সভ্যতার বেড়াজাল

তৌহিদ ২৫ নভেম্বর ২০২০, বুধবার, ০৭:১৬:৩৮অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৩১ মন্তব্য

লক্ষ কোটি বছর আগে আমার পূর্বপুরুষ ত্রিকোণ পিরামিডের গহীনে যে আগুন জ্বালিয়েছে তাকে নেভানোর সাধ্য আমার নেই। সভ্যতার উত্থানপতনে নাম না জানা কত বন্দর সেই অনলে পুড়ে ছাই হয়ে গেলো যার প্রতিটি ঘাটেই আছে আমার পায়ের ছাপ।

কোষ বিভাজনে রুপান্তরের খেলায় আমি নাকি বানর থেকে মানুষ হয়েছি! তবে কি বানর আমার পরম পূজ্যনীয় প্রাণী নয়? অথচ ইদানিং বানর দেখলে আমি মজা করি, আদর করে তাকে বাদাম খেতে দেই। কি অদ্ভুত সভ্যতা!

পরিবর্তনপ্রিয় হোমোসেপিয়ান হিসেবে নতুনত্বকে বরণ করে নেবার ক্ষমতা আমার অস্থিমজ্জায়। রন্ধ্রে রন্ধ্রে ঘুণেপোকারা আমাদের অস্তিত্বকে কুটেকুটে খাচ্ছে তাতে কি! প্রস্ফুটিত সভ্যতায় নতুন যেকোনো কিছুতেই আনন্দদিশারী মায়ার কুহকজাল বিছানো এটাও পিতৃদেবের কাছেই পাওয়া।

জীবাশ্মবিদ্যার আদিঅন্ত প্রজ্ঞা আমাকে শিখিয়েছে হৃদপিন্ডকে বদলে দেবার প্রকৃয়া। রক্তমাংস ভক্ষণ করার অভ্যস্ততায় আমি ভুলে গিয়েছি আগুন দিয়েই এটাকে ঝলসে নেয়া যেত! অথচ নোনা জলের স্বাদ আগত কোন সভ্যতাই ভুলতে পারেনি।

সভ্যতার একপাশের তীর ভাঙ্গে তো অন্যপাশে সবুজের মোহমায়ায় বসত গাড়ে নাম না জানা মুনিয়ার দল। তাদেরও পূর্বপুরুষ ছিলো কি? হয়তো ছিলো! নাকি জীবনের তাগিদে তারা দিগম্বরী রয়ে গিয়েছে এখনো? সেই একই সভ্যতা মুনিয়াদের আজও কথা বলা শেখাতে পারেনি এর দায় কার? উত্তর দেবার মত সভ্য কোন অভিনেতাদের কেউ যে আর বেঁচে নেই!

সভ্যতার আলোতে নিয়ে এসে যে মুনিয়াটিকে আমি বন্দী করেছিলাম, কথা বলা শিখতে গিয়ে বিরক্তিভরা ঝামটা দিয়ে সুযোগ পেয়েই ফুড়ুৎ করে উড়াল দিয়ে আবার ওপাড়ে গিয়ে আশ্রয় নিয়েছে সে। সভ্যতাজনিত নিগূঢ় সত্যকে গ্রহণ করার মানসিকতা তার পূর্বপুরুষেরও যে ছিলোনা একথা অনস্বীকার্য।

সভ্যতার জোয়ারে একদিকে ট্রয় ধ্বংস হয়েছে, অন্যদিকে মোনালিসা ফ্রেমে বন্দী হয়ে শত মানুষের মনে স্থান পেয়েছে। অথচ সেই একই সভ্যতা আমাকে ধিক্কার দিয়েছে, বারেবারে মনে করে দিয়েছে আমার আদি পিতার আস্ফালিত জোনাকির ঢেউ।

সভ্যতা জ্বলছে সুপ্ত ভিসুভিয়াসের রক্তিম গর্ভে। ইদানীন্তন সভ্যতা কুয়াশাভেজা শিশিরের সুপ্ত জাল বিছিয়ে ফাঁদ পেতে রয়েছে ঘাসফড়িঙ শিকারের অপেক্ষায়। এর থেকে কারোরেই নিস্তার নেই।

সভ্যতার এই বেড়াজালে বন্দি আমি এখনো সভ্য হতে শিখতে পারিনি। এ ব্যর্থতা আমার নয়, লিখে দিতে পারি এর দায় আমার পূর্বপুরুষের। সভ্যতার মিথ্যে আর লোক দেখানো অভিনয় শিখতে গিয়ে নাগরিক সভ্যতার যাঁতাকলে পিষে ইদানীং আমি আধুনিকায়নের সংজ্ঞা শিখছি।

২৫৭জন ৫৭জন
0 Shares

৩১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য