দুঃখগুলো বুকের নাগরিক

প্রিন্স মাহমুদ ১৪ অক্টোবর ২০১৩, সোমবার, ০৩:০৬:৩৫পূর্বাহ্ন গল্প ১৪ মন্তব্য

আতাহার অনেকক্ষণ ধরে অপেক্ষা করছে । প্রায় এক ঘণ্টা চল্লিশ মিনিটের উপর ।

নাজিফাহর জন্য আতাহারের অপেক্ষার রেকর্ড চারঘন্টা তেরো মিনিট ।

কখনো এবারের মতো অস্থির লাগেনি । তার কলেজ ছুটি একটায় । দুইটা চল্লিশ বেজে গেছে ।

এখনো সে বাসায় আসেনি । বিপদে পরল না তো ? নাকি জ্যামে ? কে জানে !

 

ঐ তো সে আসছে । সাহস করে একবার কথা বললেই হয় ।

কিন্তু প্রচণ্ড পানির তৃষ্ণা হচ্ছে । তাছাড়া এই মেয়ে এমন ভঙ্গিতে

কথা বলার সময় তাকায় বুক ধড়ফড় করে । যাই হোক ।

কথা বলা যাক । এই মেয়ে যে পরিমান গম্ভীর সাবধানে কথা বলতে হবে ।

 

নাজিফাহ , তোমার নাম কি ?

– এটা কোন ধরনের কথা ?

এটা সৌজন্যমূলক কথা

– আমাকে কেন বলছেন ?

তোমার নাম জানতে চাইছি । এটা তো দোষের কিছুনা ।

– নাম ধরে ডেকে নাম জানা কিন্তু দোষ ।

দোষ হলে দোষ । পানি খাওয়াতে পারবে ?

– পানি নেই আমার কাছে । বাসায় গিয়ে খান

তোমার ব্যাগে কিন্তু পানি আছে  । ১০০% সিউর ।

– তারপরেও দেয়া যাবেনা ।

 

এক ঘণ্টা তেতাল্লিশ মিনিট ধরে তোমাকে দেখার জন্য দাঁড়িয়ে আছি।

একটু পানিও দিবেনা ? তোমাদের প্রিন্সিপাল আপাও তো এতো কঠিন না ।

– আপনি কি ইচ্ছা করেই আমার সাথে এইরকম করেন না এমনিতেই এইরকম ?

ইচ্ছা করে করিনা , তুমি আশেপাশে থাকলে শর্টসার্কিট হয় । এতো দেরি কেন বল তো ?

– আপনাকে বলবো কেন ?

– আচ্ছা বলতে হবেনা । ব্যাগে সবসময় ছাতা রাখবে । রোদেতো চামড়া পুড়ে যাবে ।

– অনেক হয়েছে । এবার বাসায় যান । সারাদিন বাসার সামনে ঘুরাঘুরি করেন , দেখতে ভালো লাগেনা ।

– কি করবো বল ! একেলা বেদনা সয়না

– একদম চুপ । বাসায় যান

 

আতাহারের বুক ধড়ফড়ানি কমে আসছে । এখন আফসোস লাগছে ।

আজো ভালোবাসি বলা হল না ।কোনদিন কি হবে ?

 

 

মোরাল –

তোমার সাথেই থাকুক যতই

স্বার্থ নিয়ে দ্বন্দ্ব

হৃদয় ঘরে অন্য কারো

আসা যাওয়া বন্ধ

 

@ প্রিন্স মাহমুদ ।

১৮৪জন ১৮৩জন
0 Shares

১৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য