পদ্মা পাড়ের জনৈক আবুল ফেব্রুয়ারী মাসের ৬ তারিখ পদ্মার ওইপাড়ের সুন্দরি মাইয়্যা হুসনে আরা’কে দেখে ফিদা হয়ে গেল, ৭ তারিখ একখান Rose ফুল হাতে নিয়ে মনের কথা বলার চেষ্টা করলো, কিন্তু পদ্মার ঠেউ দেখে ভয় পেয়ে সাহস করতে পারলো না। পরের দিন মানে ৮ তারিখ চোখ বন্ধ করে পদ্মা পাড়ি দিয়ে Propose করলো,

-‘হুসনে আরা, আই তুয়ারে ভালুবাসি’।

মেয়েটা আবুইল্লার সাহস দেখে পাগলী হয়ে প্রেমে হোচট খেল।

৯ তারিখ হুসনে আরা ও আবুল একসাথে Chocolate চাটলো পদ্মার বুকে। পরের দিন ডেটিং করতে গিয়ে আবুল হুসনে আরা’কে একখান গোলাপি রঙের Teddy বিয়ার উপহার মারলো। ১১ তারিখ তারা Promise করলো, ‘তুমি আমার আমি তোমার’। ১২ তারিখ হঠাৎ করিয়া আবুল হুসনে আরা’কে একখান Kiss মারলো, হুসনে আরা লজ্জায় লাল হয়ে গেল, তার প্রতিক্রিয়ায় পদ্মায় ঝড় উঠল! ১৩ তারিখ ঝড় দেখে ভয় পেয়ে হুসনে আরা আবুলরে Hug করে বললো, কথা দাও আবুল, আমায় ছেড়ে যাবে না পদ্মার ওপারে, সেতু বন্ধন শক্ত করার প্রত্যয় ব্যক্ত করলো আবুল!

১৪ তারিখ Valentine দিবসে দুইজনে, পদ্মার বুকে ‘চলে আমার নৌকা হাওয়ার বেগে উইড়া উইড়া’ গাইতে গাইতে বাড়ি গেল।

১৫ তারিখ কি জানি কি হলো, হুসনে আরা ‘তবে রে আবুইল্লা’ বলেই ঠাস করে মারলো একখান Slap! পরেরদিন মানে ১৬ তারিখ আবুইল্লারে Kick মাইরা পদ্মার পানিতে ফেলে দিল হুসনারা। আবুল ঘটনা কিছুই বুঝতে পারলো না যে, সে কি এমন করলো!

আরেকজনের সাথে ভাব নেয়ার চেষ্টায় ১৭ তারিখ আবুল এক্স Perfume লাগিয়ে সখিনার কাছে গেল, কিন্তু সে আবুলকে পাত্তায় দিল না!

অন্যদিকে, আবুল খোঁজ নিয়ে জানতে পারলো, বিদেশ ফেরত আক্কাইচ্যা হুসনে আরা’র কাছে তার সম্পর্কে উল্টা পাল্টা কথা বলছে, তাই তাকে লাথি মাইরা খেদায়া দিসে। হুসনে আরা তাকে না বুঝে আক্কাইচ্যার কথা বিশ্বাস করলো এই দু:খে হুসনে আরা’কে দেখে নেয়ার চিন্তা করে ১৮ তারিখ তার সাথে Flirt করলো আবুল। ফলাফল, দুইজন পদ্মার দুইপাড়ে আজ।

কিন্তু ভালুবাসা অসহায় থাকলেও ভালবাসার শক্তি অসীম, তাই ১৯ তারিখ নিজেদের Confession করে আবার পদ্মার পাড়ে দাঁড়িয়ে সেতুবন্ধন করতে চাইলো। দুইপাড়ে দাড়িঁয়ে একজন আরেকজনকে Miss করতে লাগলো তারা, । কিন্তু হায় অভাগা ভালুবাসা, অনেক সম্ভাবনা ও আশা থাকা সত্বেও বিশ্বাস নষ্ট হওয়ায় ২১ তারিখ তাদের Break up হয়ে গেল। সমাপ্ত হল এক অমর প্রেম কাহিনির।

কি এমন কথা হুসনে আরা’কে আক্কাইচ্যা বলেছিল? যার কারণে এমন সেতুবন্ধন ধ্বংস হয়ে গেল তা কেও জানতে পারলো না। পদ্মা মাঝখানে নিজের মত একা বয়ে চললো।

* বছরের ফেব্রুয়ারী মাসে ব্যতিক্রমী কিছু দিবস থাকে, ফেব্রুয়ারী মাসের কোন দিনে কোন দিবস তা ইংরেজিতে লেখা শব্দ গুলো দ্বারা বুঝানো হয়েছে।

আবুল-হুসনারা’র প্রেমকথন অলস মস্তিস্কের উর্বর ফসল ছাড়া কিছু নয়। কারও সাথে মিল খুজে পেলে তা কাক কোকিল তালিয়ো।

২২৯জন ২২৯জন
0 Shares

৬টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য