ধর্মের নামে অধর্ম

হালিমা আক্তার ১৮ অক্টোবর ২০২১, সোমবার, ১১:৫৬:০৮অপরাহ্ন সমসাময়িক ১৭ মন্তব্য

কীভাবে লিখবো? কী লিখবো? কী দিয়ে শুরু করবো? শুধু বলবো মানুষ হিসেবে আজ লজ্জিত। ইচ্ছে করছিলো না কিছু লেখার। এখন দেখলাম – নগ্নতায় ছেয়ে আছে আকাশ। লজ্জা নিবারণের নাই কোন বাতাস। মানুষ পোশাক পরিধান করে লজ্জা নিবারণের জন্য। কিন্তু এই লজ্জা ঢাকবার পোশাক কোথায়।

আমার শোনা মতে কুমিল্লায় পূজা মন্ডবে দেবীর পায়ের নীচে  পবিত্র কুরআন রাখা হয়েছিল। এর প্রতিবাদে আগুন জ্বলছে। ঘটনা কতটুকু সত্য জানিনা। যদি সত্য হয়ে থাকে,  এক্ষেত্রেও নিন্দা জানানোর ভাষা জানা নেই। কিন্তু এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে যে তান্ডবলীলা চলছে সেটা কোন ধার্মিকতার কাজ! একটা অন্যায়ের প্রতিবাদ করার জন্য আরেকটা অন্যায় করা, কতটুকু যৌক্তিকতা প্রকাশ করে। এটাতো প্রতিবাদ নয় প্রতিহিংসা। ইসলাম অর্থ শান্তি। ইসলাম শান্তির ধর্ম।  ইসলাম ধর্মকে পুঁজি করে, সাধারন মানুষের আবেগকে সম্বল করে, নিরীহ মানুষের বাড়িঘর দোকানপাটে আগুন জ্বালানো কোন ধার্মিকতার পরিচয় বহন করে না।

কি অপরাধ ওই সাধারন মানুষগুলোর। নিরীহ মানুষের উপরে হামলা চালানোর অধিকার তো আল্লাহ কাউকে দেয়নি। বিদায় হজে আমাদের প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ (স:)  – ধর্ম নিয়ে বাড়াবাড়ি করতে নিষেধ করে গেছেন। অথচ আমরা সে কাজটাই করে যাচ্ছি।নিজ নিজ ধর্ম পালন করুন। অন্য ধর্মাবলম্বীদের সম্মান করতে শিখুন। মনে রাখতে হবে, আমাদের প্রতিটি কাজের হিসাব দিতে হবে।

ধর্ম নিয়ে কোন বাড়াবাড়ি নয়। সবাই সহনশীলতার পথে চলি। মেঘে ঢাকা আঁধার কেটে যাক। একজন মানুষ হিসেবে না হয় মানুষকে সম্মান করি। জাগ্রত হোক সকল বিবেক।

ছবি: নেট থেকে।

 

 

১৮৬জন ৪২জন
0 Shares

১৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য