শিরোনামহীন

বন্যা লিপি ১৮ এপ্রিল ২০২১, রবিবার, ০৯:৫২:৫১অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৪ মন্তব্য

আহা….এ তল্লাট ছেঁড়ে আর যাব কোথা? একটা নয়, হাজারো প্রশ্নবোধক চিহ্ন কপালে সেঁটে নগরীর যেখানে সেখানে দাঁড়িয়ে গেছি, যখন যেমন পেরেছি।

কপট চক্ষুর নিকৃষ্ট ক্রোধাণল ঠিকরোতে ঠিকরোতে কপাল ঢেকে গ্যাছে ধুসর রঙা ছাইয়ে;

ক্রমাগত উত্তরের কাছে রোজ ভেজে শুকনো পাতার দল: ভেজে, আবার শুকায়! আবার দাঁড়িয়ে যায় কংক্রিটের গাঁথুনী। 

যত্র তত্র মিছিল এগোয় ধীরে,, অতি ধীরে…. কোথাও ভাগবাটোয়ারা হয়ে যাচ্ছে স্বল্পায়ু সম গোটা একটা জীবন! ক্ষুধার্ত  কাক, চিল, শকুনের  লাইন বাড়ছে একটু একটু করে,, 

কয়েকটা ঘর দেখি, দেখি জাদুঘরের মত জমা পড়ে আছে শখের সব সাজানো গোছানো থরে বিথরে চাহিদার উপকরন। 

ঘরের দেয়াল দেয়ালে ও টানানো ছিলো ডুবতে থাকা সাম্পানের পালতোলা মাস্তল!

ঘরগুলো এখন স্মৃতী।

 

আহা!! আমাদের কোথাও যাবার নেই, নেই তাড়া একটা বিকেলকে রাঙিয়ে দিয়ে বলে দেয়া, আমার পরিচয় এখানেই রাখা।

কী সব এলোমেলো বকে যাই!! 

শুধুই ফেরার তাড়া,

কথা ছিলো সময় পেলে ফিরব’

এখন,  শুধুই ফেরার তাড়া!!

শতকের পর শতক কাটিয়ে লালনীল বাতির শহর ফেরত দেয় কতগুলো রঙিন পাথর……একেকটা রঙে একেক রঙের নামচা,

আমরা…… এখানেই থেকে যাই….. আমাদের আর কোনো স্বপ্ন দেখার সাহস নেই….

১৮৯জন ৭৬জন
12 Shares

১৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য