ল্যান্ডফোনের দিনগুলি

রেজওয়ানা কবির ১৪ আগস্ট ২০২০, শুক্রবার, ০৩:৪৩:৩৮অপরাহ্ন ছোটগল্প ২৪ মন্তব্য

ঘড়িতে এখন দুপুর ৩ টা।সকালের কাজ শেষ করে অলস দুপুরে আলতো করে গুছানো বিছানা  মনে হয়, আমাকে হাতছানি দিয়ে ডাকে কেননা শরীরটা অনেক ক্লান্ত হয়ে পড়ে।।

আজ আবার সেই পুরনো দিনের কথা মনে পড়ে গেল। সেদিনও ছিল শুক্রবার, ঘড়িতে তখন সন্ধ্যা ৭.০০।ল্যান্ডফোন বেঁজে উঠল।আমি রিসিভ করতে গিয়েই ওপাশ থেকে

হ্যালো!এটা কি ফায়ার সার্ভিস?

আমিঃ রং নাম্বার। বলে কেটে দিলাম,।

আবার ফোনের আওয়াজ উফফ! বিরক্তিকর

হ্যালো,

আমিঃ আপনাকে বললাম, রং নাম্বার তারপর ও।

ওপাশ থেকেঃহ্যালো,ফোনটা কাটবেন না প্লিজ। একটু কথা বলবো।

তার এই কথাটার মধ্যে অদ্ভুত এক মায়ায় পড়ে আর ফোনটা কাটতে পারলাম না।

সে বললো,আপনার একটা নাম দেই,রাগ করবেন?

আমিঃ মুচকি হেসে বললাম,শুনি সেই নাম!

ওপাশ থেকেঃ আপনার নাম ঝগড়াটে 😋😋

আমিঃরেগে আগুন,কি বলব,বুঝতে পারার আগেই ফোনটা কেটে গেল।

হ্যালো,হ্যালো,ওপাশ থেকে কোন আওয়াজ নাই।

পরেরদিন,,,,,,

সব কাজ করছি কিন্তু কোন কাজেই মন বসছে না,শুধু কানের কাছে সেই কন্ঠস্বর বেঁজে উঠছে। আমি কি তার প্রেমে পড়ে গেলাম। আরে না,একদিনের আলাপে অচেনা লোকের প্রেমে কি পড়া যায়?

ঘড়িতে  আবার ৭ঃ০০টা।ফোন বেঁজে উঠল,

আমিঃ হ্যালো,

ওপাশ থেকেঃ কি ঝগড়াটে অপেক্ষা করে ছিলেন ফোনের জন্য।

আমিঃআমার বয়েই গেছে!

ওপাশ থেকেঃতাই বুঝি!

আমিঃহুম। আচ্ছা আপনার নাম কি?আপনি কিভাবে আমার নাম্বার পেলেন?আর কি চান?

ওপাশ থেকেঃসেই হাসি,তারপর আরে বাবা!এত প্রশ্ন করলে কোনটার আগে উত্তর দিব??

আমিঃ সবগুলোর উত্তর দেন

ওপাশ থেকেঃআমি তোমার ছায়াসঙ্গী, তাই তোমাকে ছায়ার মত আজীবন আগলে রাখার জন্য আমি তোমার নাম্বার খুঁজে বের করবছি।

আমিঃযদিও কথাগুলো ছিনেমার মত তবুও শুনতে ভালো লাগল।

আবার ফোনটা কেটে গেল।

পরেরদিন,,,

আবার সেই সন্ধ্যায় ফোন,

আমি দৌড়ে যাওয়ার আগেই ফোনটা বাবা ধরে বলল রং নাম্বার।

আমি আর সেদিন ফোনের কাছে যেতে পারলাম না,

তারপরের দিন,,,

আবার সন্ধ্যা ৭ঃ০০ টায় অপেক্ষা করেছি মা এসে মালয়েশিয়ায় ঘন্টার পর ঘন্টা খালার সাথে কথা বলছে।আমি বার বার ঘড়ির কাঁটার দিকে তাকাচ্ছি,সময় যাচ্ছে কিন্তু মা আর ফোন রাখছে না।

সেদিনও আর ফোন এল না।সারারাত ঘুমাতে পারি নি।

৩ দিন পর,,,

ঠিক ৭ঃ০০টায় ফোন এল।

আজ ফোনটা আমি ধরলাম,

ওপাশ থেকেঃমিষ্টি মেয়ে কেমন আছো?

আমিঃ মনে হয় প্রান ফিরে পেলাম।সেদিন তার সাথে অনেক কথা হল,খুনশুটি হল,তার কাছে তার ফোন নাম্বার চাইবো তার মধ্যেই ফোনটা কেটে গেল।

এভাবেই শুধু ফোনেই কথা বলে কেটে গেল প্রায় ৩ মাস,,কত গল্প হতো,কিন্তু আমি যেসব প্রশ্ন করব বলে ভেবে রাখতাম তার এত সুন্দর সুন্দর কবিতার মত কথার ছলে সেসব ভুলেই যেতাম।ভালোই কাটছিল,,,,

সেদিন ও ছিল শুক্রবার,,,,

  • ঠিক সন্ধ্যা৭ঃ টা

যথারীতি ফোন এল,

ওপাশ থেকেঃ তোমাকে অনেক কথা বলার আছে,

আমিঃ হ্যা মশাই বলুন,

ওপাশ থেকেঃ আমি সত্যি তোমাকে,,,,,,,,

খট করে আওয়াজ হল

আমিঃ হ্যালো,হ্যালো ফোনটা কেটে গেল।

আমি ভাবলাম কাল কথা তো হবেই কাল শুনব।

কিন্তু সেই কাল আর আসল না,বাঁজল না তার ফোন

প্রতিদিন সেই ফোনের অপেক্ষায় থাকতে থাকতে জীবনের প্রায় ৩০ টা বছর পার করলাম।কিন্তু আসল না সেই ফোন।আমি যে তাকে ফোন করব কোন নাম্বার  ও নেই আমার কাছে,কেননা,সে আমার অভ্যেস হয়ে গিয়েছিল।তাই কখনো ভাবিনি সে এভাবে হারিয়ে যাবে,তাই তার নাম,ঠিকানা,কোন কিছুই নিতে পারি নি,একদিন ভেবেছিলাম তার নাম্বার চাইব,কিন্তু তার এত শ্রুতিমধুর কথায় আমার ভুলে গেছিলাম।এখন সময় পাল্টেছে,ডিজিটাল যুগ এসেছে,ফেসবুক,টুইটার,ইমো,কত কিছু!মানুষেকে খুব সহজেই খুঁজে পাওয়া যায়।কিন্তু আমি,,,,,,,,,,,,,,,

আজও  সেই শুক্রবার, সন্ধ্যা ৭ঃ ০০টা

ফোন আর আসে না,,,আমি বার বার সেই ল্যান্ডফোনের দিকে তাকিয়ে থাকি,,৷

তাই আমি বেঁচে আছি অন্ত্যহীন অপেক্ষায়।।।।।।

২১১জন ৭৮জন
0 Shares

২৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য