লার্ভায় অন্ধকার

শফিকুল ইসলাম ৯ নভেম্বর ২০১৯, শনিবার, ১২:৫৫:১৪অপরাহ্ন কবিতা ২১ মন্তব্য

তুত গাছে লেগে থাকা লার্ভায়
রেশমী সুতো মসলিন বুননে দেখেছে আভিজাত্য,
সত্যের বন্দরে শ্যাওলা জমেছে
এককোষী জীবগুলো ভীষণ ক্ষুধার্ত চাতকিনী!

কসাইখানায় সাজ সাজ রব
একজন জল্লাদের অপেক্ষায় সহস্র জনতার চোখ।
মিথ্যে পাণ্ডুলিপি খুলে একজন কবি বললেন,
‘আজ শরতের আকাশে দুটো চাঁদ উঠবে।’

ধীরে ধীরে জনতার ঢল নামে
চারপাশে কীট-পতঙ্গ কিলবিল করছে
কেউ কেউ দেখছে কুকুরের সঙ্গম-প্রেম।

সন্ধ্যা ঘনিয়ে এলো
উৎসুখ চোখ অধীর অপেক্ষায়
দুটো চাঁদ যেনো চোখের তারায় ভাসছে
ইতিহাস হতে খুব বেশী বাকী নেই।

হঠাৎ একখণ্ড মেঘ ঢেকে দেয় আকাশের বুক
ভাদ্র মাসে নীরব জলছবি
কবি আকাশের দিকে তাকিয়ে বললেন,
‘মেঘের আজ বড্ড মাতামাতি
ফের কোনোদিন ফিরবে মতিগতি। ‘

হঠাৎ হুংকারে থরথর কসাইখানা
জনতার চোখ বাতাবি লেবুর মতো সবুজ হয়ে গেলো!
জল্লাদ ভয়ংকর চিৎকারে বলে উঠলো,
‘চুপ!’
সুনসান নিস্তব্ধতা।

কবি এবার উঠতে চাইলেন
কোনো এক অপরিচিতা মহিলাকে বললেন,
‘ সুঁই -সুতো হবে?’
কবি আকাশের দিকে তাকালেন,
অন্ধকার ভেদ করে নেমে আসছে গোল গোল বৃত্ত।
তিনি আকাশের কোনো এক ছিদ্র সেলাই করতে চাইলেন!

এক পশলা বৃষ্টি হলো
জল্লাদ তখনো কাঁপছে
তার হাতে রক্তস্নাত তলোয়ার!
রেশম পোকা এক ধ্যানে খেয়ে যাচ্ছে তুত গাছের পাতা।

কবি বললেন,
‘সত্য কবিতা মিথ্যের জালে বোনা,
আগামী কোনো এক সন্ধ্যায় দুটো চাঁদ উঠবে আকাশে।
আগামী কোনো এক রাতে সূর্য উঁকি দেবে অজানা ভুলে।’

২৮০জন ১৮৬জন
2 Shares

২১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য