তোমার চোখের,
অশ্রু মোছা এই হাত!
আর ছুঁয়ে দেখেনি
অন্য কোনো যুবতীর ঠোঁট!
যন্ত্রনাগলা জলে ভেজারুমাল
আজও নিঃস্বঙ্গ রাতে,
বালিশের পাশে খোঁজে,
স্বান্তনা আর উষ্ন -উত্তাপ!

তোমার হাত থেকে ফেলেদেওয়া,
নিরাপত্তার গন্দ্ধবিহীন গোলাপ-পাঁপড়ি,
আজ প্রতিক্ষনে শুকায়,
পান্ডুপাতার নির্মম চাপে !

অভিমানের শালিক আমার,
রান্নাঘরের খড়ের চালে,
বিকেল বেলায় আর বসে না!
এখন শুধু বিড়ালছানার,
ভয় কাঁতুরে লোমে বসে,
সবার বাড়ির পাতের ভাত
দেখি ও নিরাপত্তা মাপি!
আর বাড়ির ভেতরের সভ্য
কুকুরও দেখি!

এলোমেলো জীবনের,
আমার মাথার উস্কো-খুস্কো চুলে,
তোমার না বলা শব্দের ডাক শুনি,
তুমি আজও কি তেমনি আছো!

@বাড়ি
তারিখ-২৩/১০/১২
সময়-১১ঃ০৩ রাত

২০৮জন ২০৮জন
0 Shares

৬টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য