সোনেলা দিগন্তে জলসিড়ির ধারে

বেকার জীবন, রঙ্গভঙ্গ

জাহাঙ্গীর আলম অপূর্ব ১২ সেপ্টেম্বর ২০২১, রবিবার, ০৭:০৪:১৫পূর্বাহ্ন কবিতা ৪ মন্তব্য

বেকার জীবন

 জাহাঙ্গীর আলম অপূর্ব

শিখে লেখাপড়া খেয়েছি যে ধরা
বেকার জীবন আজ,
ঘুরি পথে পথে জীবনের রথে
নাহি মেলে কোনো কাজ।

বেকার যে প্রাণ কষ্টের
সতত করতে হায়,
পরিজন নিয়ে কাঁদে মোর হিয়ে
খাবার নাহি যে পায়।

শিক্ষিত হয়ে সকলের তয়ে
হয়ে গেছি তবে বোঝা,
যুগল বন্দী জীবনে ফন্দি
চলা নাহি ভাই সোজা।

কাজের জন্য জীবনে তরায়
মেলে নারে ভালো জুড়ি,
মাতাপিতা বলে এরূপ তো চলে
সদা করো ঘোরা ঘুরি।

নাহি সুখ আর শান্তি আবার
কিভাবে চাও যে তবে,
কাজ ছাড়া কেহ করো নারে স্নেহ
এই না জীবন ভবে।

কাজ দিয়ে তাই ন্যায় নারে ভাই
করিবে জীবনে ভুল,
বাগানের ফুলে অলি দুলে দুলে
সঠিক পথেই মূল।

রচনাকালঃ
২৮/০৭/২০২১

মাত্রা বৃত্ত ছন্দ ৬+৬/৬+২
————————————-
রঙ্গভঙ্গ
জাহাঙ্গীর আলম অপূর্ব

আমার বাড়ি কাঁচের চুড়ি
আছে তবে ভূরি ভূরি
হয়ে গেছে কালকে চুরি
তা নিয়েছে কানা বুড়ি।

চুরি করা বুড়ির পেশা
রাতে বেলা করে নেশা
অবাধ তাহার মেলামেশা
পর জিনিসের প্রতি রেষা।

চুরি করে বাড়ি করে
নিজের মতো পথটি ধরে
নিজের স্বার্থে নিজের তরে
পাপে পাপে গেছে ভরে।

গ্রামের ভিতর সেরা বাড়ি
চুরি করে বড় গাড়ি
আছে তাহার চাঁদে হাঁড়ি
মিষ্টি কথা মুখে তারি।

চুরি করে জীবন চলে
নানা খেলার ইচ্ছে ছলে
বাড়ি আনে নানা ফলে
মিথ্যা আশা করে বলে।

রচনাকালঃ
২৮/০৭/২০২১

৪+৪/৪+৪
৫০জন ১৭জন
0 Shares

৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য