চিঠি

ফজলে রাব্বী সোয়েব ৩১ মে ২০১৯, শুক্রবার, ০১:০১:২৯অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ২২ মন্তব্য

প্রিয় মা ও বাবা,

আশা করি তোমরা ভাল আছ। আমি ওপারে খুব ভাল আছি।আজ তোমাদের কথা খুব মনে পড়ছে। কান্না পাচ্ছে খুব।জানি কোন লাভ হবে না, তারপরও খুব কষ্ট নিয়ে তোমাদের লিখছি। তোমাদের কথা প্রায়ই খুব মনে পড়ে আমার। এখানে আমার মত অনেকেই আছে, কিন্তু আমি জানি না আমার মত তারা তাদের বাবা মাকে মিস করে কিনা। তোমরা এখন যার যার মত করে ভাল আছ। সংসার নিয়ে তোমরা খুব ব্যস্ত। থাকবেই তো। ভাল আছ, সুখে আছ। আমি ভাল আছি, কিন্তু মনে কোন শান্তি নেই। এখানে খাবারের অভাব নেই, খেলাধুলা করতে পারি ইচ্ছেমতো। শুধু একটাই অভাব, তোমাদের অভাব। এই অভাবটা প্রায়ই আমাকে কুঁড়ে কুঁড়ে খায়। যে সময়টাতে তোমাদের সাথে থাকার কথা ছিল, তোমাদের আদর, ভালবাসা, বকুনি খাবার কথা ছিল, ঠিক সেই সময়টাতেই আমি একা।এখানে অনেক বন্ধু আছে, কিন্তু তোমরা নেই।আমি একটা কথাই তোমাদের কাছ থেকে জানতে চাই, কি দোষ ছিল আমার। কেন আমাকে জন্ম দিয়ে ওই রাস্তার কুকুরকে দিয়ে খাওয়ালে? জানি, এটা তোমরা করেছ লোকলজ্জার ভয়ে।মাগো, এতই যদি ভয় তবে কেন আমাকে তুমি পেটে ধারণ করলে!বাবা, এতই যদি ভয় তোমার তাইলে কেন তোমার শুক্রাণুটাকে আমার জন্মের জন্য ছেড়ে দিলে! জানি, তোমরা উত্তর দিতে পারবে না। আমাকে যে তোমরা হত্যা করেছ তার জন্য তোমাদের কখনও বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করাবোনা। তোমরা যে আমার ই প্রিয় মা ও বাবা, আমার সবচেয়ে প্রিয়জন। আজ আর লিখবো না। চোখে পানি চলে এসেছে, কিছুক্ষণ কাঁদব নিজেকে হালকা করার জন্য।শুধু বিদায় নেয়ার আগে এটাই বলব, তোমাদের সম্পর্কটা অবৈধ ছিল, কিন্তু আমি ছিলাম না। ভাল থেকো তোমরা।

ইতি,

তোমাদের অবৈধ সন্তান।

২৩৬জন ৯১জন
2 Shares

২২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য