তৈলচিত্র

এস.জেড বাবু ৩১ মার্চ ২০২০, মঙ্গলবার, ০১:৪৪:১৬অপরাহ্ন কবিতা ২০ মন্তব্য

বন্ধু ! একটা তৈলচিত্র এঁকে দাও।
যেন আস্তাকুঁড়ে পতিত দেয়ালের
খড়কুটে পটভূমি জুড়ে আঁকা
লাস্যময়ী মরুদ্যানের আঁচল ছুঁয়েছে
উর্বশী নদীর বুক।

নির্বাক ছাঁয়া সঙ্গী করে
সন্তপর্নে হেঁটে যাওয়া নিশাচর তৃণভোজী,
আর মাংসাসী পায়ের ছাঁচে থমকে থাকা জলছাপে
আচমকা ঝিলিক মারে,
গাঢ় নীলের বুক চিরে বেড়িয়ে আসা
রূপালী বিজলীর হটাৎ আত্মগোপনের চলচিত্র।

বন্ধু ! একটা তৈলচিত্র এঁকে দাও।
যেন শান্ত ঢেউয়ের দোলায়,
বালিয়াড়ির চিবুক ছুঁয়ে আসা
ভেজা আঁচলের স্পর্শে,
ঘুমন্ত সৈকতের উদাম বুকের মধ্যিখানে
সিক্ত বালুচরে নিঃশ্বাস ফেলছে আঁধার।

তারাগুলি মুখ লুকিয়ে
হীম শীতল অলসতায়,
নিহারিকা পথ হারিয়ে
অমাবস্যার অন্তড়ালে,
যতদুর চোখ যায় ঘনঘোর নিঃশব্দ ছাঁয়াপথ।
খরা লেগেছে আলোর- রাত্রিটা মরুভূমি।

বন্ধু ! একটা তৈলচিত্র এঁকে দাও।
যেন কালাহারির আলেয়া নৃত্যে,
দিক-হারা মরিচিকা পথে-
ভ্রান্ত মুসাফিরের সহস্র বছরের ক্লান্তিসম নির্ঘুম চোখে,
আয়েশী পলক ফেলে-
জোঁনাকির ছুটন্ত উড়ন্ত বে-খেয়ালী আলোর ফোয়ারা।

ক্লান্ত নাবিকের কম্পিত হাতে গাণিতিক ছক,
বেতার তরঙ্গে ভেসে আসা
আগাম ঝড়ের ত্রিকোনমিতিক সাংকেতিক পূর্বাভাস।

বন্ধু ! এমন তৈলচিত্র আঁক-
যেন লজ্জারাঙ্গা সৈকতের আঁচলে
নোঙ্গর করছে মহা-জাগতিক নিয়মতান্ত্রিক নির্মমতা,
নিশি লজ্জার বাঁধ ভেঙ্গে দিয়ে
উতলে উঠছে সাগর,
যেন সূর্য্যকিরণ আর আঁধারের দুরত্বে
এক জীবন সময়ের ব্যাবধান।

-০-

১৭৬জন ৭০জন
4 Shares

২০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য