এ কোন দেশে বসবাস (৩য় ও শেষ)

ইঞ্জা ২১ জুন ২০১৭, বুধবার, ০৮:২৭:৪১অপরাহ্ন সমসাময়িক ১২ মন্তব্য

 

৬) এই কিছুদিন আগেই লংগদুতে এক ছাত্র নেতাকে খুন করার জের ধরে পাহাড়ি এই জনপদে হাজার খানেক দুর্বৃত্ত মিছিল করে গিয়ে পাহাড়ি বসতি লুটপাট ও লুটপাট শেষে আগুন লাগিয়ে দিলো, আজ শতশত মানুষ বসতিহীন, ঘর নাই, বাড়ী নেই, মানুষ সহায় সম্বলহীন হয়ে আজ পথে বসেছে, একজন মানুষ খুনের দোষ কি এতোগুলো নিরাপরাধ মানুষের ছিলো, ছিলোনা নিশ্চয়?

ব্রাক্ষ্মনবাড়ীয়ার নাসিরনগরের কথায় দরুণ, এক হিন্দু ব্যাক্তির নাম দিয়ে ইসলাম ধর্মের অবমাননার দায়ে পুরা একটা হিন্দু পাড়া মেরে কেটে সাফ।
আসলে দোষ কি হিন্দুদের ছিলো?
ঘটনাক্রমে এক সময় জানা গেল, স্থানীয় এমপি, চেয়ারম্যান মিলে এই দোষে দোষী হয়েছে, বুঝুন ঠ্যালা।

আবার আরেকদিকে এক মুসলিম হাতেনাতে ধরা খেলো দাউদকান্দির এক এলাকায়, সে এক হিন্দু বাড়ীর উঠোনে কোরাআন শরীফ ছিড়ে, মল লাগিয়ে ফেলে পালাচ্ছিলো, কারণ ঐ হিন্দু পরিবারকে ঘিরে রাজনীতি।

আমার কথা হলো, কেন এমন হচ্ছে, কি কারণে হচ্ছে, অহরহ কেন হচ্ছে, এই বিষয় গুলো নিয়ে সরকারের সিরিয়াসলি নেওয়া উচিত, যদি এই সরকার ভবিষ্যতে এই দেশ শাসন করতে চায়, তাহলে অবশ্যই এইসব অনাচার দ্রুত দমন করা উচিত না হলে এইদেশের ভবিষ্যৎ খুবই অন্ধকার।
যে দেশে আইন শৃংকলার অবস্থা দিনদিন নিম্নমানের দিকে যায়, যে দেশে ধর্ষণ দ্রুত বাড়তে থাকে, যে দেশে খুন নিত্যনৈমিত্তিক, সেইদেশে নিশ্চয় মানুষ বাসের উপযোগী থাকেনা।

সাধু সাবধান।

৩৭১জন ৩৭১জন
0 Shares

১২টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ