্কালের মাথার খুলি। সেটা আশপাশের লোকজন জানলে বাড়িটা একেবারে আকাশে তুলে দেবে। বিনু একথা [ বিস্তারিত ]

রঙধনু আকাশ

ইঞ্জা ২৪ জুন ২০২০, বুধবার, ১০:৩০:১০অপরাহ্ন গল্প ৩৪ মন্তব্য
রুদ্র, এই রুদ্র উঠ না বাবা, এতো দেরি করলে চলে, আরেহ এখনো ঘুমায় ছেলেটা? মম ডিস্টার্ব করোনা, ঘুমাতে দাও।  রুদ্রর মা শায়লা আহমেদ ছেলের পাশে বসে পড়ে ছেলের মাথায় হাত ভুলিয়ে দিয়ে গালে এক চুমু দিতেই রুদ্র মার গলা জড়িয়ে ধরে বললো, আই লাভ ইউ মম। পাগল ছেলে, আই লাভ ইউ টু, এখন উঠে যা।  [ বিস্তারিত ]

সম্পর্ক

ইসিয়াক ২৪ জুন ২০২০, বুধবার, ০৬:৩৮:৪০পূর্বাহ্ন গল্প ২৪ মন্তব্য
সম্পর্ক *************** [১] এই রাস্তার বাড়িগুলো প্রায় সবগুলোই চার পাঁচ তলা।দারুণ ঝকঝকে তকতকে, খুব সুন্দর ছবির মতো সাজানো গোছানো ।অলোক এই রাস্তায় এর আগে কোনদিন আসেনি। এই রাস্তায় কেন এই এলাকাতেই তারা কোনদিন আসেনি।অবশ্য কোন কারণে আসার প্রয়োজন হয়নি ।আসল কথা হলো এতো অভিজাত পাড়ায় তাদের আসা যাওয়ার তেমন একটা দরকার পড়ে না। সুন্দর সুন্দর [ বিস্তারিত ]

বৃষ্টি-মেঘ-রহস্য

তির্থক আহসান রুবেল ২৩ জুন ২০২০, মঙ্গলবার, ০২:৫৪:২২অপরাহ্ন গল্প ২২ মন্তব্য
বি.দ্র.: শুধুমাত্র প্রাপ্ত মনষ্কদের জন্য গল্পটি প্রযোজ্য। গল্পটির কোন আগাগোড়া নেই বলে শ্রোতারা খুব বিরক্ত হয়। তাছাড়া গল্প বলাতে আমার তেমন সুনাম নেই। লোকে বলে আমি নাকি খুব চমৎকার রোমান্টিক কিংবা কমেডি গল্পকেও বিরক্তিকর প্যাচালে রূপান্তর করে ফেলি। হয় না অনেক সময়, একজন একটা কৌতুক বলল। বলে নিজেই হাসতে হাসতে এক প্রকার গড়াগড়ি খাচ্ছে। আর [ বিস্তারিত ]

বোবা ভাষা- পর্ব – ০৫

এস.জেড বাবু ২২ জুন ২০২০, সোমবার, ০৪:০৫:২৯অপরাহ্ন গল্প ২৫ মন্তব্য
কোটি মানুষের সুখ দুঃখের গল্প কাছাকাছি রকম হয়। অনেকটাই সিনেমাটিক। নব্বইয়ের দশকে বাংলা ছায়াছবি প্রথম ত্রিশ মিনিট দেখলেই শেষটা অনুমান করা যেত। ছেলেবেলায় ভিলেনের হাতে নায়কের পিতা খুন, মা ধর্ষিতা। বড় হওয়ার পর ভিলেনের মেয়ের সাথে (খুন হওয়া পিতার বেঁচে যাওয়া সন্তান) বর্তমান নায়কের হৃদয় ঘটিত সম্পর্ক। এরপর প্রতিশোধ। শেষবেলায় রাইফেল হাতে ঘটনাস্থলে পুলিশ। হাহাহা [ বিস্তারিত ]

রুম নং ৭

আরজু মুক্তা ২১ জুন ২০২০, রবিবার, ০১:১০:২১পূর্বাহ্ন গল্প ৩৩ মন্তব্য
ঝক ঝকা ট্রেন চলেছে, ট্রেন চলেছে ওই ট্রেন চলছে, ট্রেন চলছে, ট্রেনের বাড়ি কই? সবারি অপেক্ষা, কখন শোনা যাবে সেই শব্দ। মা ও অপেক্ষা করেন। আমাদের ছোট শহরে দুটা স্টেশন।  নতুন স্টেশন আর পুরাতন স্টেশন। স্টেশনের কাছে বাড়ি হওয়ায়, ট্রেনের শব্দ হলেই মা গেটে গিয়ে দাঁড়ান। যতক্ষণ না ট্রেনটি বাসার পিছন দিয়ে ঘড় ঘড় শব্দ [ বিস্তারিত ]

বোবা ভাষা (পর্ব- ০৪)

এস.জেড বাবু ২০ জুন ২০২০, শনিবার, ০৮:৪৮:১০অপরাহ্ন গল্প ১৬ মন্তব্য
  ঘরে চারজন মানুষ অথচ কোনও সাড়া শব্দ নেই। একজন থেমে গেছে শুরুর আগেই। যার কোনও নাম হয়নি, হবেও না। নামের দরকার ও নেই, জীবন থাকলে নাম পরিচয় দরকার, সুনাম বা দুর্নামের প্রয়োজনে। মৃতদের নামের দরকার হয়না। বাচ্চাটা জন্মেছে লাশ হয়ে, লাশ হয়েই কবরে যাবে। এখন শুয়ে আছে মেহগনি কাঠের চকচকে পলিশ করা সেন্টার টেবিলের [ বিস্তারিত ]

মীরার কথা-২

নীরা সাদীয়া ২০ জুন ২০২০, শনিবার, ০৭:০৪:২৬অপরাহ্ন গল্প ২৬ মন্তব্য
নতুন স্কুলে ভর্তি হবার পর নতুন জুতো, মুজো, ব্যাগ আরও নানা জিনিস কিনে আনা হলো। এসব দেখে মীরার আনন্দ আর ধরে না। কিভাবে জুতোর ফিতে বাঁধতে হবে, কিভাবে ব্যাগের ফিতে আটকাতে হবে, সব একে একে শিখিয়ে দিলেন বড় ভাই বোনেরা। শুরু হলো মীরার নতুন জীবন। কিন্তু তা বেশিদিন চললো না। একদিন হঠাৎ মেয়েটি চিৎকার করে [ বিস্তারিত ]

বোবা ভাষা (পর্ব- ০৩)

এস.জেড বাবু ১৯ জুন ২০২০, শুক্রবার, ০৮:৩৩:১৮অপরাহ্ন গল্প ২৪ মন্তব্য
যখন স্ব-দলবলে আলোকপতি অধিগ্রহন করে আঁধারের বসতি, ক্লান্ত শেয়ালের গলা ভাঙ্গা চিৎকার স্তিমিত প্রায়, আলোর ক্ষুধায় সবুজের কুসুম ভেঙ্গে উঁকি মারে কোটি কোটি নিষিক্ত কলির ভেতর ঘুমন্ত পাপড়িগুলো, পরগাছার লিকলিকে ডগা সুযোগ বুঝে মেলে দেয় আরও চারটি পাতা, দু’দুটি খুড়ি। দুইপাশে দুটি সুঁড় ফাঁটা বাকলের খাঁজ আঁকড়ে ধরে চার ইঞ্চি মতো বাড়িয়ে নেয় নিজের দৈর্ঘ্য। [ বিস্তারিত ]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ