একজন ডাক্তার নারী একজন নরসুন্দররে বিয়ে করেছে বলে পুলিশ তাদের আটক করেছে সন্তানসহ। ডাক্তার হয়ে নরসুন্দর বর বেছে নেওয়া নাকি অপরাধ! এইটা কোন আইনে অপরাধ হলো আমি বুঝলাম না। এদিকে লোকে মেয়েটার রুচি নিয়ে গালি দিচ্ছে। যে সংসার করবে সে কাকে বিয়ে করবে তা তোমরা ঠিক করে দিবা নাকি? আবার তোমাদের দেশে মুভি হয় চৌদ্রী সাহেবের কন্যা পাশের বাড়ির রহিমের লাগি পাগল হয়, সেই প্রেমের মিলন দেখতে তোমরা টিভির সামনে বসে থাকো!

 

কদিন আগে একটা কম বয়সী সুন্দরী মেয়ে একটা বয়স্ক লোককে বিয়ে করলো বলে খুব হাউখাউ। বেচারীদের নিয়ে কি হাসাহাসি। কোনো এ্যাডাল্ট মেয়ে যদি নিজের ইচ্ছেয় কোনো বয়স্ক লোকেরে বিয়ে করে তাতে কার কি? হ্যাঁ যদি বাবা মা জোর করে দেয় সেইটা প্রতিবাদের কথা, কিন্তু কেউ নিজের ইচ্ছেয় করলে জাতির সমস্যা কি? তারা আবার সুখী সুখী ছবি দিলে আরও জ্বলে? আবার বউ বয়সে বড়,বর বয়সে ছোট হলে যারা ইহা প্রগতিশীলতা বলে তারাও এই বিয়ে দেখে হিহি করলো!

 

মানে মানুষ এখন বিয়ে করতে গেলেও জাতির অনুমতি নিয়ে করবে। তা না হলে আছে তোমাদের ফেবু মানুষরে নিয়ে খিল্লি করো, ওই দম্পতির এসব পোস্ট দেখে কেমন লেগেছিলো তাতে কার কি! আর এই ডাক্তার আর তার বররে তো পুলিশই ধরে আনলো!! মানুষের ব্যক্তিগত জীবনের মধ্যে ঢুকে নাচানাচি না করলে তো শান্তি নেই।

 

৪৫৫জন ৩১৭জন
0 Shares

৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ