চিত্রলেখা

সৌবর্ণ বাঁধন ১ আগস্ট ২০২১, রবিবার, ০৪:২৪:০৯অপরাহ্ন ছবিব্লগ ১১ মন্তব্য

নয়নতারার নয়নে নয়নে সূর্য্য ভেসেছে আজ,
এমন আগুনে পুড়তে বলো কার না জাগে সাধ,
আজ বন্ধ থাকুক প্রেমের বাসর,
বন্ধ থাকুক রুটিন মেনে দিনের সকল কাজ!

জীবন যেখানে চুপ সেখানেও আকাশ থাকে,
থাকে অস্তিত্বে মৃতদের তীব্র কম্পন,
চলে যায় যারা না জানিয়ে হুট করে একদিন,
তাদের শিডিউলেও থাকে সুদীর্ঘ ভ্রমণ!

হয়তো ভাসছি সঙ্গীতের লয়ে বাতাসে ও জলে,
ছুঁয়ে আছে কয়েকটা শিশির অকারণে,
ভাবছে আমিও তাদের ভালোবাসি!
নিস্পৃহ জীবনের মাঝে স্রেফ যাই আর আসি,
হয়তো কাউকে নয় নিজেকেই ভালোবাসি!

কেই বলে তাকে জীবন্ত গতিশীল শ্বাসমূল,
কেউ বলে ‘নড়িতেছে কয়েকটি কীট’,
আগামাথা জুড়ে দিয়ে রেখেছে সময়ের গিঁট,
আদি আর অন্ত বুঝি দূরত্বহীন,
একই বিন্দুতে জীবন মৃত্যু হচ্ছে বিলীন!

বিন্দুতে জমে যায় মাঝে মাঝে মহাবিশ্ব,
মনে হয় পাখির মতো শূন্যে উড়ি ক্রমশ আবার!
বারবার বিন্দু থেকে এই অসীমের বুক চিরে যাত্রা,
আমার ভিতরে আমি! আমার বাহিরে আমি,
এতো হিসাবের মাঝে শূন্যের হয়নাতো মাত্রা!

তোমাকে ভাবতাম প্রায়ই সবুজের মন্দির,
অথচ তুমি ছিলে হৃদয়ের ক্ষ্যাপাটে সাগর,
কতো কাছে বেজেছিল সুগভীর কল্লোল!
হেডফোনে প্রতিধ্বনিত হয়ে অধরা প্রাচীর,
মাঝে মাঝে বলে গ্লাসে হচ্ছে ক্রমশ শেষ-
তৃষ্ণার জল! নোনা ঢেউ হচ্ছে প্রবল!

আজন্ম ভেবেছি আমার রং এ আমিই উজ্জ্বল,
তবু তীব্র জ্বরের ঘোরে পাই টের,
সবটুকু আলো পিছনের সীমাহীন এক দেয়ালের,
যাকে আমি ছুঁতে পারিনি কখনো!

এই যে মিশে যাওয়া ধীরে ধীরে নিঃসীম স্তব্ধতায়,
পাথরের সাথে মিশে জল হয়ে যাওয়া পুনরায়,
তোমরা জীবন বলো যাকে,
পৃথিবীর সব প্রেম থামাতে পারেনা আজো তাকে,
শুধু অন্ধকারে এক ঝাঁক নিরর্থকতাই বেঁচে থাকে!
কি তার মানে! এই সব আসা যাওয়া, দিন ও রাত,
মাটির সোঁদা গন্ধ কি তার অমূল্য উত্তর জানে!

৩৯২জন ৫৫জন
26 Shares

১১টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য