পাখিময় জীবন

জিসান শা ইকরাম ৩১ মে ২০১৯, শুক্রবার, ১২:৫১:১২পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৩১ মন্তব্য

পাখির প্রতি ভালোবাসা আমার অনেক পুরানো। সেই ছেলে বেলায় এক ময়না ছিল আমার। আমার নাম ধরে পিলু পিলু করে ডাকতো সে আমায়। হঠাৎ একদিন আমাকে চোখের জলে ভাসিয়ে সে নিথর হয়ে গেলো। ছোটবেলার পাড়ার বন্ধুদের ডেকে তাকে গোসল করিয়ে সাদা কাপড়ে জড়িয়ে কবর দিয়েছিলাম। ঘুমের মাঝেও তার পিলু এসেছে, পিলু ভালো আছো? ডাক শুনতে পেতাম। এরপর ৭১ এর মুক্তিযুদ্ধ এবং আমাদের পরিবারের ভাসমান জীবন ময়নাকে ভুলিয়ে দিলো।

বড় বেলায় যখন একটু লেখা লেখি করতাম, রাত জেগে কলেজ ছাত্রাবাসের বন্ধুদের লুকিয়ে লিখতাম কিছু একটা, তখন সেই ময়নার ডাক আবার শুনতে পেতাম। একা একা কথা বলতাম আমার ময়না,  আমার পাখির সাথে। আমার ভিতরে থাকা একজন আমিই যেন সেই পাখি। কিছু লেখাও আছে আমার সেই পাখি নিয়ে এই সোনেলায়।

দুই তিন বছর আগেও খাঁচায় পাখি রেখেছি। হঠাৎ একদিন সব মুক্ত করে দিলাম। পাখিদের অভয়ারণ্য গড়ার ইচ্ছেয় বেশ কিছু গাছ লাগালাম, আর এই সব গাছের মাঝেই বানালাম আমার বিশ্রামাগার। যতক্ষন থাকি ওখানে বিভিন্ন পাখির গানে মগ্ন থাকি। আজ খাঁচায় না রেখেও অনেক মুক্ত পাখি আমার। এরা ভয় পায় না আমাকে। জানালার একদম পাশে এসে তাকিয়ে থাকে আমার দিকে। লেজ নাড়িয়ে ঠোট মুখ দুলিয়ে কথা বলে।

  একদিনঃ

জেস- কি ব্যাপার তুমি আমার বিছানায় বসে?

পাখিঃ হ্যা, তুমি নাইত তাই বিছায় ঘুমাই আমি।

জেস- মনে হচ্ছে এই বিশ্রামাগার তোমাদের জন্যই বানিয়েছি?

পাখি- হ্যা আমাদের জন্যই তো বানিয়েছ 😀

জেস- তুমি ভিতরে ঢুকলে কিভাবে?

পাখি- তুমি দরজায় তালা দিলেও দুটো জানালা কিছুটা খুলে রাখো, আমরা যাতে ভিতরে আসতে পারি, ভেবেছ আমরা তা বুঝিনি? 😍

জেস- বুঝছি সবজান্তা হয়েছ। তোমাকে একটু ধরি?

পাখি- আচ্ছা ধরো, ব্যাথা পাইনা যেন, তাহলে আর আসব না।

জেস- আরে না, ভালবেসে আদরেই ধরব।

=============================

কিছুদিন আগেও পাখির ডাকে ঘুম হতো আমার। চিরচেনা পাখিটা হঠাৎ অচেনা হয়ে চলে গেলো আমার অজানা গন্তব্যে। যে পাখি যায় সে আর ফেরেনা।

==============================

স্বপ্নে দেখি একরাতে- রাত জেগে কথা বলছি প্রিয় একজনের সাথে। প্রসংগের কোন অভাব নেই। হঠাৎ আজানের আগে জানালার পাশের আম গাছে থাকা পাখিটা ডেকে উঠলো টুহু টুহু করে। অবাক বিশ্ময়ে শুনলাম মোবাইলে অন্য প্রান্তে থাকা প্রিয়জনের কন্ঠের সাথে পাখির ডাক। আমার আর তার কাছে একই পাখি ডাকছে। স্বপ্ন থেকে জেগে শুনি পাখিটি ডাকছে আমার কানের কাছেই। এটি স্বপ্ন ছিল না বাস্তব তা এক রহস্য আমার কাছে আজো।

==============================

সেহেরীর জন্য জাগি আজকাল রাত তিনটায়। প্রতিদিন একটি পাখির মিস্টি ডাক শুনি৷ তিন চারদিন পরই লক্ষ্য করি, ঠিক তিনটা সাইত্রিশ মিনিটে পাখিটা ডেকে ওঠে। এক সেকেন্ডও এদিক সেদিক হয়না।

কোনো পাখির কি ভোরে ভোর হয় আর?

উৎসর্গ: শামীম চৌধুরী ভাইকে।

৩০৪জন ১৩৫জন
21 Shares

৩১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য