গতকাল র্যাবের নির্বাহী ম্যাজিট্রেট থেকে বদলী করে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিবের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে ব্যারিস্টার সারওয়ার আলমকে। কিন্তু ওনার স্থলাভিষিক্ত কে হয়েছেন তার ছবিও দেন যাতে আমরা একই  প্রত্যাশার দাবি তার কাছেও করতে পারি ।

আচ্ছা আমি মাঝে মাঝে চিন্তায় পরে যাই, এইগুলা কি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অজানা??? মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ইচ্ছা করলেই কি তাদের আরো ভালো পাকাপোক্ত করে স্বপদে বা তারো কোনো বড় জায়গায় আসীন করতে পারেন না???

রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মাহবুব কবীর মিলন এর ওএসডি, ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের সাবেক পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল নাছির উদ্দিনে অবসরে যাওয়ার হাতেগোনা কদিন আগে বদলি। গতকাল মাজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম এর বদলি।

আসলে এরকম সৎ সাহসী লোকগুলো জীবনের লম্বা একটা রেস যদি খেলতে পারেন একটা জায়গায়, তাহলে আমাদের অনেক কিছুই উপহার পাওয়া সম্ভব এই সোনার বাংলা থেকে।

একটা জিনিস ভেবে আনন্দ লাগছে উনাকে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব করা হয়েছে। উনি যদি দমে না যান, বা মাননীয়  প্রধানমন্ত্রী বা রাষ্ট্রপতির যদি কোনো আপত্তি না থাকে উনার কাজ বা ক্ষমতায়, তাহলে এই মন্ত্রণালয়ের অসাধু লোকদের বারোটা বাজবে।

এমনও হতে পারে বাংলাদেশের অর্থনীতির চাকাটা আরো শক্ত মজবুত করার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এই খাত টায় ভালো কাজ করার জন্য বা দুর্নীতি নির্মূলের জন্য তাকে এনেছেন, যদি এমন হয় তাহলে সাধুবাদ।

আর যদি তার ক্ষমতার খর্ব করে তাকে পুতুলের মত সাজিয়ে রাখতেই এই বদলি। তাহলে একটা দলের ষড়যন্ত্রে আগামীর সুন্দর বাংলাদেশকে একধাপ পিছিয়ে নিতেই এই আয়োজন মনে করবে এই জাতি ।

১৮৫জন ১৭জন
0 Shares

১৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য