IMG_20130101_041742গরুর কথা মনে এলেই চোখের সামনে ভেসে উঠে চার খানা পা বিশিষ্ট একটি চতুর্ষপদ প্রানীর ছবি।তবে  এই চার পা গরু ছাড়াও কিছু গরুর চিত্র থাকে মানুষের মুখে মুখে কর্ম সফল হীনদদের বদলতে উদাহরন স্বরূপ সামনে আসে।আমার লেখা মানুষকে নিয়ে নয় গরুকে নিয়েই,বোবা জাত হলেও ওদেরও একটি ভাষা আছে যা কেবল ওরাই বুঝতে পারে তবে ব্যাতিক্রম যে তাদের কিছু প্রতি পালকও তাদের ভাষা বুঝতে পারেন।সে রকম এক ব্যাক্তির নাম কুমিল্লায় মুরাদনগর জেলার বড় সাল ঘর গ্রামের এক প্রাইমারী স্কুল মাষ্টার।নাম তার মোস্তায়িন মাষ্টার।তার গরু প্রেম নিয়ে অনেক অনেক মজার তথ্য সারা গ্রামেই ছড়িয়ে আছে।এই পর্বে আমি তার একটি ঘটনার কথা বলব।
তাহার ছিল চারটি গরু একটি বাছুর।মা-বাবা, বড় ছেলে,ছোট ছেলে এবং শিশু নাম করন করে নিলাম।এমনি কোন এক ঈদ উৎসবে রাত অনুমানিক একটা কি দুইটা হবে।তারা তাদের ভাষায় কথা বলছে…..
-কিগো,আমাদের বড় ছেলেটা বোদ হয় কাল সকালেই আমাদের হাটে যাবে।এই ঈদে হয়তো তাকে হারাতে হবে।
পিতার চোখেঁ পানি….আবারো মা তার স্বামীকে বলছে।
-কিগো,তুমি কিছু বলছ না যে,মালিক না তোমার জানের জান।তুমি বলো না তোমার মতোই আইভ্রু করে তোমার ছেলে মেয়েদেরকেও যেন ঘরেই রেখে দেয়।
সত্যিই তাই ষাড় গরুটি বেশ বড় সর এবং স্বাস্থ্যবান তবুও মালিক মোস্তায়িন কি এক অদৃশ্য মায়ায় যেন বছরে পর বছর ষাড়টিকে হাটে বিক্রি না করে রেখে দিচ্ছেন নিজের গোয়ালেই।অবশ্য তাকে রেখে দেবার মূল কারন একটু পরেই জানতে পারবেন।
ভারাক্রান্ত মনে পিতা তার স্ত্রীর কথার উত্তর দিচ্ছে……চোখের কোণ বেয়ে অঝরে জল ঝরছে।
-কি বলব!মালিকের ইচ্ছে……
এরই মধ্যে গোয়াল ঘরের বাহিরে কে বা কারা যেন গরু চুরির নেশায় পায়চারি করছেন তা তাদের ছোট ছেলে তার বড় ভাইকে ফিস ফিস করে বলছে।
-ভাইয়া কে বা কারা যেন আশে পাশে ঘুরাঘুরি করছে…..
-চুপ থাক!কালতো আমাকে মালিক এমনিতেই হাটে নিয়ে বিক্রি করে দিবে…তার চেয়ে ভাল এখন চুরদের হাতে ছুটতে পারলে,দৌড়ে পালিয়ে যাবো।
ভাইয়ের নিরাপত্তার কথা বুঝতে পেরে সে চুপ হয়ে গেল।
পিতার কানে হঠাৎ মালিকের কক্ষ হতে কেমন যেন কান্না অথবা কোন ব্যাথায় কাতর গোঙ্গানির শব্দ বুঝতে পারল আরো একটু কনফার্ম হতে ছেলে মেয়েদের ফিস ফিস কথা বার্তা থমক দিয়ে বন্ধ করল।তার স্ত্রীকে জিজ্ঞাসা করছে সে…
-তুমি কিছু শুনতে পাচ্ছো?
তার স্ত্রীও মনযোগ দিয়ে শুনল।
-হুম,তাইতো মনে হচ্ছে…..মনে হচ্ছে গত বারের মতো এবারো মালিকের পেটের পুরনো ব্যাথাটি উঠেছে….তা মালিকের বউ যেন কেমন!মালিকের একটুও খবর রাখেন না শুধু নাক ডেকে ডেকে ঘুমায়….।
-কি খবর নিবে বলো!ওদের মনেতো শান্তি নেই,আজ কতগুলো বছর চলে গেল!ঘরে তাদের কবরে বাত্তি দেবার মতো কেউ এক জনও এলো না।কত তাবিজ কবজ ডাক্তার দেখালো কোন কাম হল না…মনে হয় বন্ধাত্বের অভিশাপ নিয়ে পৃথিবী হতে বিদায় নিতে হবে মালিককে।

আবারো সেই গোঙ্গানির শব্দ এবার শব্দের তীব্রতা বেশী বুঝতে পারল,মালিকের ভীষন অসুখ।ষাড় গরুটি ততক্ষনে ফোফাতে লাগল,চেষ্টা করছে দরিটি ছিড়তে কিন্তু চোরের ভয়ে দরি না দিয়ে শিকল দেয়াতে তাকে খুব কষ্ট হচ্ছে তা ছিড়ে মালিকের কাছে যেতে।তাকে সহযোগিতা করতে তার ছেলে মেয়ে বউ তাদের মাথা দিয়ে বাশের খুটিটিই ভেঙ্গে ফেলে…
এবার সে এক ঝটটকা দৌড়ে মালিকের ঘরের মেইন দরজায় শিং দিয়ে জোরছে আঘাত করে দরজাটি ভেঙ্গে মালিকের সামনে গিয়ে প্রচন্ড শব্দে হাম্বা হাম্বা করতে থাকে ততক্ষণে মালিকে স্ত্রী ঘুম ভেঙ্গে যায়,শব্দে আশে পাশের লোকজন জেগে মালিককে সেই রাতে গরুর গাড়ি করে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নিয়ে যায়।
তখন রাত অনুমানিক তিনটে কি চার বাজে,কেননা কিছুক্ষণের মধ্যেই ফজরের আযানের ধ্বনি শুনতে পাওয়া যায়।ক্লিনিকে তাদের সাথে একজন অপরিচিত লোক দেখে মালিকের এক ভাতিজা অপরিচিত লোকটিকে সন্দেহে জিজ্ঞাসা করেন।
-আপনি!আপনি কে?আপনাকেতো এ গ্রামে আগে কখনো দেখিনি!
-জি,ঠিক ধরেছেন,আমরা ভিন গ্রামের….গরুর এমন মানব প্রেম দেখে আমরাও পালিয়ে যেতে পারলাম না।

-{@ পাড়া প্রতিবেশীরা গরুগুলোকে নজরে বেধে রাখেন।গরুর এমন দৃশ্য দেখে চোরগুলোও মানুষ হয়ে গেল।প্রকাশ্যে এক চোরতো বলেই ফেলল “আমি কেন গরু হলাম না…রে”।।
৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹৹ -{@
(y) অন লাইনে গরু বেচা কেনার জনপ্রিয় এবং বিস্বস্ত সাইটগুলো
(y) অন লাইনে গরু কিনুন
এ ছাড়াও আছে…..
 (y) মাগুড়া গরুর হাট
(y) রাজশাহী গরুর হাট যা ভারতীয় গরুর দখলে
(y) গাবতলী হাটের নানান কথা
(y)চট্রগ্রামের গরুর হাটের ভিডিও
(y) গরু আসছে হাটে হাটে তবে  সীমান্তে ঘুষের রেট বাড়তি
(y) লাল মণির হাটে প্রচুর গরু লোকসানে দেশীয় সম্পদ
(y) রাজধানীতেও আসছে প্রচুর গরু

“নাড়ির টানে যারা ঘরে ফিরবেন একটু সাবধানে, “বিপদকে এড়িয়ে জীবনকে বাচিয়ে”
আমার এডিট করা ছবি দিয়ে জানাচ্ছি….
“সবাইকে ঈদের অগ্রীম শুভেচ্ছা”
-{@ -{@  -{@  -{@
1442769237457
instabokeh_2015914181012446
1442769297687
instabokeh_2015914182337245
1442769296196
ধন্যবাদ। 

৫০২জন ৫০০জন
0 Shares

২২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ