রবীন্দ্রনাথের রসবোধ!

জুলিয়াস সিজার ১০ মে ২০১৫, রবিবার, ১২:৫৮:৪৮পূর্বাহ্ন বিবিধ ১০ মন্তব্য

রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের রসবোধ;-

এক তরুণ কবি রবীন্দ্রনাথকে চিঠি লিখলেন;-
“কপালটা ভিজে যাবে দুই নয়নের জলে…
— কবিতার এই চরণটি কেমন হয়েছে জানাবেন।
কিন্তু রবীন্দ্রনাথ উত্তর দেন না।
একবার, দুইবার, তিনবার! শেষে কবি বিরক্ত হয়ে একটু কটুভাষায় রবীন্দ্রনাথকে চিঠি লিখলেন। শেষমেশ রবীন্দ্রনাথ বিরক্ত হয়ে উত্তর দিলেন;-
” পা দুটো বেঁধে রেখো তাল তমালের ডালে,
কপালটা ভিজে যাবে দুই নয়নের জলে।” p

এক ভক্তগৃহে রবীন্দ্রনাথের নিমন্ত্রন ছিল। খেতে গিয়ে বুঝতে পারলেন তাঁরা যে ডিম দিয়েছেন তা পঁচা। রবীন্দ্রনাথের সঙ্গিরা বিরক্ত। এ কেমন নিমন্ত্রন! কিন্তু সবাই দেখলেন রবীন্দ্রনাথের প্লেটে ডিম নেই। তিনি পঁচা ডিম খেয়ে ফেলেছেন! বাড়ি ফেরার পথে একজন জিজ্ঞাসা করলেন, গুরুদেব আস্ত একটা পঁচা ডিম আপনি কিভাবে খেয়ে ফেললেন?
রবীন্দ্রনাথ বললেন;-
আরে খাইনি তো। দাড়ির ভিতর দিয়ে চালান করে বাম হাতে নিয়ে পকেটে রেখে দিয়েছি। এই যে সাথে করে নিয়ে এসেছি। 🙂

শান্তিনিকেতনের এক শিক্ষক যতবার রবীন্দ্রনাথের রুমে আসতেন প্রায়ই উনার লাটি ফেলে যেতেন ভুলে। রবীন্দ্রনাথ পাঠিয়ে দিতেন। আবার লাটি ফেলে গেলে রবীন্দ্রনাথ উনাকে চিঠি লিখেন;-
“মশাই,
আপনি একই ভুল তিনবার করলেন। এসে আপনার ভুলের দন্ড নিয়ে যাবেন।”
— ঐ শিক্ষক ভয়ে আধমরা। চাকরিটাই যাবে নাকি কোন। ভয়ে ভয়ে পা কাঁপতে কাঁপতে রবীন্দ্রনাথের রুমে গেলেন।
রবীন্দ্রনাথ হাতে লাটিটি ধরিয়ে দিয়ে বললেন এই নিন আপনার ভুলের দন্ড। 😉

লেইট হ্যাপি বার্থডে রবি। আপনি আসলেই রবি। আমি একটু আলসে। তাই দেরি হয়ে গেল উইশ করতে।
‪লেখার তথ্যসূত্র‬- নানা সময়ে পড়া পত্রিকা।

১৪১৭জন ১৪১৭জন
1 Shares

১০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ