মেঘাচ্ছন্ন মেঘকুমারী

আমি জোহরা ইশমা, একজন মেঘাচ্ছন্ন মেঘকুমারী। হাসি আনন্দের মাঝে ডুবে থাকতে চাই সারাক্ষন।

  • নিবন্ধন করেছেনঃ ৫ বছর ৬ মাস ১৪ দিন আগে
  • পোস্ট লিখেছেনঃ ৬টি
  • মন্তব্য করেছেনঃ ১৯৯টি
  • মন্তব্য পেয়েছেনঃ ১২০টি
গত একমাসেরও বেশি সময় ধরে আমার উপর ভাইয়ের মেয়েদের দ্বারা সংগঠিত যে নির্যাতন চলছে তার নাম “হেয়ার স্টাইল প্রাকটিস” নির্যাতন 🙁 ইউটিউবে নানান রকমের নানান বাহারের নানান ডিজাইনের হেয়ার স্টাইলের হাজার হাজার ভিডিও আপলোড হচ্ছে প্রতিদিন। আর বর্তমানে আমার ভাইয়ের মেয়েদের হবি হচ্ছে সেই সব ভিডিও দেখে দেখে সেগুলো কপি করে নতুন নতুন স্টাইলের চুল [ বিস্তারিত ]
সকালঃ আম্মা,ভাবি,ভাতিজী আর বুয়ার দুইটা পিচ্চি নিয়ে টিভি দেখতে বসেছি । এটিএন বাংলায় হচ্ছিলো “পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেমকাহিনী” আর এনটিভিতে “তারকাঁটা” । দুইটাই মোটামুটি মানের হলেও দেখতে ভালোই লাগছিলো আমি কিছুক্ষন এই ছবি দেখি আর কিছুক্ষন পর আবার ঐ ছবি দেখি(এক সাথে দুইটাই দেখে ফেলার ইচ্ছা ছিলো আরকি), রিমোট আমার হাতে থাকায় সবার আমার ইচ্ছামতই আমি যা [ বিস্তারিত ]
এতটা পথ পেরিয়ে, এসেছি তবু দুজনে, যেন হয়ে গেছি আরো অচেনা, অচেনা…… স্বপ্নেরা তবু খুঁজে যায়, জীবনের শেষ সীমানায়, আছে কি রাখা বাঁচার ঠিকানা, ঠিকানা…… আরো একবার চলো ফিরে যাই, পাহাড়ের ঐ বুকেতে দাড়াই আকাশের হাতছানিতে সাড়া দিইই, কি হবে না ভেবে… আরো একবার হাতটা ছুঁয়ে দেখ, আজো আমাদের ইচ্ছেগুলো এক আমি জানি তুই আবার [ বিস্তারিত ]
ফেবুতে না থাকলে তারা একজন আরেকজনকে মিস করে । মনে মনে প্রায় ভাবে, থাকলে কত না গল্প করতাম …… কিন্তু যখন তারা দু’জনেই ফেবুতে থাকে, স্ট্যাটাস দেয়, কোথাও কোথাও কমেন্টও করে, টুক করে আসে আবার টুক করে যায়……. তখন তাদের আর একজনের আরেকজনের কথা মনে থাকে না । এটা ঠিক এমন যে ” না থাকলে [ বিস্তারিত ]

ফিরিয়ে দেওয়ার গান

মেঘাচ্ছন্ন মেঘকুমারী ১৬ আগস্ট ২০১৪, শনিবার, ০৩:০৪:৩৮অপরাহ্ন সঙ্গীত ২৩ মন্তব্য
ফিরিয়ে দেওয়ার গান (3 ভেবেছিলাম তোকে ফিরিয়ে দেবো আমি ভেবেছিলাম ঘুরে তাকাবো না | ভেবেছিলাম তোকে পুড়িয়ে ফেলবো (দেবো) আমি ভেবেছিলাম উড়িয়ে দেবো ছাই | কিচ্ছু পারলাম না, শুধু বাড়ল ওজন বুক সুখী গাল বোঝে না, কবিদের অসুখ পাতলা ঠোঁটের ডগায়, সাজানো গল্পের খই তোকে ফিরিয়ে দেওয়া উচিত অবশ্যই… এভাবে গাছপালার স্নেহ দিয়ে ঢাকা, থাক [ বিস্তারিত ]

তোমার ঠোঁট এত লাল কেন

মেঘাচ্ছন্ন মেঘকুমারী ১০ আগস্ট ২০১৪, রবিবার, ০১:৫৮:১৫অপরাহ্ন বিবিধ ২৫ মন্তব্য
কারো চুমো খেয়ে হালকা গোলাপি ঠোঁটজোড়া টকটকে লাল করে বাসায় ফেরার পর কেউ যখন প্রশ্ন করবেঃ তোমার ঠোঁট এত লাল কেন ? তখন উত্তর হবেঃ আইসক্রিম খেয়েছি, ছোট্ট বেলায় যে আইসক্রিম দুই টাকা দিয়ে কিনে খেয়ে আমরা কম্পিটিশন করতাম কার ঠোঁট বেশি লাল সেই আইসক্রিম 🙂 আর যদি প্রশ্নকর্তা বেশি চালাক হয় তাহলে পাল্টা প্রশ্ন [ বিস্তারিত ]

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য