‘ আমি ওয়াদা করছি, প্রতিশ্রুতি দিচ্ছি যে এই জগতে তোমাকে কখনো একা অনুভবে রাখবো না। ‘ 
কত সুন্দর একটি ওয়াদা বা প্রতিশ্রুতি। একজন প্রেমিক/প্রেমিকা একে অন্যজনকে এই প্রতিশ্রুতি দিলে তার আর কি চাই? তার নিঃসঙ্গতা, একাকিত্ব অন্যজনে রাখবে না। প্রতিটি ক্ষণ ছায়া হয়ে থাকবে সে, যাতে এক মুহুর্তের জন্যও অন্যজনে একাকিত্বে ভুগবে না।

আজ প্রমিজ ডে। পুরাতন প্রেমিক প্রেমিকা, স্বামী স্ত্রী কি ই বা নতুন করে প্রমিজ করবে? তারপরেও পিছনে দেয়া ওয়াদা বা প্রতিশ্রুতি গুলো ভাবা যায়, ভাবা যায় সেসব ওয়াদা বা প্রতিশ্রুতি কতটা পালন করা হয়েছে। নতুন করেও ওয়াদা করা যায়। যেমন আগামী কোথাও বেড়াতে নিয়ে যাওয়া, প্রিয়জনের অত্যন্ত পছন্দের কিছু গিফট করার প্রতিশ্রুতি দেয়া যায়। কক্সবাজার, সেন্টমার্টিন, সিলেট, পাহাড়পুর, রাঙ্গামাটি বা পুরো পার্বত্য এলাকায় ভ্রমণের প্রতিশ্রুতি দেয়া যায়।

বিশ্বাসেরও প্রতিশ্রুতি দেয়া যায়। দুজনের মধ্যে বিশ্বাসের কিছু ঘাটতি থাকতে পারে। আজকের দিনে প্রতিশ্রুতি দেয়া যায় ‘ আজ হতে আমরা দুজন দুজনকে বিশ্বাস করবো। ‘

ফেব্রুয়ারী মাস আমাদের বাঙালীদের কাছে ভাষার মাস। দিবস সমূহের বিশ্বায়নের ফলে ফেব্রুয়ারী মাসের চৌদ্দ তারিখ ভালোবাসা দিবস। এই দিবসকেই সামনে রেখে প্রেমিক প্রেমিকাদের অনেক গুলো দিবস পালন করে, যা ভালোবাসা দিবস/ ভ্যালেন্টাইন ডে তে এসে সমাপ্ত হয়।

প্রমিজ করণ আন্তরিক ভাবে। মনে রাখতে হবে প্রমিজ করতে পয়সা লাগে না। তবে অতি প্রমিজ এ আপনার চালাকী কিন্তু আপনার পার্টনার ধরে ফেলবে।

প্রকৃত প্রেমিক প্রেমিকা সম্ভব হলে আজ দেখা করুণ একান্তে। হাতে হাতে রেখে প্রমিজ করুণ ” আমি কেবল এই জনমেই নয়, জন্ম জন্মান্তরে তোমার সাথে থাকতে চাই। ”

শুভ হোক প্রমিজ ডে।

 

২১০জন ৫১জন
6 Shares

৩০টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য