গরিবের ডাস্টবিন

নিতাই বাবু ৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, বুধবার, ০৪:৫১:০৮পূর্বাহ্ন কবিতা ২০ মন্তব্য

আমরা অসহায় দরিদ্র আমরা থাকি সদা ক্ষুধার্ত,
ক্ষুধার জ্বালায় ছটফটে মরি জীবনের প্রতিটি মুহূর্ত।
খাবার নেই কোথাও নেই, খুঁজি জনে খুঁজি বনে,
ওঁরা আমাদের দেয় না, খাবার ফেলে দেয় ডাস্টবিনে।

ঘুরি ধারে ধারে  আর পথে পথে, খাবার খুঁজে পাইনা, 
যাই ডাস্টবিনের ধারে, খাবার দেখে মন মানেনা।
খোলা ডাস্টবিনের ময়লার গন্ধে বিড়াল কাঁদে,
নিশ্বাস হয় বন্ধ, পথিক চলে নাকে রুমাল বেধে।

আমরা নাচি আনন্দে ডাস্টবিনে থাকা খাবার দেখে,
ময়লার গন্ধে আমাদের আয়ু বাড়ে, দৃষ্টিও বাড়ে চোখে।
আমরা কুড়িয়ে খাই নিজের ইচ্ছেমতো যা খুশি তা-ই,
সেখানে আর কেউ দেয়না বাধা, আমরা পেট ভরে খাই।

যেখানে ফেলায় সমাজের বড় লোকেরা বাড়তি খাবার,
সেখানেই আমাদের রিজিক, আমাদের দরিদ্রের আহার।
আমরা খাই মনের আনন্দে, আমাদের ক্ষুধা যায় মিটে,
আমাদের খাওয়া দেখে বড়লোকরা হাসে খিটখিটে।

তাদের হাসিতে আমরাও হাসি সুস্বাদু খাবার পেয়ে,
ক্ষুধার জ্বালা মিটাই মনের আনন্দে পেট ভরে খেয়ে।
কখনও পাই সেখানে পচা খিচুড়ি আর বাসি তরকারি,
কখনও পাই পচা ভাত কোরমা পোলাও কারিকরি।

তবু খাই আমাদের দুঃখ নাই, প্রার্থনা করে যাই,
ডাস্টবিনে যেন আমরা আরও বেশি খাবার পাই।
আশীর্বাদ করি বেঁচে থাকুক সমাজের বড় লোকেরা,
আরও ফেলবে খাবার ডাস্টবিনে, খেয়ে বাঁচব আমরা।

 

ছবি ইন্টারনেট থেকে।  

১৫৮জন ৭৮জন
17 Shares

২০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য