প্রজাপতি

মেহেরী তাজ ২৬ জুন ২০১৫, শুক্রবার, ০৮:০৬:১৮অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৪৩ মন্তব্য

11657343_679237015514713_1276991879_n
দু হাতে জানালার পাল্লা দুটো খুলে দিলাম। বেশ কিছুদিন ঘরে আলো বাতাসের প্রবেশ নেই। ঘরের বাতাসে ভেপসা গন্ধ। সেটাকে দূর করতে হবে। ফ্যানটা ছেড়ে রেখেছি। এক হাতে নিজের ব্যবহারি বডি স্প্রে আর অন্য হাতে সুন্দর গন্ধের একটা রুম স্প্রে নিয়ে স্প্রে করছি ঘরের প্রতিটা কোনায়,পুরাতন আর অপ্রয়োজনীয় কিছু ছুড়ে ফেলে দিচ্ছি ঘর থেকে। মোদ্দা কথা ঘরটাকে সাজাচ্ছি নতুন করে।

বাতাস এসে আমার কানে কানে বলে গেছে এই ঘরে বেশ বড়,চাপা রঙের  একটা প্রজাপতি আসবে। যে ছোট্ট একটা ঘর চায়,সাথে একটা খোলা জানালা। যে জানালা দিয়ে একটু খানি নীল আকশ দেখা যাবে। যে জানালা দিয়ে সকালের রোদ এসে গায়ে মাখবে। বিকেলের আকাশে পাখির ওড়া উড়ি কিংবা রাতের সাদা চাঁদ টা আয়েস করে দেখা যাবে। সেটা দিয়ে হাত বাড়ালেই একটু বৃষ্টি ছোঁয়া যাবে। ঘরটাকে তার বসবাসের উপযোগী করে তুলছি।

বেশ তো থাকা হলো বন্ধ ঘরে,এবার না হয় একটু জানালাগুলো খুলেই দিলাম।

বন্ধ ঘরে থাকতে থাকতে হেরে যাওয়া সুন্দর প্রজাপতি টার জন্য আমার কোন আফসোস থাকলো না। কারন সে জানালা দিয়ে আকাশ দেখতে জানলো না।

বিঃদ্রঃ এই প্রজাপতি টা প্রায় একবছর আগে মরে গেছে। আমি এর দেহাবশেষ টা আমার একটা প্রিয় গয়নার সাথে রেখে দিয়েছি। অনেকেই মরা প্রজাপতি টা দেখে আমায় পাগল বলে। তবে মৃত প্রজাপতি টা হাতে নিয়ে ” ওয়াও” বলতে মোটেই ভুলে যায় না।

নওগাঁ
৯ এপ্রিল  ২০১৫ খৃষ্টাব্দ।

৫৭১জন ৫৭১জন
0 Shares

৪৩টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ