মা (পর্ব –২ )

মোঃ মজিবর রহমান ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৪, শনিবার, ০৪:৫১:৩২অপরাহ্ন বিবিধ ২৬ মন্তব্য

 

গত ১৫/০৯/২০১৪ তারিখে আমার স্কুল বন্ধু বলল মা কে নিয়ে বেড়িয়ে যা। আমি স্বাভাবিকভাবে এড়িয়ে গেছি। ওর একটি ছেলে আছে। তারপর বলল আমার ও মা নাই চম্পারও ( বন্ধুর বউয়ের নাম।) মা নাই একদিন নিয়ে আয় খুব ভাল লাগবে। রেখে যা খালা আম্মাকে আমার এখানে কয়েকদিন। ঠ্যাত চিন্তা করলাম ওর ছেলেটার দাদী, নানী থেকে বঞ্চিত নিয়ে জাওয়ায় উত্তম। একবার হলেও ডাকতে পারবে।

গত বছর কাহিনী,  আমি সিঙ্গেল রুম ও বারান্দা সহ থাকি আমার পাশের বাসায় এক শিশুর দাদা আসলো আমার মেয়ে তাঁকে দাদা বলে ডাকা শুরু করল।আমাকে বলে আমার দাদা দাদি কোথায়, আমি বললাম গ্রামে আছে। শে বলে আমি যাব। আমি তখন বলেছিলাম ঈদে বাড়ি গিয়ে দাদা-দাদীর কাছে থেক।

এই কথা মনে হল ওর ছেলের কথা মনে হয়ে। এখন অন্তর থেকে সিদ্ধান্ত নিই আমার বন্ধুর বাসায় বেড়াতে জেতে হবে মাকে নিয়ে। কিন্তু কবে যাব এখনও জানিনা।

তবে অবশ্যই যাব একদিন।

আমি অফিস থেকে বাসায় গিয়ে মায়ের পায়ের উপর একদিন শুয়ে আছি আর এক থাপ্পড় গালে আমার।  ভ্যাপা-চ্যাকা হয়েছি।  প্রচন্ড লেগেছে কিন্তু কি করব। প্রমি বলে, আমি তোমার মামনি না! দাদিকে মা বলছ কেন? এই হল জ্বালা হাসি আনন্দ। মা বলে আমার ছেলে প্রমি বলে আমার ছেলে।মা বলে আমার আব্বা প্রমিও বলে আমার আব্বা এই সব নিয়ে  চলে নাতনী আর দাদীর ঝগড়া। মজাও পায় । কোন কোন দিন চলে তাঁদের দুই তিনবার এরকম। মা বলে তোমার কোন পেটে ছিল। প্রমি পেট দেখায়ে বলে এখানে, মা হাসে।

আমি চুপ করে শুনি আর হাসি। মা আমার দিকে অপলক দৃষ্টিতে চেয়ে থাকে আমার দিকে........................।

 

0 Shares

২৬টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ