বিশ্বজয়ী বাংলাদেশ ২০২০!

সুপায়ন বড়ুয়া ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০, শনিবার, ০৭:০৮:৪৩অপরাহ্ন কবিতা ২০ মন্তব্য

১৯’র হাত ধরে যখন ২০শে আসে বিশ্বজয়
আনন্দ-বেদনায় উদ্বেলিত হয় সমগ্র দেশ
শত সহস্র যোজন দূরে দক্ষিন আফ্রিকার মাটিতে
যখন উড়ে বহুল কাঙ্খিত বিজয় কেতন
প্রজন্মের অহংকার এক ঝাক তরুণ
এঁকে যায় আকবর নামা বিজয়ের অহংকারে।

যে কাপটি অধরা ছিল বছরের পর বছর
যুগের পর যুগ রচিত হয়েছিল
হারানো হরি-বিষাদের কাব্য নামায়
প্রজন্মের অহংকার আকবর তুমি তুলে ধরেছিলে
মাথার উপর উঁচু করে সতীর্থের ঘাড়ে চড়ে
ইতিহাসের এক মহা আনন্দের নন্দন কাননে
কারুকার্য খচিত একটি সোনালী কাপ।

তখন মনে হলো আমার উত্তোলিত বুকে
হিমালয়ের চূড়ায় চড়ে দীর্ঘশ্বাস ছেড়ে বলছি
এটি একটি বিশেষ কাপ নয়
এটিই একটি দেশ, গৌরবান্বিত রক্তখচিত সোনালী একটি দেশ
প্রাণপ্রিয় বাংলাদেশ।

সেদিন আকাশে ছিল রৌদ্র উজ্জ্বল মেঘের লুকোচুরী খেলা
এক একটি বল ছুড়েছ যেন বারুদের গোলা
আগুনের ফুলকি ছড়ানো বিষাক্ত ছোবল
উপড়ে গিয়েছিল ২২ গজ দূরে দাঁড়িয়ে থাকা ভারতের দম্ভখানি।

যখন তোমাদের গোলার আঘাতে উড়েছিল ভারতের সীমান্ত রক্ষী
ওরা বিচলিত, হিংসা আক্রোশে জ্বলা উদ্দাম প্রহরী
উদাস নয়নে দেখেছিল তোমাদের বীরক্ত গাঁথা
মাথা নত করে তোমাদের পায়ে দিয়েছিল অঞ্জলী।
তখন তোমাদের পাশে ছিল সমগ্র বাংলাদেশ।

১৭৭ রানে যখন একে একে সীমান্ত রক্ষীরা কুপোকাত
তোমরাই পারতে অনায়াসে বিজয় সীমান্ত পাড়ি দিতে
তোমরা কাপুরুষ নও, তোমরা বীরের জাতির নবপ্রজন্ম,
তোমরা দাঁড়াতে জান দৃঢ়তায়
এগোতে জান ছান্দিক তালে
সপাটে চালিয়েছো ব্যাট।
বুদ্ধিমত্তায় রাঙিয়েছো রানের গতি
শত উস্কানির ফাঁদে দাওনি পা।
যখন প্রয়োজন ছিল দাঁড়াতে
দাঁড়িয়েছো হিমালয়ের মতো
মাথা উঁচু করে দম্ভভরে।

লক্ষের চূড়ান্তে পৌঁছে ব্যাট উঁচিয়ে যখন দৌড়ালে
মনে হল একঝাক প্রজাপতি দৃষ্টি নন্দন পাকা মেলে শুণ্যে ভাষছে।
বিজয় আনন্দ ছড়ালে সমগ্র বিশ্ব জুড়ে
রচিত হয় ইতিহাসের মহাকাব্যনামা
জয় বাংলা ধ্বনিতে উচ্ছারিত হল
আফ্রিকার মাটি থেকে সমগ্র বাংলাদেশ।

হে প্রজন্মের অহংকার, তোমাদের অভিবাদন !
অভিনন্দন বাঙালীর হৃদয়ের অন্তস্হল থেকে
অভিনন্দন সমুদ্রের জলরাশির উদারতা থেকে
অভিনন্দন শ্যামল মৃত্তিকার উর্বর জমি থেকে
অভিনন্দন সিংহশাবকের দাম্ভিকতায়
অভিনন্দন রয়েল বেঙল টাইগারের গর্জনে
অভিনন্দন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্মুক্ত চত্বর থেকে
শহীদ মিনার ও বিজয়স্তম্ভের পাদদেশ থেকে
অভিনন্দন সাগর মহাসাগরের বিশালতা থেকে
আটলান্টিক মহাসাগরের পাদদেশে সগৌরবে
দাঁড়িয়ে থাকা স্টাচু অব লিবার্টি থেকে।

তোমাদের মাঝে খুঁজে পেতে চাই
শচিন , সৌরভ, লারা ও জন্টি রোড্সকে
তোমরাই হবে আগামী দিনের কান্ডারী
তোমরাই হবে বিশ্বসেরা অল-রাউন্ডার সাকিব
মি: কুল মুসফিক, ব্যাটিং স্তম্ভ তামিম।
অনেক ইতিহাসের সাক্ষী বিজয় কান্ডরী
বীর প্রসবিনী বাংলার সেরা কাপ্তান মাসরাফি বিন মুর্তজা।

তোমরা লিখে যাও, বিজয়ী বীর বাঙালীর
বিজয়ী উপাখ্যান আকবর নামা !
উড়াবে বিজয় নিশান দিকে দিকে বিশ্বজুড়ে।

৫১৪জন ৫০জন
13 Shares

২০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য