তর্জনী

নীলাঞ্জনা নীলা ২ অক্টোবর ২০১৩, বুধবার, ০৩:৩৭:৩১অপরাহ্ন কবিতা ২৪ মন্তব্য

নাভিমূল ছিঁড়ে তীব্র চিৎকারে জানান দেয়া—
আমি এসেছি আরেকজন পূণ্যবতী শিশু
এখন আমায় ছুঁয়ে ঈশ্বর আছেন
প্রসব ব্যথার যন্ত্রণার পরেও মায়ের স্বর্গীয় হাসি আছে
বেঁচে থাকতে খাদ্যের প্রয়োজন ,
সেই ভাবনায় একাগ্র চিত্তে নিয়োজিত
আমার মা-জননী ।
তার বৃদ্ধা-তর্জনী-মধ্যমা-অনামিকা-কনিষ্ঠা জুড়ে
খাদ্যের আয়োজন—
আর বাবার তর্জনীর উপর ভর করে ,
মাটির কাঠিন্যে আছাড় খেয়ে রক্তাক্ত ;
আবারও কান্না এবং নিরাপদ আশ্রয়ও ।
বাবা-মা তোমাদের তর্জনী ব্যস্তই র’য়ে গেলো ।
এই পৃথিবীর সমান্তরাল জীবন-যাপনের ভেতরে ভেতরে
আমিও একজন আজন্ম শিশুই থেকে গেলাম ।
যে এখনও তোমাদের তর্জনীর উপর ভর করে বাঁচে ,
এই পাপী মধ্য-বয়সে ।
অন্যদিকে মুখোশের আড়ালে অভিনীত ,
ক্ষয়ে যাওয়া চরিত্রটি আর পূর্ণবয়ষ্ক হলোনা
কেবল ধারণ করে গেলো অগুণতি পাপ ।

হ্যামিল্টন , কানাডা
২৮ সেপ্টেম্বর , ২০১৩ ইং

২৪৬জন ২৪৬জন
0 Shares

২৪টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য