তাজমহল

ইঞ্জা ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, বুধবার, ১২:০৭:২৮পূর্বাহ্ন ভ্রমণ ৩৪ মন্তব্য

তাজমহল

সময়টা যথাসম্ভব ২০০৫ সালের, দিল্লিতে অটো রিক্সা পার্টস ইম্পোর্টের ব্যাবসার কারণে যাওয়া হয়েছিলো প্রথমবার, সেইখান থেকেই এক বন্ধুকে নিয়ে আগ্রাতে যাওয়া হয় তাজমহল দেখার জন্য, দিল্লি থেকেই লোকাল ট্রাভেল এজেন্সি থেকে গাড়ী, হোটেল, গাইড সব বুকিং দিলাম, পরদিন ভোর তিনটায় গাড়ী এলে দুজনেই রওনা হয়ে গেলাম, সকাল সাতটায় পথেই এক রেস্টুরেন্টে ছোলে ভাটুরে (বড় মাপের ছোলার মজাদার রান্না) দিয়ে পরটা,লাচ্চি আর কফি খেয়ে আবার রওনা হলাম, পথিমধ্যে টোল প্লাজা পড়লো, এই প্লাজাতে গাড়ী সহ বিদেশিদের বড় এমাউন্টের টাকা দিতে হয় যা সরকারেরই নিয়ম, গাড়ীর ড্রাইভার আমাদের কলকাতার পরিচয় দিলে ছেড়ে দিলো।
বিকালে আমরা আগ্রাতে পোঁছে গেলাম, ড্রাইভার ফোন করে দিলো গাইডকে, হোটেলে পোঁছুলে এক ইয়াং ছেলে আমাদের রিসিভ করলো, ড্রাইভার আমাদের সাথে পরিচয় করিয়ে দিলো গাইড হিসাবে৷ গাইড আমাদেরকে নিয়ে গিয়ে হোটেলের রুম নিয়ে দিলো, রুম দেখে বেশ পছন্দ হলো আমার, থ্রি স্টার হোটেল, রুম, টয়লেট সব রুচি সম্পন্ন।
আমি এক কাপ চে খেয়ে শুয়ে পড়লাম, ঘুম ভাঙ্গলো সন্ধ্যা সাতটায়।

দুই বন্ধু মিলে বের হলাম রাতের আগ্রা দেখার জন্য, আশে পাশে ইতিউতি ঘুরে ফিরে এলাম হোটেলে।
রেস্টুরেন্ট ম্যানেজার জিজ্ঞেস করলো ডিনার করেছি কিনা?
না বালাতে বললো, ওদের হোটেলের টপ ফ্লোরে ঘুরন্ত রেস্টুরেন্ট আছে যা আগ্রার আর কোথাও নেই, ওখানেই খেতে পারি চাইলে।
আমরা সানন্দে রাজি হয়ে গেলাম।
লিফটে করে টপ ফ্লোরের রেস্টুরেন্টে এসে বাইরে দেখা যায় এমন এক টেবিলের সামনে গিয়ে অবাক হলাম বাইরের দিকে তাকিয়ে, আমাদের সামনেই তাজমহল দেখা যাচ্ছে তার অপরূপ সাজে, আরও অবাক হলাম সবুজ তাজমহলকে দেখে।
ওয়েটার এসে দাঁড়ালে জিজ্ঞেস করলাম, কি ব্যাপার, তাজমহল সবুজ কেন?
ওয়েটার যা বললো তার সারমর্ম হলো, পূর্ণিমার চাঁদের আলোতে তাজমহল বিভিন্ন সময়ে এক এক ধরণের রঙে রঙ্গিন হয়, যখন চাঁদ উঠে তখন এক রঙ, চাঁদ যখন মধ্য গগনে তখন এক রঙ, একটু ডলে এলে এক রঙ, আবার অস্তাচলে অন্য রঙ, কখনো সবুজ, কখনো গোলাপি, কখনো ধবধবে সাদা।
আমরা তাজমহলের রূপ আস্বাদন করতে করতে ডিনারের অর্ডার দিলাম, সাথে বিয়ার।
কিছুক্ষণ পর আমাদেরকে নিয়ে রেস্টুরেন্ট ফ্লোর ঘুরতে শুরু করলো।

পরদিন সকাল দশটায় ব্রেকফাস্ট করে রিসেপশনে এসে দেখলাম গাইড অপেক্ষা করছে, ওকে জিজ্ঞেস করলাম আমরা কখন তাজমহলে যেতে পারবো?
ও বললো, তাজমহলের গেইট খোলা হয় তিনটার দিকে, তখন যাওয়া যাবে কিন্তু গাড়ী নিয়ে যাওয়া যাবেনা, এইখান থেকে বেবি টেক্সি (তখন সিএনজি আসেনি) করে যেতে হবে।
দুপুরে আমরা লাঞ্চ করে রওনা হলাম তাজমহলের উদ্দেশ্যে।

চলবে।
ছবিঃ গুগল।

২৮৩জন ২২জন
43 Shares

৩৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য