নদী ও শ্লোগান

সাবিনা ইয়াসমিন ১২ অক্টোবর ২০১৯, শনিবার, ১১:০৯:২৬অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ৩৯ মন্তব্য

নদী নিয়ে কতকিছু লেখা যায়। কত কবিতা, কত গান, কত ছবি নদীকে নিয়ে। মানব সভ্যতার সাথে নদী জড়িয়ে আছে ওতপ্রোত ভাবে।

মিশরের নীল নদ, চীনের মেকং নদী, উত্তর আমেরিকার  মিসৌরি নদী, রাশিয়ার ভলগা নদী, ভারতের গঙ্গা নদী, ব্রাজিলের আমাজন নদী জগৎখ্যাত।
নদীতেই মিশে আছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সংস্কৃতি, ইতিহাস, ঐতিহ্য। একটি দেশের পরিচয় এবং স্বাতন্ত্রবোধ নদীর মাঝে থাকে মাঝে মধ্যে।

প্রতিটি নদীর উৎপত্তি কোন না কোনো ঝর্না হতে এবং এর শেষ গন্তব্য কোনো না কোনো সমুদ্র বা মহাসমুদ্র। বহমান নদীর তীরেই  গড়ে উঠেছে বিভিন্ন সভ্যতা। কেহ বা নদীকে সম্পদ ভাবে, কেহ আবার নদীকে মেরে ফেলে নিজেদের স্বার্থে।

বাংলাদেশের স্বাধীকার আদায়ে এবং নিজেদের একটি আলাদা পরিচিতির জন্য একটি শ্লোগান ১৯৬৯  এর ছাত্র গন আন্দোলনে বেশ প্রভাব ফেলেছিল। স্লোগানটি ছিলো ” তোমার আমার ঠিকানা – পদ্মা মেঘনা যমুনা “। এই শ্লোগানের তিনটি নদীই বাংলাদেশের প্রধান নদী। এই শ্লোগানে তৎকালীন পশ্চিম পাকিস্তানের কোনো নদী ছিলো না। শ্লোগান দিয়েই পাকিস্তানী শোষকদের বুঝিয়ে দেয়া হয়েছিল যে আমরা আমাদের নিয়েই সন্তষ্ট, তোমাদের কোন কিছু আমাদের প্রয়োজন নেই, আমাদের ঠিকানা এই তিন নদীর দুই কুলে।
এই শ্লোগানেই বাংলাদেশের মানুষ পেয়েছিল তার আত্ম-পরিচয়। আমরা ধীরে ধীরে এই শ্লোগানকে ধারণ করে স্বাধীনতার দিকে ধাবিত হয়েছি।

আমার বিবেচনাই স্বাধীকার আন্দোলনে পৃথিবীর সেরা সুন্দর, শক্তিশালী, সাংস্কৃতিক শ্লোগান এটিই।

ছবি তোলক: আমি সাবিনা ইয়াসমিন,

৩৮৭জন ১৬জন
32 Shares

৩৯টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য