//আমি আজ মন ভালো করার একটা নতুন সিস্টেম পেয়েছি 🙂
= আমায় ডাকলে?
// পাগল যাও ভাগো,কাওরে ডাকি নাই। আমি একা একা কথা বলছি।
=পাগলেরায় তো একা একা কথা বলে! তাহলে কি দাঁড়ালো? আমি না তুমিই পাগল। হা হা হা
// তোমার সব ঠিক আছে, কিন্তু এই রাক্ষসী মার্কা হাসিই অসহ্য লাগে।
= আমার তো এখন তোমায় অসহ্য লাগে!
// কেনো? আমি কি করেছি?
= পাগলামো ছাড়া অন্য কিছু তোমার কাছে আশা করা যায় না।
// হুহ। চারদিন আগে আমার সামনে কথা বলতেই ভয় পেতো, এখন সে আমায় পাগল ডাকে! কাঁচের মত ভেঙে রেখে দেবো বলে দিলাম।
= সরি আর বলবো না। কিন্তু মাঝে মাঝে এমন কিছু কাজ কর যে আমার চিৎকার করে বলতে ইচ্ছে করে ” এটা ঠিক না”।
// মন খারাপ থাকলে বিচ্ছিরি লাগে,মেজাজ খারাপ থাকলে সব কিছু অসহ্য লাগে। আর মন, মেজাজ এক সাথে খারাপ থাকলে অনুভুতি শুন্য লাগে। আমি এখন অনুভুতি শুন্য। বল কি করেছি?
= এই যে আজ না খেয়ে বিনা কারনে কড়া রোদের মধ্যে হেটে এলে। এটার পেছনে কি যুক্তি দেখাবে??
// আরে বেটা শয়তান ঝাড়ি খাইতে খুব ভালো লাগে তাই না তোমার? এটা তো প্রথমেই বলতে চাইলাম,আর তুমি জিলাপির আড়াই প্যাঁচ টানলা!! তোমায় না বলেছিলাম এক মাস না আসতে এলে কেনো?
= আমার তো কথা বলার কেউ নেই। কথা বলতে ইচ্ছে করছে কি করি তাই চলে এলাম। তুমি রাগ করো না প্লিজ। তোমার নতুন সিস্টেমের কথা বল।আমি শুনতে চাই।
// আমি কোথায় যেনো পড়েছিলাম বছরের প্রথম বৃষ্টিতে ভিজলে নাকি অনেক পাপ বৃষ্টির জলের সাথে ধুয়ে যায়। মনও ভালো লাগে। তাই ভাবলাম আমি রোদে হেটে আসি।
= এই জন্যই তো তোমায় পাগল বলি!সেটা বৃষ্টি। আর তুমি বেড়িয়েছিলে রোদে!
// এই জন্যই আমি তোমায় গর্দভ বলি। আচ্ছা বল পৃথিবীর এক মাত্র জিনিসের নাম যেটাতে একই সাথে ভেজা ও পোড়া যায়।
= পারবো না।
// গাধা। সেটা হলো ” রোদ”।
আর তাই আমি ভাবলাম বৃষ্টি যেহেতু নাই সেহেতু রোদই সই। ভিজে আসি। রোদে হেটে ভিজে যাবো, ঘামের সাথে সাথে কষ্ট,মন খারাপের অনুভুতি গুলোও ঝরে যাবে। পিপাসা লাগবে,কাঁচের এক গ্লাস ঠান্ডা পানি। গ্লাসের গায়ে বাস্প জমে যাবে,পানি দেখে চোখ চকচক করে উঠবে,ইচ্ছে করবে গ্লাস টা দুগালে ধরে থাকি কিছুক্ষণ। পানিটা খেয়ে শেষ করে ফেলতেই মনে হবে এটা সৃষ্টিকর্তার শ্রেষ্ঠ নিয়ামত। আর হ্যা বৃষ্টিতে ভেজার সময় যেমন অনেক কিছু দেখা যায় তেমন রোদ্র ভেজার সময়ও অনেক কিছু দেখা যায়।
= না এভাবে কখনও ভেবে দেখিনি।
// জান তো রোদের সাথে জীবনের অনেকটা মিল আছে!?
= কি ভাবে?
// রোদে তুমি ভিজতে চাও না পুড়তে চাও সেটা ঠিক করতে হবে তোমার নিজেকে। ঠিক তেমনই জীবনে সব ক্ষেত্রকে তুমি স্বাভাবিক ভাবে নিয়ে ভালো থাকতে চাও না কোন দোষ বেড় করে খারাপ থাকতে চাও সেটাও ঠিক করতে তোমার নিজেকে।
= মাঝে মাঝে জটিল কথাা বল ঠিক বুঝি না। যাক ও সব কথা তুমি রোদে একটু কম হাটো।
// কেনো আমি কালো হয়ে যাবো তাই?? হা হা হা
= হ্যা। তুমি যথেষ্টই কালো, আরো কালো হলে বর পাবে না। :p
// তবে রে। যাও ভাগ……

২৪০জন ৫৭১জন
0 Shares

৮৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ