পূর্ণচ্ছেদ

রোকসানা খন্দকার রুকু ২২ অক্টোবর ২০২০, বৃহস্পতিবার, ০৬:৩০:২৩অপরাহ্ন কবিতা ১৭ মন্তব্য

পৃথিবীর আর সবাই ঘুমিয়ে গেছে, অতন্দ্রীলা;

তুমি জেগে আছো?  কুয়াশা-কলমে কবিতা লিখছো?

মৃত্যুর মত এই হিমঝুরি হেমন্তের রাতে

গজলের ঢেউয়ে ভেসে আসে জীবনের  স্বর,

আমি তো এমন নই যে বানানের ভুলগুলো শুধু ধরিয়ে দেবো,

আলাপের বেসুরো তান টুকু তুমি

অন্তরায় এসে শুধরে নিও বরং,  যদি পারো..

 

ঝরাপাতা গুণে গুণে সময়  বেশ কেটে যায় আমার

মলিন অবসাদে অবশ আমি

আমি মৃত্যুময় ও চিরহরিৎ

নিস্পন্দ নির্যাশে যেমন পদ্মপাতার জল

অথবা একফোটা শ্বেতদ্রোণ

 

হাজার মাইল পাড় হয়ে এসেও দেখি

তোমার মুখের মৃন্ময়ী আভা মৃত্যুর মত লেগে আছে মনে

তোমার দোতলা ঘর, বাগানের ঘাসফুল,কার্নিশের ছাতিম মিশে গ্যাছে আমার কড়িকাঠে,ঝাউয়ের ছাউনিতে, ঊর্নাময় বেডল্যাম্পে

কুয়াশার মত মিহি একটা স্বপ্ন কী শান্তভাবে এগিয়ে এসেও…

চৌকাঠের বাইরে হঠাত থেমে গেল,

কবেকার কথা…

অশীতিপর বৃদ্ধের মত সফেদ চাহনী মেলে দেখেছি সময়ের নির্লজ্জ  লেনাদেনা,

অতন্দ্রীলা,জেগে আছো? নাকি

নৈশব্দবতীর নি;সীম তন্দ্রা তোমাকেও নিয়ে গেছে ঘন ঘোর ঘুমের ভেতর,

আমার দূর্বাভেজা জীবনেও যে এম্নিভাবেই শেষ এলো…

….

পুনশ্চঃ

পুববাংলার এই হেলে পরা রাতে আমি কবুল করছি

মৃত্যু বড় জ্বালাতন করেছিল

জীবন ও জালিয়েছে খুব

তবু ছিল কিছু একটা- হয়ত মানুষজন্ম-হয়ত তোমার শিশিরভেজা মুখ

অতন্দ্রীলা, ভালবাসি বললেই বুঝি ভালোবাসা হয়।

লেখক- জাকির হোসেন।

১৬৪জন ৩৭জন
0 Shares

১৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য