ডাক্তার বউ

শুন্য শুন্যালয় ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৬, বৃহস্পতিবার, ০২:০০:৩৬অপরাহ্ন রম্য ৫৭ মন্তব্য

12688018_485813384956409_6294724339273862568_n
দৃশ্য-১:
বেশ নার্ভাস হয়ে আমাদের ব্লগার সজীব ভাইয়া বাসর ঘরে প্রবেশ করলেন। সম্পূর্ন অপরিচিত আর সুন্দরী বউকে দেখে সবকিছু তার উল্টাপাল্টা লাগতে শুরু করলো। পাশে রাখা গ্লাস থেকে ঢকঢক করে পানি খেতে শুরু করার সাথে সাথে রিনিঝিনি কন্ঠে নববধু (সুমনা) বলে উঠলো, আরে আরে, এভাবে তাড়াহুড়া করে পানি খাওয়া ঠিক নয়।
"ড্রিংকিং ওয়াটার স্লোলি মিন্ট ইয়োর বডি কুড এবজর্ব ইট মোর ইজিলি। এপারেন্টলি, ইফ ইউ ড্রিংক ইট অল ঠু ফাস্ট, ইয়োর বডি উইল যাস্ট ওয়ান্ট টু পি ইট অল আউট মোর কুইকলি"
চকচকে উৎফুল্ল চোখে আনন্দের ছটা নিয়ে সজু তাকালো তার নববধুর দিকে, আর মনে মনে ভাবলো, ইশ না জানি কি পুণ্যের ফলে এমন জ্ঞানী ডাক্তার একজন বউ পেয়েছে সে। নার্ভাসনেস কেটে গেলে সে বললো, চলো আজ আমরা সারারাত গল্প করি। বউ বলে উঠলো, কি যে বলছো তুমি? তুমি কি জানো না? "আর্লি টু বেড এন্ড আর্লি টু রাইজ মেকস এ ম্যান হেলদি?" চলো ঘুমিয়ে পরি।
🙁

দৃশ্য-২:
-একি এ- কি করছো? এই রোদ্দুরে রিকসার হুঠ ফেলে দিচ্ছ!!
=বাহ, পাশে সুন্দরী নতুন বউ নিয়ে যাচ্ছি, সবাইকে একটু দেখিয়ে দেখিয়ে যেতে হবেনা?
-আর ইউ ম্যাড? ইউ নো, "ঠু মাচ ইউভি এক্সপোজার ফ্রম দ্যা সান ইজ মেজর কজ অফ সানবার্ন, প্রিমেচিউর এজিং, আই ড্যামেজ এন্ড স্কিন ড্যামেজ লিডিং টু স্কিন ক্যানসার?"
=ও 🙁
12688188_485813404956407_174841860730975188_n

দৃশ্য-৩:
=কি সুন্দর একটা সন্ধ্যা তাইনা? পার্ক টাও আজ খুব শান্ত, শীতল। তোমার হাতটা একটু ধরি?
-আচ্ছা ধরো।একি তোমার তো দেখি জ্বর।
=না, না ও এমনি।
-কি বলছো ? জ্বরের কি বোঝ তুমি?
"এ ফিভার (অলসো টার্মড এজ পাইরেক্সিয়া) ইজ এ হাইয়ার দেন ৯৮.৪ ডিগ্রী ফারেনহাইট বডি টেম্পারেচার। ফিভার ইউজুয়ালি অকারস ইন রেসপন্স টু এন ইনফেকশান এজ উইথ দ্যা ফ্লু ভাইরাস অর উইথ ইনফ্লামেশন দ্যাট অকার্স উইথ টিস্যু ইঞ্জুরি অর ডিজিজ।" ইউ নিড সাম ইনভেস্টিগেশন। এক্ষুনি চলো।
সজু ভাইয়া তখন মনে মনে ( পুরুষের শরীরের উত্তাপের তুমি কি জানো হে নারী!! )

দৃশ্য-৪:
-এই সোনেলা ব্লগে তুমি এইসব কি লিখেছো? প্রচন্ড ক্ষুধায় স্ত্রীকে কেটে খেয়ে ফেলা যাবে মানে? আর হার্টের ইমো কেন দিবা? তোমার হার্টে জীবানু দেখা দিয়েছে? তুমি জানো জীবানু হলে কি হয়? এটাকে বলে ইনফেকটিভ এন্ডোকার্ডাইটিস।
"ইনফেকটিভ এন্ডোকার্ডাইটিস ইজ ডিফাইন্ড এজ এন ইনফেকশান অফ দ্যা এন্ডোকার্ডিয়াল সারফেস অফ দ্যা হার্ট। ইফ লেফট আনট্রিটেড, ইনফেকটিভ এন্ডোকার্ডাইটিস ইজ জেনারেলি ফেটাল।" চলো এক্ষুনি কার্ডিওলজিস্ট এর কাছে।
=না না, হৃদয়ে কোন জীবানু টিবানু হয়নি, আসলে আমার মনের মধ্যে জীবানু দেখা দিয়েছে।
-কি বলছো তুমি এসব? এতো একজন মানসিক রোগীর কথা। আর এসব কি লিখেছ, স্বপ্ন তৈরি করতে হবে মানে? স্বপ্ন তো দেখার জিনিস। আমি নিশ্চিত তোমার একজন সাইক্রিয়াটিস্ট এর সাথে দেখা করা উচিত। চলো এক্ষুনি বুকিং দেব।
=নাআআআআআআআআআ। পৃথিবীর কোন সাইক্রিয়াটিস্ট আমার কিচ্ছু করতে পারবেনা। একমাত্র তুমিই পারো আমাকে বাঁচাতে। আমার ডাক্তার বউ বিয়ের শখ মিটে গেছে। প্লিজ আমাকে এন্টি ডাক্তার ভ্যাক্সিনেশন এর ব্যবস্থা করে দাও, প্লিইইইইজ ;(

7 Shares

৫৭টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ