দানব

অরণ্য পুলক ২৪ নভেম্বর ২০১৩, রবিবার, ০৪:৪৪:০০পূর্বাহ্ন বিবিধ ১৪ মন্তব্য

আবার শুরু সেই যন্ত্রণার।চামড়ার নীচে।আস্তে আস্তে এখন আমার চামড়া খুলে যাবে।আমি পরিণত হব একটা নগ্ন মাংসপিণ্ডে।যন্ত্রনা ,বড়ই যন্ত্রণা।মাঝে মাঝে বমি আসে।বড় বীভৎস আমার সে রুপ।সপ্তাহে একবার এ কি অবস্থা হয় আমার!!??ভাগ্যিস কেউ জানে না তা।কেউ হয়ত জানবেও না।হয়ত বা জানবে!!কি হবে তখন???আমি কি বিতাড়িত হব এই সমাজ থেকে?হয়ত.. একটা জন্তু যা প্রতি সপ্তাহে নতুন একটা রুপ পায়,যার বীভৎসতায় সে নিজেই ভীত।তাকে নিজের মাঝে কোন সমাজ রাখবে???ওহ যন্ত্রণা।কেন এমন হল।যদি এই আমার পরিনতি হয়!!তবে মানুষের মাঝে মানুষ রুপে কেন আমার জন্ম???? কেন?কেন??কেন???কেন পুরো একটা রাত আমার এক টুকরা মাংসপিণ্ডের ন্যায় কাটাতে হয়।কেন এই অসহ্য যন্ত্রণা??যদি আমি মানুষ না হই তবে কেন আমার নিজ গোত্রের লোকেরা আমাকে খুজে নেয় না।মানুষের মাঝে এখন আর ভাল লাগে না।এটা আমার জন্য খারাপ।খারাপ সাধারন মানুষের জন্য।কেননা যতই আমি তাদের থেকে দূরে যাচ্ছি,ততই তাদের প্রতি অদ্ভুত একটা আকর্ষণ আমার তৈরি হচ্ছে।এই আকর্ষণটা খারাপ।এই আকর্ষণ তাদেরকে আমার নিজের মাঝে বিলিন করে দেয়ার,তাদের রক্ত মাংস নিজের মাঝে নেয়ার আকুতি তৈরি করে।আমি কি দানব?!আমি কি দানব!!?? কেও আমাকে রক্ষা কর।কেউ!! কেননা তোমাদের নিজেদের রক্ষা করার জন্য আমাকে রক্ষা করা জরুরি।এই থলথলে মাংসপিণ্ডে পরিণত হওয়া থেকে আমাকে রক্ষা করা জরুরী………

২১২জন ২১১জন
0 Shares

১৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে
  • অরণ্য পুলক-এর দানব পোস্টে