বিষণ্নময় স্বপ্ন

মোহাম্মদ মামুন ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, শুক্রবার, ১০:৩০:২৪অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১১ মন্তব্য

কয়েক বছর বাদে আমাদের একটা ছোট্ট কুটির হবে, সাজানো গোছানো একটা সংসার হবে ।রাতভর দুইজনে কথা বলে যে স্বপ্ন এঁকেছি মনের গভীরে তা পরিপূর্ণ ভাবে সাজিয়ে নিবে । না আমার মত করে  নয়, তোমার ভালবাসার সংসার তোমারমত করে সাজানো হবে। কোন এক লেকের ধারে হবে আমাদের  ছোট্ট কুঁড়ে ঘর।

আচমকা যদি কোন এক পূণিমার রাতে মন খারাপ হয় দু’জনের , আনমনে লেকের ধারে বসে লেকের স্নিগ্ধ স্বচ্ছ  জলে ভেসে ওটা নিষ্পাপ চাঁদের ছবিটার সাথে কথা বলে মন  ভালো করে নিবে ।

 

ঘরের সামনের  দিকটায় থাকবে বারান্দা। বারান্দায় এক কোনায় দু’টা বেতের চেয়ার পাতা থাকবে, কোন এক গভীর রাতে যখন দুঃস্বপ্ন দেখে আমার ঘুম ভেঙে যাবে্‌, তখন তোমাকে জাগিয়ে,বেতের চেয়ারটায় দু’জনে আরাম করে বসে চা খেতে খেতে গল্প করে কাটিয়ে দিব বাকিটা রাত।।

কিন্তু আমারও  রুমের দক্ষিণটায় একটা জানালা চাই-ই চাই। তুমি যখন গভীর ঘুমে তলিয়ে যাবে, জানালার গ্রীল ঢলে পূর্ণিমার চাঁদের আলো পরবে তোমার নিষ্পাপ মুখের উপর, দক্ষিনার হাওয়ায় তোমার কপালের চুল্গুলো এলোমেলো হয়ে মুখে ছড়িয়ে পরবে। আমি চুল সরানোর বাহানায় তোমায় আলতো করে ছুঁয়ে দিব।

 

এই শুনছো ,—  ঘরের ছাউনিটা যেন টিনের হয়। টিনের চালে বৃষ্টি পরার ঝুম ঝুম শব্দের ছন্দে ঘুমটা ভালো হয়।তোমার বুকের মাঝে মুখটা লুকিয়ে ,দু’হাতে আলিঙ্গন করে তলিয়ে যাব গভীর ঘুমে।।

 

তেমন কোন আসবাবপত্র  লাগবে না, যেগুলো না হলেই না সেগুলো হলেই চলবে । আর হ্যাঁ একটা ড্রেসিং টেবিল চাই ,যাতে রোজ নিয়ম করে সকাল সন্ধ্যা তোমার ঐ প্রিয় চুলগুলো পরিপাটি করে রাখতে পারি। যখন তোমার আমার মাঝে খুনসুটি হবে, তখন নিজেকে আয়নার নামনে দাঁড় করিয়ে তিরস্কার  করতে পারি।

এই এ গুলো দিবেতো আমায়?

তোমার এই কথা গুলো আজও কানে বাজে বিষণ্নতার ধবনি হয়ে।

ছেড়েই যদি যাবে তবে কেন, আশা জাগিয়ে ছিলে মনে ?

ছেড়ে যাবে? যাও,

আমি বাদা দিব না, আমি বাদা দিবারই বা কে?

কেন যাচ্ছ তাও আমি জানি না।

অকারনে ,বিনা অজুহাতে , অভিযোগে যদি চলেই যাবে ।

তবে কেন আমার ধার করা ঘুমগুলো ফিরিয়ে দিয়ে যাচ্ছ না ।

যদি ছেড়েই যাও , তবে স্মৃতিগুলো মুছে দিয়ে যাও।।

১২৫জন ৩৪জন
0 Shares

১১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য