যেন এক পথশিশু

বন্যা লিপি ১৭ জুলাই ২০২২, রবিবার, ০২:১২:৩০পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১০ মন্তব্য

হারিয়েছি যখন শব্দের তোলপাড় অহংকার! তখনই বিধ্বস্থ  আমাকে পাই আমি বাস্তকোনে ঘোলাটে আয়নার সম্মুখীন। ভেজা স্যাঁতস্যাঁতে কাপড়ে ঘসটে যায় আয়নার শরীর,,,তবু ফেরেনা প্রতিবিম্বের নিরেট প্রতিচ্ছবি।

বিশ্বাস আর অবিশ্বাসের নাগরদোলায় চক্কর কাটতেই যেন পৃথিবী বিধ্বংসী  হয়েছে বারবার। হাতের আঙুল আর রেখা বরাবর হাজারো প্রতিবন্ধকতা টেনে দিয়েছে ডানা ভরা নিকষ আঁধারের বাতাস। রাতগুলো জমকালো আলোয় ভর করে  মেতে ওঠে জুয়ার জলসায়। দিনের আলোয়  মুখোশের আড়ালে কেউ চেনে না কাউকে।

যে বোধ নিয়ে বেড়ে ওঠেছিলো এক শিশু! সে জানত কোনো একদিন পাড় হয়ে যাবে লম্বা দিনের সবুজ মাঠ! কালের চাবুকে ক্রমাগত রক্তাক্ত হতে হতে জেনেছে সে- হৃদয় ভরে শিশির জমাতে হয় আগুনচোখে ভোরের আয়ুরেখা আঁকতে।

চমৎকারিত্বের ঠাঁটে যাকে কখনো ছোঁয়নি গর্ব ভেঙেচুরে হাহাকারের পৃষ্ঠায় নাম লেখাতে! সেও জেনে গেলো এখানে কালো বিশ্বাসের চোখে পর্দা বলে কিছু নেই।

কৌশল বা অপকৌশলের সাথে যার হয়নি পরিচয় কোনোকালে! সে শিশু বড় হয়নি অর্ধশত দৌড় অতিক্রান্ত করে ও।

চেনেনি কখনো মিথ্যে কি করে অর্জন করে সর্বশক্তির বলয়ে! নিরব নিথর পাশবিক অঙ্কুর হত্যা দেখে দেখে থুবড়ে পরে থাকে, যেন এক টুকরো কাগজ টোকানো পথশিশু…….

 

ছবি- সোনেলা গ্যালারি থেকে।

২০০জন ৩৩জন
0 Shares

১০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ