প্রেম তুমি (২য় পর্ব)

ইঞ্জা ১৭ জুন ২০১৬, শুক্রবার, ০৯:১৫:৩৫অপরাহ্ন বিবিধ ১৭ মন্তব্য

 

ডুপ্লেক্স সিঁড়ি দিয়ে জুলি চলে গেল চেইঞ্জ করতে, ও ভিজে চুপসে গেছে একেবারে, আমি সোফায় বসে ফিরে গেলাম সেদিনে যেদিন হঠাৎ ওর আব্বা কানাডা থেকে এসে আমার বাসায় এলো সরাসরি আর খুব করে ধমকালো যেন উনার মেয়ের সাথে কোনো সম্পর্ক না রাখি কারন আমাদের পারিবারিক অবস্থা আর আমার বেকার জীবন উনার মেয়ের জন্য ঠিক না, আমি যদি কন্টাক্ট রাখি উনি আমার লাশ ফেলে দেবেন আর জুলি যদি কোন ভাবে কন্টাক্ট করে তাহলে জুলিকেই মেরে ফেলবেন এবং আমি জানতাম তিনি তা করতেই পারেন কারন উনার সেই জোর আর জেদ ছিল। এরপরে আমি আর জুলির সাথে কন্টাক্ট করার চেস্টা করিনি আর জুলিও করেনি, এরপরে আমি বাপের দেওয়া অল্প কিছু বিনিয়োগ নিয়ে জীবন যুদ্ধে নেমে পড়ি আর আজ দেশের নামকরা একজন ব্যবসায়ী।

হটাৎ জুলির ডাকে সম্বিৎ ফিরে পেলাম, দেখি ও আমার মার রাখা এক সেট কাপড় পড়েছে, আমি বললাম
ক্ষিদে পেয়েছে নিশ্চয়, এগুলো খাও।
ও তখন টেবিলে রাখা সেন্ডউইচ নিয়ে কামড় বসালো, আমি ওকে অবাক চোখে দেখছি আর ভাবছি ও এইখানে কি করে আসলো আর আমার ঠিকানাও কই পেলো?
জুলি জিজ্ঞেস করলো তুমি অবাক হয়েছো না?
হাঁ অবাকই হয়েছি, তুমি এখানে আর ওরা কারা যারা তোমার পিছনে লেগেছে?
আমি আজ পাঁচ দিন দেশে পালিয়ে এসেছি, প্রথমে তোমার বাসায় গেলাম কিন্তু কেউ কোন কিছু না বলেই আমাকে ঘর থেকে বের করে দিলো, তখন তো আমার পাগলের মত অবস্থা বাহিরে দাঁড়িয়ে কাঁদছিলাম, পিছন দরজা দিয়ে তোমার ছোট বোন বের হয়ে এসে আমাকে এক কোনায় নিয়ে গিয়ে বলল তুমি এখন চট্টগ্রামে থাকো আর বললো ও ঠিকানা জানেনা কিন্তু তোমাকে নাকি এখন সবাই চিনে বলেই ঘরে চলে গেলো আর সাথে সাথেই আমি বাসস্টপেযে এসেই গাড়ীতে চেপে বসলাম এইখানে আসবো বলে, বলেই একটু চুপ করে থাকলো, পানি চাইল আমি কিচেন থেকে পানি নিয়ে এলাম সে ঢক ঢক করে দুই গ্লাস পানি খেলো।
আর তোমার পিছনে কারা লেগেছে?
বাবার গুন্ডারা সাথে বাবা আর ভাইয়া আছে, চট্টগ্রামে এসেই তোমার খোঁজ করছিলাম আজ কয়েকদিন ধরে, উঠে ছিলাম সেইন্ট মার্টিনে, তোমাকে খুঁজতে বেরুবো দেখলাম বাবা, ভাইয়া রিসেপশনে দাঁড়িয়ে আমার খোঁজ করছে, বুঝতে পারলাম আমি ধরা পড়ে গেছি তখন সব কিছু ফেলেই পিছনের দরজা দিয়ে পালিয়ে এলাম।।

…………. চলবে।

৭৬জন ৭৬জন
0 Shares

১৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য