সোনেলা দিগন্তে জলসিড়ির ধারে

বুলেট

সুপর্ণা ফাল্গুনী ৮ আগস্ট ২০২০, শনিবার, ০৮:০০:০০অপরাহ্ন কবিতা ৪৭ মন্তব্য

ছেলেটি কাতরাতে লাগলো-

কারণ ওর বুকে একটি বুলেট ঢুকেছে।

একটি বুলেট ওর বুকটিকে ঝাঝড়া করে দিল।

একটি বুলেট একটি স্বপ্নকে হত্যা করলো।

একটি বুলেট একটি ভালোবাসাকে নষ্ট করলো।

আঃ! এই একটি শব্দই পৃথিবী 

থেকে একটি অস্তিত্বকে মুছে দিল ক্ষণিকে।

কত আশা-স্বপ্ন ছিল ঐ বুকে,

আজ কিনা একটি বুলেটই তাকে

ম্রিয়মান, অচল করে দিল!

বাহ্ ! এইতো আমাদের ভবিষ্যৎ, সমাজ-

যাকে নিয়ে এত সভা, আলোচনা,

রাজনীতি, যুদ্ধ, কবিতা, গান।

আজ সেই কিনা অসহায় হয়ে পথের মাঝে কাতরাচ্ছে।

তার চারপাশে আজ কেউ নেই।

বাবা-মা, আত্নীয়-স্বজন কিংবা ভাই-বোন,

এমনকি তার প্রিয়জন, অতি আপনজন-

যে কিনা তাকে ছাড়া বাঁচবে না বলে সর্বদা বলতো,

আজ সেই কিনা তারপাশে অনুপস্থিত।

সেও কি ভয় পায় ঐ হায়নাদের, ঐ নরপশুদের?

না-ওদের পশুর সাথে তুলনা করে পশুদের পবিত্রতাকে নষ্ট করতে চাই না।

পশুরা অবোধ, অবুঝ ওদের কাছে সব সমান।

ওদের ভালো- মন্দ বিচারের ক্ষমতা নেই।

কিন্তু আমরা মানব- সন্তানরা না সৃষ্টির শ্রেষ্ঠ জীব?

তাহলে কেন এই যুদ্ধ, কেন এই অশান্তি?

কি দিয়ে আমরা আমাদেরকে 

শ্রেষ্ঠত্বের উপাধি দেই?

আমরা তো এর যোগ্য নই।

তানা হলে আজ একটি বুলেট কেন সব নষ্ট করে দেয়?

আজ বুঝলাম একটি বুলেট ও সব শেষ করতে পারে,

একটি পৃথিবীকে ধ্বংস করতে পারে।

কিন্তু ভালোবাসা মৃত ব্যক্তিকে বাঁচাতে পারে না।

তাই বুলেটকেই আমি বেশী ভালোবাসি-

কারণ ওর ক্ষমতা, ওর ব্যক্তিত্ব।

হায়রে আমার ক্ষমতাধর বুলেট,

তোকে আমি কত ভালোবাসি,

তা কি তুই জানিস?

  • রচনাকাল-১১/০৯/১৯৯৮

হেলাল ভাইয়ের জন্য

৫৫৯জন ২১১জন
21 Shares

৪৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য