দিগন্তে বাসন্তি রং

রিতু জাহান ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, রবিবার, ০১:০২:৫৩পূর্বাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৮ মন্তব্য

আমার সাথেই শুধু ভালবাসার আড়ি এক জনমের,বহু জনমের,
সেখানে কোনো বসন্ত নেই, নেই কোনো ঠিকঠাক দিনক্ষণ।
মাঘের শীত শেষ, আজ বসন্তের প্রথম প্রহর,
অথচ মেঘময় আকাশ, কিশোরী কচি ডগার বসন্তে ঝরঝর করে ঝরে পড়ে
অসময়ের বরষার ধারা।
নেই কোনো বাসন্তি উঠোন, তাই সাজানো গোছানো
আলমারি খুলে সমস্ত শাড়ির ভাজেও বাসন্তি কোনো রঙ তাই নেই,
আছে কিছু সাদাকালো লাল নীল শাড়ি।
আছে অভিমানের এক মস্ত দেয়াল
আকাশ ছোঁয়া;

কিছু প্রেমাবেগ ঐ দিগন্তের মতোই মিলবে মিলবে করেও মিলে না।
এ এক কল্পনার সন্ধ্যা বাসর
সমস্ততা শেষ করে আসা যেখানে,
সেখানে দীর্ঘ রাতের বাসর সাজে
শিউলী ঝরা ভোর অবধি।

আচ্ছা, ভালবাসা বা প্রেমের রঙ কি?
বাসন্তি রং নাকি কৃষ্ণচূড়ার লাল?
অথবা শরৎ এর সাদা শুভ্র নির্মল রূপ
নাকি আকাশের ঐ নীল, যার ছায়ায় সমুদ্রও নীল।

আনমনে খেয়ালে বেখেয়ালে যতো রঙ সেজে ওঠে
তাতে স্পষ্ট হয় হায়ারোগ্লিফিক্স লিপিবদ্ধ ধূসর রং এর কালো ছাই পাড়ের
এক প্রিয় শাড়ি মাঝে মাঝে তাতে যৎসামান্য নীল কিছু ছিটা,
পড়ে থাকে আলমারিতে তালাবদ্ধ দিনের পর দিন মাসের পর মাস,
হয়তো যুগ যুগ, পড়েও থাকবে তা শতবছর।

,,,রিতু,,,কুড়িগ্রাম।

১৭.০২.১৯.

বহুদিন পর হেলাল ভাই গুুুরজীর কবিতা পড়ে কবিতা লেখার চেষ্টা করলাাম।

৭০৬জন ৭০৪জন
5 Shares

১৮টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ