Category: কবিতা

বনিয়াদি শাড়ি

প্রলয় সাহা ২৮ জুলাই ২০১৬, বৃহস্পতিবার, ১০:৪৩:০৪অপরাহ্ন কবিতা ১৯ মন্তব্য
তুমি অনেকদিন ধরে বলেছিলে সাদা মেঘগুলো কি সুন্দর তাই না! আমি গুমোট হাসি হেসে বলেছিলাম, হ্যাঁ তাই তো। তুমি সেদিন বায়না করেছিলে সামনের শপিং-এ গেলে, তোমার ঠিক ওইরকম শাড়ি চাই-ই চাই। কোন কিছু ভেবে চিন্তে না পেয়ে বলেছিলাম; আমার যাওয়া লাগবে না দু’দিন পর বাড়ির কেউনা কেউ এসে, তোমাকে জোর করে ওই শাড়ি পরিয়ে দিবে [ বিস্তারিত ]

“অখন্ডিত নিয়তি”

মনির হোসেন মমি ২৮ জুলাই ২০১৬, বৃহস্পতিবার, ০৯:১৮:৫৪অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ১৬ মন্তব্য
জীবনকে জীবনের মতো বাধাহীন দ্বিধাহীন অনবরত দিয়েছি ছেড়ে ভাগ্যের দুয়ারে যে ভাবে চলছে চলুক, চলুক না এইতো আমি,আছি বেশ। জীবনের ভোরে দেখেছি স্বপ্ন হাত পেতে চেয়ে নিয়েছি অল্প অল্প জীবনের মর্ধ্যাহ্নে অভাবি তৃঞ্চায় ভূভুক্ষ আমি,কর্মহীন জীবনে চাইতে পরিনি সামান্য জল। জীবনের… এই পরন্ত বেলায় চাওয়া পাওয়ার কিছুই নেই যে আর আছে কিছু নিয়ম  শুধুই দেবার [ বিস্তারিত ]

বাউড়ি বাতাসে বাওয়াল ভাবনা ৬

আগুন রঙের শিমুল ২৮ জুলাই ২০১৬, বৃহস্পতিবার, ১২:৩৭:২১পূর্বাহ্ন কবিতা ১৫ মন্তব্য
শহরবন্দী মেঘে তুমুল বৃষ্টি নামুক – ধুয়ে নিয়ে যাক এই অছ্যুৎ পরবাস, আর কতকাল সয়ে যাবো এই একলা বিনিদ্র রাত নির্ঘুম এপাশ ওপাশ। শহরে যেদিন আকাশ আধাঁর বৃষ্টি নামে – সেদিনও আমি খুব একাকী, তবুও মাঝরাতে বৃষ্টি এলে, তোমাকে ভেবেই নির্জন পথের পাশে হঠাৎ থামি – শুন্যে মেঘের খুব তোরজোড় যেদিনটাতে সেদিনও সেই একলাই থাকি, [ বিস্তারিত ]

বিনি-বর্তন

নীলাঞ্জনা নীলা ২২ জুলাই ২০১৬, শুক্রবার, ০৯:৫৮:৪৫পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ৩৮ মন্তব্য
যদি বুঝতে পারতাম “আসি” বলে চলে যাওয়া মানে, আর ফিরে আসা নয়। হয়তো তখন আমি “আচ্ছা এসো” বলতাম না। তোমাকে বলা হয়নি, ফিরে চলে যে যায়, তাকে আমি আর ফিরে দেখিনা। হ্যামিল্টন, কানাডা ১৯ জুলাই, ২০১৬ ইং। **ছবিটি টেমস নদীর। সেই ২০১০ সালে তোলা। আর এ কয়টি পংক্তির জন্ম হয়েছে প্রিয় বন্ধু ফুলের একটি লেখা [ বিস্তারিত ]

মফস্বল

ইয়াসির রাফা ২১ জুলাই ২০১৬, বৃহস্পতিবার, ০৪:৪৭:০১অপরাহ্ন কবিতা ১০ মন্তব্য
অন্ধকারে গ্রাস হয় তাদের নোংরা স্তন। ছোটবেলায় সাইক্লোন কে বন্ধু ভেবে নেশাগ্রস্ত হয়েছিলাম। ঘোরের মাঝে দেখতে পেলাম বিনু দী’ নীম গাছটায় ফাঁস নিচ্ছে। তোমরা একে সুইসাইড বলো, আমি বলি মুক্তি, পরে ঘটা করে পালন হলো মৃত্যু উৎসব। প্রাচীন গ্রীস থেকে উকাশা সাবাই এলো বুভুক্ষু কুকুরে দাঁত বের করে।

পদ্মা নদীর মাঝি

মোহাম্মদ আয়নাল হক ১৯ জুলাই ২০১৬, মঙ্গলবার, ১০:১৫:২৮অপরাহ্ন কবিতা ৯ মন্তব্য
পদ্মা নদীর মাঝি নদীর তীরে তার বাড়ী, দালানকোঠা নেই মাঝির নেই যে দামীগাড়ি। / ছোট্র একটি ঘর মাঝির পাটখড়ির বেড়া, স্বপ্নদিয়ে তৈরী সে ঘর মাঝির স্মৃতিদিয়ে ঘেরা। / দু-এক টাকায় বিনিময়ে নদীতে মাঝি ভাসে, নিজেকে ভাবে মাঝি সুখীতবুও প্রাণখুলে হাসে। / পদ্মা-নদীর ঢেউয়ের মাঝে মাঝি কাটায় সারাদিন, দিন আনে দিন খায় মাঝির নেই কোন ঋণ। [ বিস্তারিত ]

★★একদিন বিভুর সনে★★

মামুন ১৮ জুলাই ২০১৬, সোমবার, ০৬:৩৭:০৬অপরাহ্ন কবিতা ৭ মন্তব্য
একদিন বিভুর সনে ★*★*★*★*★*★ বিভু! আপনি তো কিছুদিন সুন্দরবন এলাকায় ছিলেন? খুলনা আপনার তাই ভাল-ই দেখা আছে। আপনার অবস্থানের সময় শিল্পাঞ্চলের ভরা যৌবন! মানুষ-যন্ত্রের মিলিত রসায়নে আনন্দে ভারী এক বাতাসে ভেসেছেন আপনি। . আমার শৈশবে গিয়ে দেখে আসি চলুন… হৃদয়গুলির রক্তাক্ত হয়ে ওঠার ইতিহাস একটা জনপদের ইতিহাসের আগেই লেখা হয়ে যায়। হৃদয় আর জনপদের রক্তক্ষরণের [ বিস্তারিত ]

প্রতীক্ষ্যমাণা

নীলাঞ্জনা নীলা ১৭ জুলাই ২০১৬, রবিবার, ০৯:৩১:১৯পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ৪৮ মন্তব্য
কি হয় যদি এক ঘর নি:স্তব্ধতা স্থবির হয়ে পড়ে থাকে ঘরেরই কোণে, কিংবা জানালার বাইরের একটুকরো আকাশের গায়ে? নি:শ্বাসে যদি নি:শ্বাস না ছোঁয়, গ্রীষ্মের সবুজে ফুঁটে ওঠা ফুল থেকে সুঘ্রাণ না নেয়া যায়, কিইবা হয়? চোখের মধ্যে বৃত্তাকার একটি জীবনের সাথে একঘেঁয়ে মুহূর্তগুলি যোগ হয়ে চলৎশক্তিহীন আজ। কারো কোনো ক্ষতি হয়নি তো! তাহলে আর কি!! [ বিস্তারিত ]

★★এখন ভালবাসা-ই বিষম জ্বালা ★★

মামুন ১৫ জুলাই ২০১৬, শুক্রবার, ০২:৫১:০৭অপরাহ্ন কবিতা ১১ মন্তব্য
ক্ষীতিশ চন্দ্র মন্ডল স্যার আমায় বাংলা পড়াতেন ষষ্ঠ থেকে দশম.. দিনদিন প্রতিদিন… এক অন্ধ বধুর বুকের যষ্টি মধুর রস আস্বাদন করিয়েই তবে ছাড়তেন। . সেই মেয়েটিও বাংলায় পড়ত যার কাছে শিখেছিলাম ভালোবাসার প্রথম বর্ণমালা! শাটল ট্রেনে পাশাপাশি অনুভবে ভালোলাগায় দু’জন কখন যেন বড্ড কাছাকাছি! . একদিন সে ওড়না ফেলে দিয়ে বলেছিল- ‘ ছুঁয়ে দেখতো আমায় [ বিস্তারিত ]

ক্ষরণ

ইঞ্জা ১৩ জুলাই ২০১৬, বুধবার, ১১:৩৬:৫১অপরাহ্ন কবিতা ২২ মন্তব্য
প্রতিদিনের রুটিন ধরে নিজেকে ব্যস্ত রাখা জীবনের অমোঘ নিয়ম হয়নিকো বাধা সকাল থেকে বিকেল সন্ধে গাধার খাটুনী তবুও মোর কেন জানিনে রজনী কাটেনি অপেক্ষার প্রহর কাটে তোমারি স্বরণে জানি কভু দেখা হবে নাকো হলেও মোর মরণে। আষ্টেপৃষ্ঠে যারে বেঁধে ছিলে তুমি তোমারি জীবনে জোর করে তাকে ফেলেই দিলে ময়লার ভাগাড়ে হাচড়ে পাচড়ে উঠে আমি খুঁজি [ বিস্তারিত ]

অবাক হাসি!

নিবিড় রৌদ্র ১১ জুলাই ২০১৬, সোমবার, ০৭:৩০:২৭অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ৪ মন্তব্য
এখন আর অবাক হইনা মানুষ দেখে এখন আর অবাক হইনা হৃদয় থেকে অনুভূতি যাই হোক অবাক হওয়ার কিছু নেই বরং অবাক হতে হয় অবাক হয়েছি শুনলেই! এখন অবাকে আর ভ্রুক্ষেপ করিনা আক্ষেপে শোধ নিতে মৃত্যুকেও ছাড়িনা জন্মের প্রতিশোধ নিতে মৃত্যুকে খুঁজেছি সেই জন্ম নিয়েই তো প্রথম অবাক হয়েছি!   ইস্যুর নিচে যেমন করে ইস্যু চাপা [ বিস্তারিত ]

প্রমাণিত

প্রলয় সাহা ৮ জুলাই ২০১৬, শুক্রবার, ০৪:৩২:৩৩অপরাহ্ন কবিতা ৮ মন্তব্য
বেঁচে আছি তা প্রমান করার জন্য রাতে বাদুড় হয়ে এগাছ থেকে ওগাছে করেছি নৃত্য কি লাভ হলো? তার সৃষ্টির শ্রেষ্ঠ জীব থেকে খিস্তি শুনতে হয় সন্ধ্যে অবধি। লাভ ক্ষতির হিসেবে মাঝে মাঝে অনেকের মত আমিও তাকে সন্দেহ করি কিসের বিশ্বাস! কিসের বাস্তবতা! মাথাটা মোটেও করিনি বিক্রি। আমার সকল কাজের জন্য আমিই দায়ী তুই কেউ না [ বিস্তারিত ]

বাস্তবতা

মিজভী বাপ্পা ৬ জুলাই ২০১৬, বুধবার, ০৬:৫৩:০৮অপরাহ্ন কবিতা ৮ মন্তব্য
জীবনের বাস্তবতা মেনে নেয়া বড়ই কঠিন, বাস্তবতাকে নিয়েই চলতে হয় নিত্য দিন। জীবনের বাস্তবতা যে বড়ই নিষ্ঠুর, জীবনকে করে তোলে ব্যাথায় ব্যাথাতুর। প্রতিটি মুর্হুত সংঘর্ষ করে চলে হয়, কেউ জানে না এর পরে কি হয়। কোন সময় বিপদ এসে উত্থিত হয়, মনের মাঝে সর্বদা সে ভয় উজ্জীবিত রয়। বাস্তবতার বিপদ-সংকুল পথ চলতে হয়, বাধা অতিক্রান্ত [ বিস্তারিত ]

শৈশব…।

নিবিড় রৌদ্র ৬ জুলাই ২০১৬, বুধবার, ১২:৫০:০২পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি, কবিতা ৮ মন্তব্য
অত্যন্ত মনে পড়ে সেই প্রত্যন্ত দিনগুলোকে জীবন বড্ড সরল রূপকথা- প্রথা- শোলকে উড়ন্ত ঘুড়ি দূরন্ত বক তেঁতুলের ডালে পেঁচার নোলক সকালে শিশির মাড়িয়ে- উত্তরে ধানক্ষেত পেরিয়ে মাঠে- গিয়েছি কুমারের হাঁটে- জেলের ঘাটে বেড়িয়েছি এ মেলা ও মেলা গিয়েছে বেলা কেটে।   সন্ধ্যায় ঘরে ফেরা পাখি আঁধারে ডাকাডাকি আমি যতটুকু পারি পা টিপে উঁকি মেরে দেখি- [ বিস্তারিত ]

‘ফটোগ্রাফার’

ইয়াসির রাফা ৫ জুলাই ২০১৬, মঙ্গলবার, ০৩:১৭:৫৪অপরাহ্ন কবিতা ১০ মন্তব্য
তুমি আছো রাতের বিস্তৃত খোলা জানালায়, মোমের আলোয় লুকোচুরি খেলায়। তুমি আছো চট্ট মেট্টো ঘ’তে ফিরে যাওয়া পথে, তুমি আছো কিশোরের ঘর্মাক্ত বুকে মুখ গুঁজে। তুমি আছো অবশূন্যতায়, আছো মুগ্ধতায় । অন্য কারো বুকের বাম পাশে দাঁড়িয়ে । আর আমি ছবি তুলে যাই ! আমার বুকে সারা জীবন মাথা রাখতে কি বেশি কষ্ট হত শুদ্ধা? [ বিস্তারিত ]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

সাম্প্রতিক মন্তব্যসমূহ