জানো, একমুঠো ভালোবাসা পেলে
আমার ভীষণ প্রজাপতি হতে ইচ্ছে করে!
খুব ইচ্ছে করে প্রজাপতির মতো-
রঙিন ডানা দুটো মেলে বনে বনে ঘুরে ঘুরে,
লাল নীল অজস্র মোহনীয় ফুলের ঘ্রাণে
নেশাতুর উন্মত্ত মাতাল হতে!

জানো, একচিলতে আদর পেলে
আমার ভীষণ লজ্জাবতী লতা হতে ইচ্ছে করে!
খুব ইচ্ছে করে লজ্জাবতীর লাজুক লতার মতো-
আলতো স্পর্শে লজ্জায় নেতিয়ে যেতে!
আদরমাখা ভালোবাসার স্পর্শ

~ সুরাইয়া পারভীন

একজন জাত লেখকের মধ্যে যে যে গুণ পরিলক্ষিত হতে দেখা যায়, সুরাইয়া পারভীন তাঁদের একজন। তাঁর ব্লগ প্রোফাইলের প্রথমেই তিনি উপরের কবিতাংশ দিয়ে বোঝাতে চেয়েছেন ভালবাসার কাছে তিনি কতটা নিজেকে উজার করে দিতে পারেন। ব্লগে প্রবেশ করেছেন মাত্র ১১ মাস ৪ দিন আগে। ব্লগিয় নিয়মানুসারে তিনি লিখে চলেছেন অক্লান্ত, নিবেদিত ব্লগারের পরিচয় দিয়ে।

তাঁর করা মন্তব্যের মাধ্যমে তাঁর সাথে পরিচয়। মন্তব্যের ভাষা দেখেই বুঝে গিয়েছিলাম, তিনি অত্যন্ত মিশুক এবং সবাইকে খুব কম সময়ে আপন করে নেবার মতো একজন দুর্দান্ত ভালো মানুষ। সাধারণত যারা লেখালিখি জগতে বিচরণ করেন , স্বভাবতই তাঁদের মস্তিষ্ক কাজ করে সবসময় লেখার থিম নিয়ে। সুরাইয়া তেমন একজন লেখক। কবিতা, গল্পে তিনি সিদ্ধ হস্ত।

২০২০ এর ২২শে ফেব্রুয়ারি সোনেলার মিলন মেলাতে তাঁর সাথে আমার প্রথম দেখা হয়। আমাকে দেখেই প্রথমেই আঙুল উঁচিয়ে বলে উঠলেন – ‘ বন্যা আপু! আপনাকে দেখে একটুও কষ্ট হয়নি ,আপনাকে চিনতে’ টেবিলের অপর প্রান্ত থেকে ছুটে এসে জড়িয়ে ধরলেন আমাকে। আমি আপ্লুত। আমাকে ভাববার অবসর দেননি, এটাই আমাদের প্রথম দেখা। হালকা পাতলা একহারা গড়নের এই মিষ্টি ভাষী এবং অত্যন্ত আন্তরিক, একজন সত্যিকার অর্থে ভালো মানুষ বলতে যা বোঝায় তার সবটুকু গুণাবলী সুরাইয়া পারভীনের ভেতরে বিদ্যমান।

জয়পুরহাটে জন্ম। সেখানেই বেড়ে ওঠা,  পড়াশুনা। প্রকৃতি প্রেমী এই লেখক সুযোগ পেলেই প্রকৃতির মাঝে মেতে ওঠেন তাঁরই ৫/৬ বছর বয়সী কন্যা তিতলীর মতো।  সাহিত্যের প্রতি তাঁর প্রবল আকর্ষণ!  প্রথম আলো বন্ধু সভার তিনি সাহিত্য সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি রাঁধতে যেমন ভালবাসেন, তেমনি আপ্যায়ন করতেও ততধিক পছন্দ করেন। ইতিমধ্যে  তিনি নিজস্ব কুকিং ইউটিউব চ্যানেলও খুলেছেন। মজাদার সব খাবার দাবারের রেসিপি পোষ্ট করেন আর আমাদের লোভ বাড়ান😊😊 আপনার কাছে অনুরোধ থাকবে পরবর্তী সোনেলার মিলনমেলায় আপনার হাতের রান্না আমাদের টেষ্ট করানোর।

২০২০ সনের বইমেলাতে প্রকাশিত হলো সুরাইয়া পারভীনের উপন্যাস শেষ বিকেলের রোদ্দুর। আজ তিনি ‘প্রথম সাহিত্যাঙ্গনে প্রবেশ যাঁকে দেখে  পোষ্টের মাধ্যমে মাত্র ১১মাসে ২০০(দুইশত) তম পোষ্টের সুপারসনিক দৌড় সম্পন্ন করেছেন।

সুরাইয়া কে সোনেলা ব্লগ কর্তৃপক্ষ, মডারেটর, সোনেলা গ্রুপ এডমিন, সকল ব্লগার এবং পাঠকের পক্ষ থেকে জানাই প্রাণঢালা শুভেচ্ছা,  লাল গালিচা সম্বর্ধনা এবং আমার পক্ষ থেকে অনেক অনেক ভালবাসা❤❤❤❤❤❤

আমি মাঝে মাঝেই বলি ‘ তুই আমার ছায়া’ আমরা কখন যেন আপনি থেকে তুমি এবং আমি ছোটবোনের আবদারে নিয়ে নিয়েছি তুই বলার অধিকার। আমার কোনো এক পোষ্ট পড়ে মন্তব্যে বলেছিলো ‘ আপু,  আমি যেন আপনারই ছায়া’ সেই থেকেই কথাটা আমি মাঝে মাঝে সুরাইয়াকে স্মরণ করিয়ে দেই।

সুরাইয়া পারভীনের ব্লগ প্রোফাইলঃ
নিবন্ধন করেছেনঃ ১১ মাস ৪ দিন।
পোষ্টঃ দুইশত।
মন্তব্য করেছেনঃ ৪২০৭ টি।
মন্তব্য পেয়েছেনঃ ৪৬৬৪ টি।

মন্তব্য করা এবং পাওয়ার সংখ্যা দেখেই বোঝা যায় তিনি কতটা ব্লগ নিবেদিত প্রাণ! গতকালই তিনি সর্বোচ্চ মন্তব্যকারী হিসেবে শীর্ষস্থান পেয়েছেন। তাঁর সর্বাঙ্গীন সাফল্য কামনা করছি অকুণ্ঠচিত্তে।

আবারো অভিনন্দন সকল ব্লগার এবং আমার পক্ষ থেকে।

শুভ কামনা।
শুভ ব্লগিং🌹🌹🌹🌹

৩২৩জন ১জন
0 Shares

৫৩টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য