Fan 2016 মুভি রিভিউ

সনেট ১৬ এপ্রিল ২০১৬, শনিবার, ০৭:০৭:৪৯অপরাহ্ন মুভি রিভিউ ৮ মন্তব্য

fan_upcoming_srk_hindi_movie_first_look_poster_2016_mtwiki_story_budget_hit_or_flop_budget

একজন ফ্যান হয়েও শাহরুখ খানের উপর চরম বিরক্ত ছিলাম। গেলো কিছুদিন শাহরুখ যেসব ছবি দিচ্ছিলো তাতে বিরক্ত না হয়ে উপায় কি? শাহরুখের মুভি চয়েস নিয়ে বরাবরই প্রশ্ন আসতে লাগলো। এরপর শাহরুখ যখন ঘোষণা দিলেন ফ্যান নিয়ে আসছেন মানুষের মধ্যে অতটা উটকন্ঠা কাজ করেনি যতটা তার আগের মুভিগুলোতে করত। অনেকে ধারনা করেছিলো আগের মুভিগুলোর মতই বস্তাপচা কিছু হবে। ট্রেইলার রিলিজ হওার পর কিছুটা মাতামাতি হলেও ততটা হয়নি যতটা শাহরুখের আগের মুভিগুলোতে হত। বেশিরভাগ মানুষই এক্সেপ্টেশন হারিয়েছে এবং দেখা লাগবে বলে দেখবো টাইপের রিএকশন দিয়েছে। মুভিটি শাহরুখ এর ক্যারিয়ারে বিশাল এক প্রভাব ফেলতে যাচ্ছিলো। নরমালি শাহরুখ, সালমান, আমিরের মুভিগুলো কোন না কোন ওকেশনে বের হয়। কিন্তু এবার শাহরুখ নন ওকেশনে রিলিজ দিতে যাচ্ছে। উপর থেকে মুভি গতানুগতিক বলিউড মুভি থেকে আলাদা, যার ভেতর নেই নাচ ,নেই গান, আইটেম গান তো দুরেরি কথা নায়িকা পর্যন্ত নেই। এমন মুভি কি বলিউডে চলবে?
তার উপর শাহরুখ কে অন্যবারের মত প্রোমশনও করতে দেখা যায়নি। একটা মাত্র ফ্যান এন্থেম বানিয়েই শেষ। কি হবে শাহরুখের ভাগ্যে এমন আশঙ্কা ছিলো সবার মধ্যে।
সব ধরনের রিস্ক মাথায় নিয়েই শাহরুখকে নিয়ে বানানো হলো ফ্যান।

যারা মুভির ট্রেইলার দেখেছিলেন তারা মোটামুটি স্টোরি আন্দাজ করেই ফেলেছেন। আন্দাজ সঠিক। একজন সাধারন ছেলে গৌরব যে কিনা আরিয়েন খান্নার অনেক বড় ফ্যান। আরিয়েন খান্না ইন্ডিয়ান মস্তবড় স্টার। গৌরব দেখতে অনেকটাই আরিয়েন খান্নার মত। পাড়ার বিভিন্ন অনুষ্ঠানে গৌরব আরিয়ানের মিমিক্রি করে। আরিয়ানকে এতটাই ভালোবাসে সে যে তার জন্য সে সবকিছু করতে পারে। তার দিনে রাতে সবসময়ই আরিয়ানের চিন্তা। আরিয়ানের সাথে দেখা করতে মরিয়া সে। পাড়ায় অভিনয়ে প্রথম পুরষ্কার পেয়ে সিদ্ধান্ত নেয় এই টাকা দিয়ে সে মুম্বাই গিয়ে আরিয়ানের সাথে দেখা করে আসবে। রউনা দেয় মুম্বাই। অনেক কষ্টে দেখাও হয় আরিয়ানের সাথে। কিন্তু আরিয়াম তার সাথে দূরব্যবহার করে। রাগে দুঃখে সে বাড়ি ফিরে আসে। এবার সে সিদ্ধান্ত নেয় আরিয়ানের উপর প্রতিশোধ নেবে। শুরু হয় আরিয়ানের সাথে তার লড়াই।
স্টোরি অনেকটাই সাদামাটা হলেও মেকিং আর অভিনয়ের কারনে মুভিটা ভালো লাগবে সবার। বিশেষ করে যারা শাহরুখ এর ফ্যান তাদের অনেক বেশি ভালো লাগবে। কারন পুরোটা সময় জুড়েই গৌরব ছেলেটার ভেতরে নিজেকে খুজে পাওয়া যাবে। বেশ কানেক্ট করতে পারবে সবাই। তবে দ্বিতীয় হাফ টা কিছুটা কম ভালো লাগতে পারে। এর কারন হিসাবে বলা যায় প্রথম অর্ধেক এত বেশি ভালো করে ফেলেছে যে পরের অর্ধেক তার তুওলনায় কিছুটা কম মনে হয়। যদিও আমার কাছে পুরো মুভিটাই ভালো লেগেছে।
শাহরুখের অভিনয় নিয়ে কোনই কথা হবেনা। অসাধারন অভিনয় করেছে। বিশেষ করে গৌরবের অভিনয়ে ফাটিয়ে দিয়েছে। এ যেন অন্য এক শাহরুখ। কথা বলার ধরন, গলার অওয়াজ সবই চেঞ্জ। একজন ভালো অভিনেতা ছাড়া এভাবে ডবল রোল করা অসম্ভব ছিলো। শাহরুখ যে একজন ভালো অভিনেতা তা নতুন করে প্রমাণ করার দরকার পরেনা। কিন্তু এই মুভিতে শাহরুখকে দর্শক আরো নতুন করে চিনবে বলেই আমার বিশ্বাস।
মুভির স্ক্রিনপ্লে থেকে শুরু করে ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক, ডিরেকশন সবই অনেক সুন্দর। বিশেষ করে গৌরবের মেকআপ খুবই অসাধারন হয়েছে। বোঝায় যায়না এই শাহরুখের বয়স এত বেশি।
মুভিতে কিছু একশন সিনও ছিলো যা মোটামুটি ভালোই বলা চলে। মুভিটি আপনাকে আড়াই ঘন্টা ধরে রাখতে সক্ষম হবে। ডায়লগ ডেলিভারি থেকে শুরু করে প্রতিটি চরিত্রই ভালোভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। একজন ডাই হার্ড ফ্যান, একজন অহংকারী স্টার। ফ্যানের ভালোবাসা, রাগ ঘৃণা, কষ্ট সবকিছুই খুব সুন্দর করে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। মুভির মেকিংও অনেক সুন্দর হয়েছে। মুভির স্টোরি টেলিং, ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক, স্ক্রিনপ্লে থেকে শুরু করে ডায়লগ ডেলিভারি সবই ফ্যান মুভিকে করেছে পূর্ণ।

সর্বপরি মুভিটি সবারই ভালো লাগবে। যারা দেখেননি তারা দেখে ফেলতে পারেন। ভালো একটা সময় কাটবে।
আমি আমার পক্ষ থেকে এই মুভিকে দিচ্ছি ৮.৫/১0

 

১১১জন ১১১জন
0 Shares

৮টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ